corona virus btn
corona virus btn
Loading

ফেসবুকে ছাত্রীদের অশ্লীল গান ভাইরাল, চিহ্নিত চার ছাত্রীর বিরুদ্ধে সরব স্কুল এবং প্রাক্তনীরাও

ফেসবুকে ছাত্রীদের অশ্লীল গান ভাইরাল, চিহ্নিত চার ছাত্রীর বিরুদ্ধে সরব স্কুল এবং প্রাক্তনীরাও

স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা জানিয়েছেন, এই ভাইরাল ভিডিও র জেরে স্কুলের মাথা হেট হয়েছে। স্কুল পোশাক পরে এমন কাণ্ড অভাবনীয়। ছাত্রীদের কাছে এর ব্যাখ্যা চাওয়া হবে।

  • Share this:

মালদহ: মালদহের প্রথম সারির স্কুলের ছাত্রীদের অশ্লীল গান ভাইরাল সোসাল মিডিয়ায়। রবীন্দ্র সঙ্গীতের সুরে অশ্লীল শব্দ বসিয়ে তৈরী এই ভাইরাল গান। স্কুলের চার ছাত্রীকে ওই কদর্য গানের সঙ্গেই তাল ঠুকে অঙ্গভঙ্গি করতেও দেখা গিয়েছে ছবিতে। মূহূর্তের মধ্যে সোসাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায় ওই গান। বিভিন্ন মহলে নিন্দার ঝড় ওঠে। সরব হন প্রাক্তনীরাও।

ভাইরাল হওয়া গানের কথা শুনে হতবাক স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা। ইতিমধ্যে চিহ্নিত করা হয়েছে ছাত্রীদের। এরা প্রত্যেকেই স্কুলের একাদশ শ্রেনীর পড়ুয়া। এদের মধ্যে তিনজন বিজ্ঞান বিভাগের পড়ুয়া, একজন বাণিজ্য বিভাগের। শনিবার ওই ছাত্রীদের অভিভাবক সহ স্কুলে তলব করা হয়েছে। তাঁদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির কথা ভাবা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন, স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা দীপশ্রী মজুমদার।

মালদহের এই স্কুল শুধু জেলাতেই নয়, রাজ্যেও প্রথম সারির। স্কুল প্রায় দেড়শো বছরের প্রাচীন। দেশ বিদেশে ছড়িয়ে রয়েছেন স্কুলের প্রাক্তনীরা। এমন অভিজাত স্কুলের মেধাবি ছাত্রীরা যেভাবে অশ্লীল গানে ভাইরাল হয়েছে তা নিয়ে রীতিমতো হৈচৈ শুরু হয়েছে। কি ভাবনা থেকে আচমকা এমন অশ্লীল গানে মাতল ছাত্রীরা। কীভাবেই বা ভাইরাল হল সোসাল মিডিয়ায় তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা জানিয়েছেন, এই ভাইরাল ভিডিও র জেরে স্কুলের মাথা হেট হয়েছে। স্কুল পোশাক পরে এমন কাণ্ড অভাবনীয়। ছাত্রীদের কাছে এর ব্যাখ্যা চাওয়া হবে। স্কুলের প্রাক্তনী ইংরেজবাজার পুরসভার কাউন্সিলার সুমলা আগরওয়াল বলেন, এভাবে ভাইরাল ভিডিও র মাধ্যমে কেউ জনপ্রিয় হতে পারে না। কোন পরিপেক্ষিতে ছাত্রীরা এমন কাণ্ড ঘটালো তা শিক্ষিকাদের খুঁজে বের করতে হবে। বিষয়টি অত্যন্ত উদ্বেগের।

Published by: Pooja Basu
First published: March 9, 2020, 11:12 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर