Home /News /nadia /
Nadia: স্ত্রীর চিকিৎসার জন্য ছেলের কাছে টাকা চাইতে গেলে মারধরের অভিযোগ তুললেন বাবা

Nadia: স্ত্রীর চিকিৎসার জন্য ছেলের কাছে টাকা চাইতে গেলে মারধরের অভিযোগ তুললেন বাবা

বাবা মায়ের সাথে তার সন্তানের সম্পর্ক অটুট এবং চিরন্তন। বাবা-মা অতি কষ্ট করে তাদের নিজেদের সন্তানকে জন্ম দেন এবং লালন পালন করেন সন্তানের ভবিষ্যতের জন্য।

  • Share this:

    #নদিয়া: বাবা মায়ের সাথে তার সন্তানের সম্পর্ক অটুট এবং চিরন্তন। বাবা-মা অতি কষ্ট করে তাদের নিজেদের সন্তানকে জন্ম দেন এবং লালন পালন করেন সন্তানের ভবিষ্যতের জন্য। এবং সন্তানেরও কর্তব্য থাকে বৃদ্ধ বয়সে বাবা-মাকে দেখাশোনা করার। তাদের অসময়ের পাশে দাঁড়ানো এবং শরীরের যত্ন নেওয়ার। বাবা মায়ের বয়স বাড়লে ছেলে মেয়েদের ওপরেই তারা ভরসা করে থাকেন সম্পূর্ণরূপে। কিন্তু সমাজে এমন অনেক ঘটনা ঘটে যা অতি বেদনাদায়ক। ঠিক তেমনি এক ঘটনার নিদর্শন পাওয়া গেল নদিয়ার শান্তিপুরে। বৃদ্ধ বয়সে বাবা-মা অসুস্থ হলে সন্তানের কর্তব্য বাবা-মায়ের সঠিক চিকিৎসা করা। তাদের সুখ দুঃখে সব সময় পাশে থাকা। কিন্তু নিজের মায়ের চিকিৎসা করানো তো দূর বাবা এবং নিজের বোনের সাথে দুরব্যবহার এবং মারধর করার অভিযোগ উঠে এল নদিয়ার শান্তিপুরে। এই ঘটনায় রীতিমত চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়।

    স্ত্রীর চিকিৎসার জন্য ছেলের কাছে টাকা চাইতে গেলে বাবা ও বোনকে বেধড়ক মারধর ছেলের বলে অভিযোগ পরিবারের। ছেলের শাস্তি চেয়ে থানার দারস্থ আক্রান্ত বাবা ও মেয়ে। ঘটনাটি শান্তিপুর থানা এলাকার বাগআঁচড়া কুলে সাহাপাড়া এলাকায়। ওই এলাকার বাসিন্দা, মধুসূদন মল্লিকের অভিযোগ, শনিবার সকাল ১০ টা নাগাদ স্ত্রীর অসুস্থতার কারণে তারা একমাত্র ছেলের কাছে চিকিৎসার জন্য টাকা চাইতে গিয়েছিলেন।

    আরও পড়ুনঃ স্কুল শিক্ষিকার তৎপরতায় ধরা পড়ল চাল চোর!

    টাকা চাওয়া মাত্রই রুখে দাঁড়ায় ছেলে, এরপর তার সাথে অভদ্র ব্যবহার করে। অভিযোগ, বাবা মধুসূদন দত্ত প্রতিবাদ করলে আচমকায় ছেলে বেধারক মারধর শুরু করে, মেয়ে ঠেকাতে গেলে মেয়েকেও বেধড়ক মারধর করে ছেলে। বেধড়ক মারধর করায় দুজনেরই শরীরের বিভিন্ন অংশে গুরুতর ক্ষত হয়।

    আরও পড়ুনঃ রানাঘাট হাসপাতালে কিভাবে পালিত হল ন্যাশনাল ডক্টরস ডে! জানুন...

    এই ঘটনায় শনিবার শান্তিপুর থানার দারস্ত হয় আক্রান্ত বাবা ও মেয়ে, এছাড়াও অভিযুক্ত ছেলের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে বাবা মধুসূদন মল্লিক। যদিও অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে শান্তিপুর থানার পুলিশ।

    Mainak Debnath
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Nadia, Shantipur

    পরবর্তী খবর