Narada Case hearing update: মমতার প্রতিবাদ ছিল গান্ধিবাদী, প্রতিবাদে বিশৃঙ্খলা গণতন্ত্রের মূল্য: অভিষেক মনু সিঙ্ঘভি

নিজাম প্য়ালেসে মমতার যাওয়াটা ছিল গান্ধিবাদী প্রতিবাদ, হাইকোর্টে অভিযুক্তদের আইনজীবী।

নারদা মামলায় আদালতে (Narada Case hearing update) অভিষেক মনু সিঙ্ঘভি স্পষ্ট বলছেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সেদিন প্রতিবাদ করেছিলেন গান্ধিবাদী ঘরানায়।

  • Share this:

    #কলকাতা: নারদা মামলায় আদালতে কার্যত নারদ-নারদ তরজা (Narada Case Hearing)। রাজ্যের চার হেভিওয়েটের শুনানিতে বিচারপতি অরিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সামনে লড়াইয়ে কোনও পক্ষই  বিনাযুদ্ধে এতটুকু জমি ছাড়তে রাজি নন। অভিষেক মনু সিঙ্ঘভি হোন বা সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহেতা কড়া সওয়াল জবাব চালাচ্ছেন দুপক্ষই। সিবিআই চাইছে বিশৃঙ্খলার তত্ত্বকে সামনে রেখে মামলা অন্য রাজ্যে স্থানান্তকরণ করতে, অভিষেক মনু সিঙ্ঘভি স্পষ্ট বলছেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সেদিন প্রতিবাদ করেছিলেন গান্ধিবাদী ঘরানায়। কেন এই জনরোষ, তাঁর বাখ্যা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, জনপ্রতিনিধিদের ক্ষেত্রেল এমন ঘটনা ঘটা স্বাভাবিক। তাঁর কথায়, "এই ধরনের ঘটনায় জনতার ‌রোষ দেখা যায়। সলমন খান-সঞ্জয় দত্তর ঘটনাতেও এমনটা দেখা গিয়েছে অতীতে।"

    এদিন বিচারক প্রশ্ন করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে কেন ছিলেন ঘটনাস্থলে। অভিষেক মনু  সিঙ্ঘভি বলেন, প্রতিবাদের উদ্দেশ্যেই তিনি ছিলেন ওখানে। কিন্তু তাঁর ধর্না ছিল শান্তিপূর্ণ, গান্ধিবাদী। সেখানে তিনি কোনও হিংসাকে উস্কানি দেননি। বরং সবাইকে শান্ত থাকারই নির্দেশ দেন।

    দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে অভিযুক্তদের পক্ষে সওয়াল করেছেন অভিষেক মনু সিঙ্ঘভি-

    • আমি ভিডিও দেখাতে পারি মন্ত্রীরা নিজাম প‌্যালেসে নেতামন্ত্রীরা বারংবার মানুষকে শান্ত থাকতে অনুরোধ করেছিলেন। সিবিআই-এই নিয়ে সত্যিটা চেপে যাচ্ছে।
    • সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বয়স ৮২ বছর। অন্যেরা কো মর্বিডিটির শিকার। তাঁরা কোথায় যাবেন!
    • জামিন আর নিজাম প্যালেসের প্রতিরোধ দুটি পারস্পরিক ভাবে যু‌ক্তই নয়। দুটি পারস্পরিক সম্পর্কহীন ঘটনাকে জুড়তে চেয়েছে সিবিআই।
    • সাত বছরের মামলা, মানুষের গণতান্ত্রিক পথে প্রতিবাদ করার অধিকার রয়েছে। প্রতিবাদ হলে বিশৃঙ্খলা হয়, এটাই গণতন্ত্রের মূল্য।
    Published by:Arka Deb
    First published: