• Home
  • »
  • News
  • »
  • life-style
  • »
  • A COOLIE FROM BIHAR SPEAKS ENGLISH FLUENTLY WITHOUT ANY DEGREE OR SPOKEN COURSE PBD

Viral Coolie: কোনও ডিগ্রি ছাড়াই গয়া স্টেশনের কুলি বলছেন ঝরঝরে ইংরেজি! সুপার ভাইরাল

শিব কুমার গুপ্ত, যিনি বিহারের গয়া জংশনে কুলি হিসেবে কাজ করেন, তিনি অনর্গল ইংরেজিতে কথা বলতে পারেন

গয়ার শিবকুমার গুপ্ত (Shiv Kumar Gupta), যাঁর বয়স প্রায় ৭০ বছর, পেশায় কুলি (English speaking Coolie)।

  • Share this:

    #গয়া: প্রতিভা প্রকাশের জন্য কোনও বয়সের প্রয়োজন নেই৷ কিছু শেখার তাগিদ এবং সাহস থাকলে বয়স তো সংখ্যা মাত্র৷ এটা আরও একবার প্রমাণ করে দিলেন গয়ার এক কুলি (Gaya Station Coolie), যিনি স্টেশনে মাল ওঠানোর কাজ করেন৷ ৭০ বছর বয়সি শিব কুমার গুপ্ত (Shiv Kumar Gupta, Coolie), যিনি বিহারের গয়া জংশনে কুলি হিসেবে কাজ করেন, তিনি অনর্গল ইংরেজিতে কথা বলতে পারেন৷ তাই তো সাধারণ মানুষ তাঁকে ইংলিশ কুলি ম্যান নামে চেনেন। বিষয়টি হল শিব কুমার গুপ্তর কোন শিক্ষা বা কোন ডিগ্রি নেই, কোনও স্পোকেন ইংলিশ ক্লাসেও তিনি ঢুঁ মারেননি কখনও৷ তা স্বত্ত্বেও তাঁর ঝরঝরে ইংরেজিতে কথা অবাক করবে অনেককেই৷ তাই তো তিনি ভাইরাল (Viral English speaking coolie)৷

    আরও পড়ুন Viral Video: বড্ড লাজুক বর! বিয়ের আসরে যা করল...সুপার ভাইরাল ভিডিও

    হাতে ইংরেজি সংবাদপত্র, ঝরঝরে ইংরেজিতে কথা, গয়া স্টেশনে গেলে চোখে পড়বে এমন কুলির৷ গয়ার শিবকুমার গুপ্ত, যাঁর বয়স প্রায় ৭০ বছর, পেশায় কুলি। শরীর এখন ধীরে ধীরে অক্ষম হয়েছে কিছুটা কিন্তু বার্ধক্যের সাথে তারা আরও বেড়েছে মনের জোর৷ শিবকুমার গুপ্ত (Shiv Kumar Gupta helps other by speaking English) বলেন যে তিনি একজন কুলির কাজ করেন, কিন্তু সবার আগে তিনিই সেই ব্যক্তি যিনি মানুষের কাজে লাগতে পারেন। জীবনে এর চেয়ে বড় কিছু নেই। শিব কুমার গুপ্ত একজন সাধারণ কুলি হলেও তাঁর আলাদা বৈশিষ্ট্য রয়েছে। যদিও সাধারণ কুলিরা ঠিকমতো হিন্দি বোঝে না, শিবকুমার গুপ্ত কোন ডিগ্রি ছাড়াই ইংরেজিতে কথা (Porter speaking English without any degree) বলতে পারেন৷ ফলে কোনও বিদেশি পর্যটক গয়ায় এলে, তিনি তাঁদের সাহায্য করতে পারেন অনায়াসে৷ বা অন্যান্য কুলিদের হয়েও দরদাম ঠিক করতে পারেন৷

    যখনই কোনও বিদেশি পর্যটক গয়া স্টেশনে পৌঁছান (Gaya Station)  এবং যারা হিন্দি বোঝেন না, তখন ডাক পড়ে শিবকুমার গুপ্তর৷ তাদের পণ্য সরবরাহের পাশাপাশি শিবকুমার গুপ্ত তাদের সুবিধামতো গাইড (English speaking coolie guides other porters) করতে পারেন৷ এটাই তাঁর জীবনের সব থেকে বড় পাওয়া, মানেন শিব কুমার৷ তাঁর ব্যবহারের কারণে মানুষ তাঁকে খুব পছন্দ করেন। তিনি বলেছিলেন যে, এই কারণে বহু মানুষ প্রায়ই তাঁকে জিজ্ঞাসা না করে উপহার দেন। তাঁকে ইংরেজি কুল ম্যান (Engregi coolie man) হিসেবে খুবই ভালবাসেন৷

    আরও পড়ুন Viral Video in Saree: শাড়ি পরেই পা উপরে মাথা নিচে! এমনই মহিলার কাণ্ড, সুপার ভাইরাল ভিডিও

    শিব কুমার আরও বলেন যে, আমার কোন শিক্ষা বা ডিগ্রি নেই, তবুও আমি ইংরেজি বলতে শিখেছি (Without degree porter speaks English)৷ গয়া জংশনে কর্মরত কুলি সুরজ দেব চন্দ্রবংশী জানান, শিবকুমার গুপ্তকে বাবা বলা হয়, তারপর তাকে ইংরেজি কুলি ম্যান নামে ডাকা হয়। তিনি সবাইকে সাহায্য করেন৷ যখন অন্যান্য কুলিরা কিছু বুঝতে পারেন না, তখন তারা শিবকুমার বাবার কাছে ছুটে যান। এভাবে সকলের পাশে দাঁড়ান তিনি৷

    Published by:Pooja Basu
    First published: