• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Tulasi Gowda: খালি পায়েই পদ্মশ্রী মঞ্চে, ‘বনের এনসাইক্লোপেডিয়া’ তুলসী গৌড়াকে কুর্নিশ জানাল ভারত...

Tulasi Gowda: খালি পায়েই পদ্মশ্রী মঞ্চে, ‘বনের এনসাইক্লোপেডিয়া’ তুলসী গৌড়াকে কুর্নিশ জানাল ভারত...

‘বনের এনসাইক্লোপেডিয়া’ তুলসী গৌড়া

‘বনের এনসাইক্লোপেডিয়া’ তুলসী গৌড়া

Tulasi Gowda: সোমবার ভারতের রাষ্ট্রপতি ৭ জনকে পদ্মবিভূষণ, ১০ জনকে পদ্মভূষণ এবং ১০২ জনকে পদ্মশ্রী প্রদান করেছেন।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: এমন অনেকেই আছেন, যারা নীরবে দেশের জন্য কাজ করে চলেছেন। অনেক সময় এমনও হয় তাঁরা প্রচারের আলোতেই আসতে পারেন না, থেকে যান কোনও গ্রামের অন্ধকারে। আবার অনেক সময় তাঁদের এই নিঃস্বার্থ অবদানের জন্যই তাঁরা পেয়ে যান দেশের সর্বোচ্চ সম্মান।

    সম্প্রতি ভারতের পদ্মশ্রী মঞ্চে দেখা মিলল এমনই এক মানুষের। সাধারণ নিয়মের বাইরে গিয়ে কাজ করে যাওয়া বিচিত্র এই মানুষটি আজ উঠে এসেছেন দেশের নাগরিক সম্মান অর্থাৎ পদ্মশ্রী (padma shri) প্রাপকদের তালিকায়। এমনকি সোমবার দেশের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের হাত থেকে নিলেন পুরস্কারও।

    আরও পড়ুন: এই পাঁচ রাশির জাতক-জাতিকারা সহজেই ছেড়ে যান অন্যকে, জানেন কেন তাঁরা এমন করেন?

    সোমবার ভারতের রাষ্ট্রপতি ৭ জনকে পদ্মবিভূষণ, ১০ জনকে পদ্মভূষণ এবং ১০২ জনকে পদ্মশ্রী প্রদান করেছেন। যাদের মধ্যে ছিলেন বছর ৭২-র কর্ণাটকের বাসিন্দা পরিবেশবিদ তুলসী গৌড়াও (Tulasi Gowda), যিনি ‘বনের এনসাইক্লোপিডিয়া’ নামেও পরিচিত।

    কীভাবে এই উত্থান? কর্ণাটকের হোনালি গ্রামের বাসিন্দা তুলসী গৌড়া ৩ লাখেরও বেশি চারাগাছ রোপণ করেছেন এবং বন বিভাগের নার্সারির রক্ষণাবেক্ষণ করেন।

    এই মহান পরিবেশবিদের হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়ার সময় তাঁকে অভিনন্দনও জানান রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। ট্র্যাডিশনাল পোশাকে খালি পায়েই পদ্মশ্রী পুরস্কার নিতে দেখা গেল তাঁকে। আবার পুরস্কার নিতে যাওয়ার সময় সামনে থাকা প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দিকে জোর হাত করে প্রণামও করলেন তিনি।

    আরও পড়ুন: লখিমপুর মামলায় চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে, চক্ষুচড়কগাছ তদন্তকারীদের...

    স্যোশাল মিডিয়ায় সেই মুহূর্তের ছবি তুলে ধরে বিষ্ণু বর্ধন রেড্ডি জানান, ‘শ্রীমতি তুলসী গৌড়াকে তার সামাজিক কাজের জন্য পদ্মশ্রী পুরস্কার প্রদান করলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। গত ছয় দশক ধরে তিনি পরিবেশ সুরক্ষার কাজ করছেন এবং প্রায় ৩ লাখেরও বেশি চারাগাছ রোপণ করেছেন তিনি’। গাছপালা সম্পর্কে তাঁর অগাধ জ্ঞান থাকার দরুণ তাঁকে ‘বনের এনসাইক্লোপিডিয়া’ বলা হয়।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: