#EXCLUSIVE তৃণমূলের কার্যালয় থেকে শুভেন্দুকে দেখে তৃণমূলীদের উচ্ছ্বাস, উন্মাদনা

#EXCLUSIVE তৃণমূলের কার্যালয় থেকে শুভেন্দুকে দেখে তৃণমূলীদের উচ্ছ্বাস, উন্মাদনা
বৃহস্পতিবার আরামবাগের দৌলতপুর থেকে বাসুদেবপুর পর্যন্ত শুভেন্দু অধিকারীর যে মেগা রোড শো ছিল সেই যাত্রাপথেই এই বিরল ঘটনার সাক্ষী থাকল নিউজ এইট্টিন বাংলা।

বৃহস্পতিবার আরামবাগের দৌলতপুর থেকে বাসুদেবপুর পর্যন্ত শুভেন্দু অধিকারীর যে মেগা রোড শো ছিল সেই যাত্রাপথেই এই বিরল ঘটনার সাক্ষী থাকল নিউজ এইট্টিন বাংলা।

  • Share this:

VENKATESWAR  LAHIRI

#আরামবাগ: তৃণমূলের কার্যালয় থেকে লুকিয়ে নয়, একেবারে প্রকাশ্যে শুভেন্দু অধিকারীর উদ্দেশ্যে হাত নাড়লেন কয়েকজন তৃণমূল কর্মী। পাল্টা শুভেন্দু অধিকারীও শুধু হাত নেড়েই নয়, ইশারার মাধ্যমে ওই কর্মীদের গেরুয়া শিবিরে স্বাগত জানালেন। ইশারার মাধ্যমে তৃণমূল কর্মীরাও বুঝিয়ে দিলেন আমরাও আপনার সঙ্গেই আছি। বৃহস্পতিবার আরামবাগের দৌলতপুর থেকে বাসুদেবপুর পর্যন্ত শুভেন্দু অধিকারীর যে মেগা রোড শো ছিল সেই যাত্রাপথেই এই বিরল ঘটনার সাক্ষী থাকল নিউজ এইট্টিন বাংলা।

এ দিন সকাল থেকেই দৌলতপুর যেখান থেকে রোড শো শুরু হওয়ার কথা ছিল সেখানে মানুষের ভিড় জমতে শুরু করে। বেলা তিনটের কিছুক্ষণ পর সেখানে হাজির হন  শুভেন্দু অধিকারী। বিজেপির আরামবাগ সাংগঠনিক জেলার সভাপতি বিমান ঘোষকে সঙ্গে নিয়ে ট্যাবলোয় উঠে পড়েন শুভেন্দু। ট্যাবলোর সামনে তখন অসংখ্য মানুষের ভিড়। পেছনেও রাস্তা বিজেপি কর্মী সমর্থকদের ভিড়ে  অবরুদ্ধ। যতদূর চোখ যায় শুধুই গেরুয়া পতাকা আর মানুষের মাথার ভিড়। বিজেপি কর্মী সমর্থকদের মুখে শাসক দলের দুর্নীতি ও অপশাসনের বিরুদ্ধে শ্লোগান। জয় শ্রীরামের নামে ধ্বনি।  যাত্রা পথের দু'ধারে লাগানো মাইকে পরিবর্তনের গান। এরই মাঝে রোড শো এর প্রধান মুখ শুভেন্দু অধিকারীর ট্যাবলো ধীরে ধীরে এগিয়ে চলেছে বাসুদেবপুরের দিকে। বিজেপি কর্মী সমর্থক ছাড়াও রাস্তার দু'পাশে অসংখ্য মানুষ দাঁড়িয়ে। কেউ বা বাড়ির ব্যালকনিতে, কেউ বা ফুটপাথে, আবার অনেককেই দেখা গেল বাড়ির ছাদে শুভেন্দু অধিকারীকে দেখার জন্য মুখিয়ে রয়েছেন।


শুভেন্দুকে কাছে পেয়ে অনেকেই মুহূর্তটাকে মোবাইলের ক্যামেরা বন্দি করছেন। শুভেন্দু অধিকারী কখনও তাঁদের উদ্দেশ্যে হাত নেড়ে আবার কখনও বা পুষ্প বৃষ্টির মাধ্যমে তাঁদের শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন। ভিড় ঠেলে মিছিল যখন আরামবাগ বাস স্ট্যান্ডের কাছাকাছি এসে পৌঁছায় তখন দেখা যায় এক বিরল দৃশ্য। বাস স্ট্যান্ড সংলগ্ন দ্বিতল তৃণমূল কংগ্রেসের কার্যালয়ে সামনে লাগানো তৃণমূলের পতাকা। সেই কার্যালয়ের সামনে থেকে শুভেন্দু অধিকারীকে দেখতে পেয়েই কয়েকজন শুভেন্দুকে উদ্দেশ্য করে হাত নাড়াতে শুরু করেন। তাঁদের চোখে মুখে আনন্দের ছাপ স্পষ্ট। আচমকা শুভেন্দুর চোখ যায় সে দিকে। একেবারে তাঁর পুরনো দলের দলীয় কার্যালয় থেকে তাঁকে দেখে হাত নাড়ানোয় প্রথমে খানিকটা অপ্রস্তুতে পড়লেও ওই তৃণমূল কর্মীদের উদ্দেশ্যে হাত নেড়ে  তাঁদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়ে দেরি করেননি শুভেন্দু অধিকারী।

রোড শোর ট্যাবলোয় শুভেন্দু অধিকারীর পাশে থাকা বিজেপির আরামবাগ সাংগঠনিক জেলার সভাপতি বিমান ঘোষকে  তৃণমূল কার্যালয়ের সামনে দাঁড়িয়ে থাকাদের সম্পর্কে খোঁজখবর নিয়ে যখন জানতে পারেন তাঁরা সক্রিয় তৃণমূল কর্মী । তখনই দেখা যায় হাতের ইশারায় এ বার ওই তৃণমূলীদের বিজেপিতে যোগ দেওয়ার আহ্বান  করেন শুভেন্দু অধিকারী। খোদ শুভেন্দু অধিকারীকেও ওঁরা হাবেভাবে বুঝিয়ে দেন তাঁরা শুভেন্দুর সঙ্গেই আছেন। এ প্রসঙ্গে বিজেপির আরামবাগ সাংগঠনিক জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা বিমান ঘোষ দাবি করে বলেন, ‘‘শুধুমাত্র ওই কার্যালয়ে থাকা তৃণমূলকর্মীরাই নয়। আরও অনেকেই আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন। আরামবাগে তৃণমূল বলে কিছু নেই। শুধু রয়েছেন কয়েকজন দুর্নীতিগ্রস্ত নেতা।’’

প্রসঙ্গত, যে ভাবে শুভেন্দু অধিকারীর পর একে একে শাসক দলের নেতা মন্ত্রীরা দল ছেড়ে গেরুয়া শিবিরে যোগ দিচ্ছেন। আবার কেউ কেউ শাসকদলের বিরুদ্ধে বেসুরো গাইছেন। বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে রীতিমতো বিব্রত ও দিশেহারা তৃণমূল শিবির। বিজেপির প্রথম সারির নেতারা মাঝেমধ্যেই দাবি করেন, অনেকেই তাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন। বিজেপিতে যোগ দেওয়ার ইচ্ছে প্রকাশ করছেন অনেক তৃণমূল নেতা-কর্মী। তবে নিউজ এইট্টিন বাংলার নজরে আরামবাগে  শুভেন্দু অধিকারীর রোড শোতে  তাঁকে ঘিরে  খোদ তৃণমূলের কার্যালয়ের সামনে  দাঁড়িয়ে তৃণমূল কর্মীদের উচ্ছ্বাস- উন্মাদনার যে শরীরী ভাষার দৃশ্য সামনে এল তাতে শাসকদলের কপালের চিন্তার ভাঁজ যে আরও মোটা হবে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

Published by:Simli Raha
First published: