• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Farmers Protest Ends: বছরব্যাপী আন্দোলনের অবসান, অবশেষে ঘরে ফিরছেন কৃষকরা! খালি হতে চলেছে সিঙ্ঘু সীমান্ত...

Farmers Protest Ends: বছরব্যাপী আন্দোলনের অবসান, অবশেষে ঘরে ফিরছেন কৃষকরা! খালি হতে চলেছে সিঙ্ঘু সীমান্ত...

সিঙ্ঘু সীমান্ত ছাড়ছেন কৃষকরা

সিঙ্ঘু সীমান্ত ছাড়ছেন কৃষকরা

Farmers Protest Ends: আজই বৈঠকে বসেছিলেন কৃষক আন্দোলনের নেতারা। সিঙ্ঘু সীমানায় কৃষক সংগঠনের সেই বৈঠকের পরই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় শীঘ্রই বর্ডার খালি করবেন তাঁরা।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: অবশেষে অচলাবস্থার সমাধান। মেনে নেওয়া হয়েছে দাবি। সংসদে বাতিল হয়েছে বিতর্কিত তিন কৃষি আইন। তাই এবারে বছরব্যাপী আন্দোলনের অবসান (Farmers Protest Ends) ঘটাতে রাজি কৃষকরা। সূত্রের খবর, ১১ ডিসেম্বর থেকেই সিঙ্ঘু সীমানা ছেড়ে ঘরে ফিরবেন কৃষকরা।

    আরও পড়ুন: ৪৫% দগ্ধ! চপার দুর্ঘটনায় একমাত্র জীবিত গ্রুপ ক্যাপ্টেন বরুণ সিং! কেমন আছেন তিনি?

    এই নিয়ে আজই বৈঠকে বসেছিলেন কৃষক আন্দোলনের নেতারা। সিঙ্ঘু সীমানায় কৃষক সংগঠনের সেই বৈঠকের পরই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় শীঘ্রই বর্ডার খালি  (Farmers Protest Ends) করবেন তাঁরা। জানা গিয়েছে, ১১ ডিসেম্বর থেকে কৃষকরা ফায়ার যেতে শুরু করবেন। ১৩ ডিসেম্বর স্বর্ণ মন্দিরে যাবেন কৃষক নেতারা। এরপরে ১৫ ডিসেম্বর এসকেএম-এর একটি বৈঠক হবে। আজ কৃষকনেতাদের বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

    তিনটি বিতর্কিত কৃষি আইন যা বাতিল করা হয়েছে। এই তিন আইনের বিরুদ্ধেই চলছিল কৃষকদের লাগাতার প্রতিবাদ। তবে সূত্রের খবর, এবার 'যে কোনও সময়' শেষ  (Farmers Protest Ends)  হতে পারে এই প্রতিবাদ আন্দোলনে। কৃষক আন্দোলনের নেতৃত্বের সূত্রে নিউজ 18 কে এমনটাই জানানো হয়। এরিসঙ্গে রাজধানীর সীমান্তে এক বছরব্যাপী আন্দোলনের কার্যত অবসান হতে চলেছে এবারে। সূত্রের খবর, কৃষকরা বিকেল ৪টা থেকে আন্দোলনের কেন্দ্রস্থল সিঙ্ঘু সীমান্ত - খালি করা শুরু করবেন।

    কৃষি আইন নিয়ে কৃষকরা সরকারের কাছ থেকে একটি দ্বিতীয় খসড়া প্রস্তাব গ্রহণ করার একদিন পরেই এই সিদ্ধান্ত। উল্লিখিত খসড়ায় এমএসপি এবং পুলিশ মামলা প্রত্যাহারের আশ্বাস রয়েছে। এই বিষয়ে বুধবার কৃষক নেতা গুরনাম সিং চারুনি বলেন, “তিনটি কৃষি আইনের বিরুদ্ধে কৃষকদের আন্দোলনের বিষয়ে আমাদের দাবিতে কেন্দ্রের দেওয়া সংশোধিত খসড়া আমরা গ্রহণ করেছি।'

    আরও পড়ুন: তিন বাহিনীর বিশেষজ্ঞদের নিয়ে দল, সংসদে কপ্টার দুর্ঘটনা নিয়ে বিবৃতি রাজনাথের

    সরকার আন্দোলনকারীদের সব দাবি মেনে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে সমস্ত রাজ্য / কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল এবং কেন্দ্রীয় সরকারী সংস্থাগুলিতে এই প্রতিবাদের সময় নথিভুক্ত সমস্ত আন্দোলন-সম্পর্কিত মামলা প্রত্যাহার করা। আন্দোলন চলাকালীন যে সমস্ত কৃষক মারা গিয়েছেন তাদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ-সহ কৃষকদের আরও একগুচ্ছ দাবি।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: