হোম /খবর /লাইফস্টাইল /
শীতের নানা অসুখ থেকে শিশু থাকবে সুরক্ষিত, প্রতিদিনের খাবারে রাখুন 'এই' জিনিসগুলি

Child: শীতের নানা অসুখ থেকে শিশু থাকবে সুরক্ষিত, প্রতিদিনের খাবারে রাখুন 'এই' জিনিসগুলি...

The pituitary gland works better even while sleeping.

The pituitary gland works better even while sleeping.

Child: বিশেষ করে শিশুরা বিভিন্ন ধরনের অসুস্থতায় ভোগে। তাই এই সময় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো খুবই জরুরি৷

  • Share this:

#কলকাতা: স্বাস্থ্য ভালো রাখতে হলে পুষ্টির দিকে নজর দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তাই শিশু হোক বা প্রাপ্তবয়স্ক, রোজকার ডায়েটে পুষ্টি সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া খুবই জরুরি। বিশেষ করে শিশুরা বিভিন্ন ধরনের অসুস্থতায় ভোগে। তাই এই সময় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো খুবই জরুরি৷ ফলে সন্তানের ডায়েটের প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিতে হবে।

সন্তানের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কী ভাবে বাড়ানো যায়

শিশুদের সহজেই বিভিন্ন সংক্রমণ ও অসুস্থতা হয়ে যায়। তাই কচিকাচাঁদের সুস্থতার জন্য তাদের পর্যাপ্ত জল খাওয়াতে হবে এবং খাদ্যতালিকায় পুষ্টি সম-দ্ধ খাবার রাখতে হবে। তাহলেই সন্তানের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।

অসুস্থতা প্রতিরোধ করতে সাহায্য করে যে খাবারগুলো

শীতকালে সর্দি-কাশি থেকে শুরু করে বিভিন্ন রোগের প্রাদুর্ভাব ঘটে। তাই ঠান্ডার মরসুমে বাচ্চাদের সুস্থ রাখতে খাদ্যাতালিকায় শীতের জন্য কার্যকারী কিছু পুষ্টি সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে।

আরও পড়ুন: রোগা বলে হীনমন্যতা? স্বাস্থ্য বা স্বাদের সঙ্গে আপস না করেই এই পানীয়গুলির সাহায্যে ওজন বৃদ্ধি করুন সহজেই

সবুজ শাক-সবজি

পালংশাক, লেটুস ইত্যাদি সবুজ শাক-সবজিতে ফাইবার, ফোলেট, আয়রন, ক্যালসিয়াম এবং ভিটামিন C রয়েছে৷ যা শিশুদের ইমিউনিটি বাড়ানোর জন্য খুবই ভালো কাজ করে। তাই রোজকার ডায়েটে সবুজ শাক-সবজি রাখতে হবে।

ব্রকোলি

ফাইবার এবং অন্যান্য বিভিন্ন পুষ্টি এবং মিনারেল যুক্ত ব্রকোলি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। একই সঙ্গে সংক্রমণের সঙ্গে লড়াই করতেও ব্রকোলি সাহায্য করে।

আরও পড়ুন: সেক্স, পিরিয়ডসের মতো বিষয় নিয়ে প্রশ্ন করছে সন্তান? কীভাবে নিরসন করবেন আপনার খুদের কৌতূহল?

বাদাম

সন্তানকে স্ন্যাকসের জন্য বিভিন্ন ধরনের স্বাস্থ্যকর বাদাম দেওয়া যায়। নিয়মিত বাদাম খেলে এই শীতকালে তা শিশুদের শরীরকে উষ্ণ এবং এনার্জিতে ভরপুর রাখবে।

মিষ্টি আলু

স্বাদে ও পুষ্টিগুণে মিষ্টি আলুর জুড়ি মেলা ভার। তাই নিয়মিত মিষ্টি আলু ডায়েটে রাখতে হবে।

আমলকী

সর্দি, গলা ব্যথা এবং অস্বাস্থ্যকর অন্ত্রের জন্য আমলকী খুব ভালো খাবার। মাইক্রোনিউট্রিয়েন্টে পূর্ণ আমলকী নিয়মিত খেলে অনেক অসুস্থতা থেকে রক্ষা পাওয়া যায়৷

গুড়

গুড়ে প্রচুর পরিমাণে মিনারেল এবং অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট রয়েছে, তাই এটি ইমিউনিটি বাড়ায়। তাই শিশু ও প্রাপ্তবয়স্কদের ঠান্ডা লাগা কিংবা ফ্লু-এর মতো সংক্রমণ থেকে রক্ষা করতে সাহায্য করে।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Kids, Winter diet