Home /News /life-style /
Sleeping on stomach : উপুর হয়ে ঘুমনোর অভ্যাস? জানেন কি এর ফলে মৃত্যুও হতে পারে

Sleeping on stomach : উপুর হয়ে ঘুমনোর অভ্যাস? জানেন কি এর ফলে মৃত্যুও হতে পারে

Sleeping on stomach

Sleeping on stomach

বিজ্ঞানীদের মতে, মৃগীরোগীদের উপুর হয়ে ঘুমনোর অভ্যাস যত দ্রুত সম্ভব ত্যাগ করতে হবে৷(Sleeping on stomach)

  • Share this:

    প্রত্যেকের শোওয়া এবং ঘুমনোর ধরন ও ভঙ্গি আলাদা৷ অনেকে দীর্ঘ ক্ষণ, প্রায় সারা রাতই চিত হয়ে ঘুমোন৷ অনেকের অভ্যাস আবার উল্টো হয়ে শুয়ে উপুর হয়ে ঘুমনো৷ ঘুমের ধরনের উপর মানুষের জীবন বিপন্নও হয়ে পড়তে পারে৷ বিজ্ঞানীদের মতে, মৃগীরোগীদের উপুর হয়ে ঘুমনোর অভ্যাস যত দ্রুত সম্ভব ত্যাগ করতে হবে৷(Sleeping on stomach)

    কারণ গবেষক ও বিজ্ঞানীদের মতে, মৃগীরোগ থাকলে উপুর হয়ে ঘুমোলে আচমকা মৃত্যুর আশঙ্কা বেড়ে যায় অনেক গুণ৷ এমনকি, শিশুদের ক্ষেত্রেও সেটা হতে পারে৷ কয়েক বছর আগে গবেষণায় জানা গিয়েছে, এপিলেপ্সি বা মৃগী মস্তিষ্কের সঙ্গে সম্পর্কিত অসুখ৷ ফলে আচমকাই জ্ঞান হারানো বা ‘ফিট’ হওয়ার আশঙ্কা থেকেই যায়৷ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তথ্য অনুযায়ী, সারা পৃথিবীতে প্রায় ৫০ মিলিয়ন মানুষ এই সমস্যার শিকার৷

    আরও পড়ুন : দীর্ঘ স্ক্রিনযাপনে চোখ রণক্লান্ত? দৃষ্টিশক্তি উজ্জ্বল করতে সঙ্গে থাকুক এই আয়ুর্বেদিক উপাদানগুলি

    ইলিনয়ে শিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়ের ডক্টর জেমস তাওয়ের মতে, অনিয়ন্ত্রিত মৃগীরোগে সাধারণত ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু ঘটে৷ এই সংক্রান্ত গবেষণার জন্য ২৫ টি গবেষণা করা হয়েছে৷ যেখানে দেখা হয়েছে ২৫৩ টি দুর্ঘটনাজনিত মৃত্যুর ঘটনা৷ গবেষণায় বলা হচ্ছে, মৃগী রোগে ৭৩ শতাংশ মৃত্যুর সময় সেই ব্যক্তি উপুর হয়ে শুয়ে ঘুমোচ্ছিলেন৷ বাকি ২৭ শতাংশ ঘুমোচ্ছিলেন অন্য ভঙ্গিমায়৷

    আরও পড়ুন : ফাল্গুনেই বাঁধা পড়ছেন সাতপাকে? জেনে নিন সুখী ও দীর্ঘ দাম্পত্যের মূল মন্ত্র

    আরও পড়ুন : শারীরিক সম্পর্কে মেতে উঠবেন ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে? বিপদ এড়াতে মনে রাখুন এই বিষয়গুলিও

    ছোট বাচ্চা এবং কিশোর কিশোরীরা, প্রায়ই epileptic seizure-এর শিকার হলে আর উঠে দাঁড়তে পারে না৷ গবেষক জেমস টাও-এর মতে, মৃগীরোগে দুর্ঘটনাজনিত মৃত্যু এড়াতে মূল বিষয় হল উপুর হয়ে না ঘুমনো৷ রিস্টওয়াচ এবং বেড অ্যালার্মের প্রয়োগ এই ধরনের মৃত্যু আটকাতে পারে৷ অনলাইন জার্নাল ‘নিউরোলজি’-তে এই মর্মে গবেষণাপত্র প্রকাশিত হয়েছে৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published:

    Tags: Epilepsy, Sleeping pattern

    পরবর্তী খবর