Home /News /kolkata /
Arpita Mukherjeee Flat: 'ওদের কী দোষ'! অর্পিতার ফ্ল্যাটে তালাবন্দি ৯টি কুকুর কি বাঁচবে? ইডি-কে চিঠি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার

Arpita Mukherjeee Flat: 'ওদের কী দোষ'! অর্পিতার ফ্ল্যাটে তালাবন্দি ৯টি কুকুর কি বাঁচবে? ইডি-কে চিঠি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার

Arpita Mukherjeee Flat: 'এতগুলো কুকুরকে এভাবে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেওয়া অমানবিক দৃষ্টান্ত'। ইডিকে চিঠি।

  • Share this:

#কলকাতা: অর্পিতার তালাবন্ধ ফ্ল্যাটে রয়ে গিয়েছে আরও কিছু সম্পত্তি। সেসবের দেখভালের দায়িত্ব নিতে চেয়ে ইডিকে চিঠি পাঠাল একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্হা।

ইডির তরফ থেকে এখনও পর্যন্ত কোনও উত্তর দেওয়া যায়নি। তবে ইডি দ্রুত ব্যবস্থা না হলে তাঁরা প্রয়োজনে আইনের দ্বারস্থ হবেন বলে ওই স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার আধিকারিকরা জানিয়েছেন। পার্থ অর্পিতার কোন সম্পত্তির দেখভাল করতে চায় ওই সংস্থা!

আরও পড়ুন- অর্পিতার ফ্ল্যাটে বন্দি ৯ সারমেয়, দেখভালের অনুমতি চাইল পশুপ্রেমী সংগঠন

প্রাক্তন শিক্ষা ও শিল্প মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও তাঁর ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের সম্পত্তির পরিমাণ কত তা এখন রাজ্যজুড়ে চর্চার অন্যতম বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।

অর্পিতার দুটি ফ্ল্যাট থেকে বহু কোটি টাকা নগদ, কেজি কেজি সোনা, রূপো, বিদেশি মুদ্রা, দলিল উদ্ধারের পর সেই চর্চা আরও বেড়েছে। তল্লাশি ও তদন্তের কারণে হদিশ মেলা ফ্ল্যাট এখন তালাবন্ধ।

পার্থ অর্পিতার তালাবন্ধ ফ্ল্যাটে আটকে রয়েছে তাদের পোষ্য নটি কুকুর। একরকম অনাহারে দিন কাটছে তাদের। সেই কুকুরদের দেখভালের দায়িত্ব নিতে এগিয়ে লো স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ভয়েস ফর ভয়েসলেস।

অবলা অসহায় প্রাণীদের পাশে থাকার কাজ করে থাকে এই সংস্হা। তারাই এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট ( ED)-কে এই ব্যাপারে আগ্রহের কথা জানিয়েছে।

ওই স্বেচ্ছাসেবী সংস্হার সভাপতি অভিজিত মুখোপাধ্যায় বলেছেন, আমরা জানতে পেরেছি অর্পিতার একটি ফ্ল্যাটে নটি কুকুর তিন চারদিন তালা বন্ধ অবস্থায় আছে। বিভিন্ন প্রজাতির কুকুর রয়েছে। এক একটির খাদ্যাভ্যাস এক এক রকম। বিষয়টি ভাবতেই আমাদের কষ্ট হচ্ছে। ওদের এখনই খাবার ও চিকিৎসার প্রয়োজন।

আরও পড়ুন- মিলতে পারে আরও টাকা-সোনা-সম্পত্তি, পার্থ-অর্পিতাকে দ্বিতীয় দফায় জেরা শুরু ইডি-র

কিন্তু কীভাবে করবেন ওই পোষ্যদের দেখভাল? সেখানে তাদের রেখেই দেখভাল হবে, নাকি অন্যত্র নিয়ে গিয়ে? অভিজিতবাবু বলেন, কুকুরগুলোর ড্রিহাইড্রেশনের আশঙ্কা করছি। তেমন হলে তাদের খুব তাড়াতাড়ি স্যালাইন দিতে হবে। বর্ধমানে আমরা প্রাণীদের চিকিৎসার জন্য হাসপাতাল গড়ছি। সেখানে ইতিমধ্যেই চিকিৎসা পরিকাঠামো রয়েছে। আমরা সেখানেই কুকুরগুলো নিয়ে যেতে চাই।

কিন্তু ইডি না চাইলে? তিনি বলেন, এতগুলো কুকুরকে এভাবে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেওয়া অমানবিক দৃষ্টান্ত। প্রয়োজনে আমরা আইনের দ্বারস্থ হব।

Published by:Suman Majumder
First published:

Tags: Arpita Mukherjee, Dog, Enforcement Directorate, Partha Chatterjee

পরবর্তী খবর