Home /News /kolkata /
Arpita Mukherjee: অর্পিতার ফ্ল্যাটে বন্দি ৯ সারমেয়, দেখভালের অনুমতি চাইল পশুপ্রেমী সংগঠন

Arpita Mukherjee: অর্পিতার ফ্ল্যাটে বন্দি ৯ সারমেয়, দেখভালের অনুমতি চাইল পশুপ্রেমী সংগঠন

পার্থ- অর্পিতার গ্রেফতারিতে দুর্দশায় সারমেয়রা৷

পার্থ- অর্পিতার গ্রেফতারিতে দুর্দশায় সারমেয়রা৷

এই কুকুর গুলি অর্পিতার দায়িত্বেই ছিল। জানা যাচ্ছে, ওই সবকটি কুকুর পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের।

  • Share this:

#কলকাতা:  পার্থ এবং অর্পিতা ইডি হেফাজতে যাওয়ার পর থেকেই ওই ফ্ল্যাটে বন্দি রয়েছে ন'টি সারমেয়। ওই সারমেয়রা কী খাচ্ছে? কীভাবে বেঁচে আছে? সে খবর আজ নেওয়ার কেউ নেই। এই বিষয় নিয়ে রীতিমতো চিন্তিত পশুপ্রেমীরা।  যে খবর সামনে এসেছে তা হল, টালিগঞ্জের ডায়মন্ড সিটির অভিজাত আবাসনে  অর্পিতার নামে থাকা একটি ফ্ল্যাটে এই মুহূর্তে বন্দি হয়ে রয়েছে ন'টি উন্নত প্রজাতির সারমেয় বা কুকুর। যাদের সব মিলিয়ে দাম চার লক্ষ টাকার বেশি। সবকটিই দামি কুকুর!

এই কুকুর গুলি অর্পিতার দায়িত্বেই ছিল। জানা যাচ্ছে, ওই সবকটি কুকুর পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের। এমনটাই জানান ওই আবাসনের বাসিন্দারা। পার্থ এবং অর্পিতা ইডি হেফাজতে যাওয়ার পর থেকেই ওই ফ্ল্যাটে বন্দি রয়েছে ন'টি সারমেয়। এবার মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি থেকে সেই সমস্ত সারমেয়দের লালনপালনের দায়িত্ব নিজেদের কাঁধে তুলে নেওয়ার আবেদন জানিয়ে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট বা ইডির দ্বারস্থ হল একটি পশুপ্রেমী সংগঠন।

বর্তমানে ওই কুকুরগুলি কার্যত অনাহারে রয়েছে৷ কারণ তালাবন্দি অর্পিতার ফ্ল্যাট কেউই নেই৷ এমন কী, যে ব্যক্তি ওই কুকুরগুলির দেখভালের দায়িত্বে ছিলেন তিনিও চলে গিয়েছেন৷

আরও পড়ুন: বাড়ির নাম 'অপা'! ৭ কাঠা জমিতে অর্পিতার বিলাসবহুল ভবনের দলিলে মিলল পার্থর সই

'ওয়ার্ল্ড ফর বেটার লিভিং' নামে কলকাতার একটি সংস্থা এই মর্মে ইডির দৃষ্টি আকর্ষণ করে ফ্ল্যাটে বন্দি সারমেয়দের দায়িত্ব তাদের হাতে তুলে দেওয়ার আর্জি জানানো হলো। তাদের খাওয়া দাওয়া থেকে পরিচর্যা সহ  সমস্ত রকম দেখভাল করার লক্ষ্যেই এই আর্জি বলে জানালেন পশুপ্রেমী সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সুদীপ্ত মোদক।

পশুপ্রেমী সংগঠনের সভাপতি সোমেন্দ্র মোহন ঘোষের কথায়, 'ঘরের মালিক কবে ঘরে ফিরবেন তা কেউ জানে না। মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি থেকেই অবলা সারমেয়দের ব্যাপারে আমরা তাদের সমস্ত রকম সাহায্য করতে প্রস্তুত রয়েছি। ওদের আর দোষ কী।'

ইতিমধ্যেই পশুপ্রেমী সংগঠনের তরফের আর্জি জানানো হয়েছে। শেষ পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনও পদক্ষেপ নেয় কিনা  সংশ্লিষ্ট প্রশাসন সেটাই এখন দেখার। পশুপ্রেমীরা বলছে, 'মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি থেকে তদন্তকারীদের এ বিষয়ে  অবিলম্বে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া উচিত'। পশু প্রেমীদের আর্জির পরিপ্রেক্ষিতে কী ব্যবস্থা নেওয়া হয় সেটাই এখন দেখার।

Published by:Debamoy Ghosh
First published:

Tags: Arpita Mukherjee, Partha Chatterjee, SSC

পরবর্তী খবর