Home /News /west-midnapore /
Paschim Medinipur: নিউজ 18 লোকাল-এর খবরের জের, প্রতিবন্ধী ভাতা চালু হল কোকিল ভূঁইয়ার

Paschim Medinipur: নিউজ 18 লোকাল-এর খবরের জের, প্রতিবন্ধী ভাতা চালু হল কোকিল ভূঁইয়ার

title=

নিউজ 18 লোকাল-এর খবরের জেরে দীর্ঘ ১০ বছর পর প্রতিবন্ধী ভাতা পেলেন পিছিয়ে পড়া জনজাতি আদিবাসী সম্প্রদায়ের ষাটোর্ধ বৃদ্ধ কোকিল ভূঁইয়া।

  • Share this:

    #পশ্চিম মেদিনীপুর : নিউজ 18 লোকাল-এর খবরের জেরে দীর্ঘ ১০ বছর পর প্রতিবন্ধী ভাতা পেলেন পিছিয়ে পড়া জনজাতি আদিবাসী সম্প্রদায়ের ষাটোর্ধ বৃদ্ধ কোকিল ভূঁইয়া। প্রায় দুমাস আগে আমরা দেখিয়েছিলাম জঙ্গলমহল পশ্চিম মেদিনীপুরের শালবনী ব্লকের পিছিয়ে পড়া এলাকা ভূঁইয়া পাড়ার বাসিন্দা কুষ্ঠ রোগে আক্রান্ত কোকিল ভূঁইয়ার দুঃখের ইতিকথা। কোকিল ভূঁইয়া আজ পর্যন্ত সমস্ত ভোটদানে অংশ নিয়েছেন। নিয়ম মেনে পঞ্চায়েত ভোট থেকে শুরু করে লোকসভা, বিধানসভা সমস্ত নির্বাচনেই ভোট দিয়েছেন। তাঁর ভোটার পরিচয় পত্র রয়েছে। তবে বেশ ওইটুকুই। কোকিল ভূঁইয়ার নেই আধার কার্ড, যার ফলে বর্তমান নিয়ম অনুযায়ী সমস্ত সরকারি সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত কোকিল ভূঁইয়া। তবে তার আধার কার্ড তৈরির চেষ্টা করা হয়নি, তা বলা ভুল হবে। একাধিকবার আধার কার্ড তৈরির জন্য তাকে বিভিন্ন শিবিরে নিয়ে যাওয়া হলেও আধার কার্ড তৈরির জন্য যে দুটি বায়োমেট্রিক তথ্য প্রয়োজন সেগুলো দিতে অপারক কোকিল বাবু। কারণ বয়সের ভারে তার দুটো চোখের রেটিনা নষ্ট হয়ে গেছে।

    অন্যদিকে কুষ্ঠ রোগে আক্রান্ত হওয়ায় দুহাতের সমস্ত আঙ্গুলও ক্ষয়ে গেছে অর্ধেকের বেশি। আধার কার্ড তৈরি কেন্দ্রে গিয়ে ও খালি হাতেই ফিরে আসতে হয়েছে কোকিল ভূইয়াকে। কোনও উপায় না পেয়ে, ভিক্ষা করে দিন যাপন করতে হচ্ছিল তাঁকে। আমরা তুলে ধরেছিলাম সেই খবর। অবশেষে পশ্চিম মেদিনীপুর আগত নতুন জেলাশাসক আয়েশা রানীর হস্তক্ষেপে মঙ্গলবার প্রতিবন্ধী ভাতা পেলেন কোকিল ভূঁইয়া।

    আরও পড়ুনঃ 'সবুজের অঙ্গীকার'! মেদিনীপুরে অরণ্য সপ্তাহে রোপন ২০ লক্ষ গাছের চারা

    তিনি জানান, গতকাল ব্যাংক এবং পঞ্চায়েত থেকে কিছু আধিকারিকরা এসে তাঁর হাতে ১৫০০ টাকা দিয়ে যান এবং জানিয়ে যান, ব্যাঙ্কে একাউন্ট খোলা থেকে সরকারি যে সমস্ত প্রকল্পের আওতায় তিনি পড়বেন, সেই সমস্ত প্রকল্পের সুযোগ সুবিধা তাকে দেওয়া হবে। এই ঘটনার পর জেলার নবাগত জেলাশাসকের ভূমিকায় প্রশংসা জঙ্গলমহল জুড়ে।

    আরও পড়ুনঃ কাদায় আটকে রোগীর গাড়ি! বিপাকে পরিজনেরা

    অন্যদিকে এ বিষয়ে শালবনী ব্লকের দশ নম্বর কর্ণগড় গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান প্রতাপ জাসু জানান, উনার হাতের আঙুল কুষ্ঠ রোগে আক্রান্ত হয় সম্পূর্ণ ক্ষয় হয়ে গিয়েছিল, এমনকি চোখের রেটিনাও নষ্ট হয়ে গিয়েছিল, যার ফলে কোকিল ভূইয়ার আধার কার্ড তৈরি হচ্ছিল না। পশ্চিম মেদিনীপুরের নতুন জেলাশাসক আয়েশা রানী দায়িত্ব নেওয়ার পরেই উনার সব থেকে বড় সমস্যার সমাধান করেছেন। এর পর থেকে সরকারি সমস্ত সুযোগ সুবিধা কোকিল ভূঁইয়া পাবেন।

    Partha Mukherjee
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Paschim medinipur, Shalbani

    পরবর্তী খবর