Kolkata Fire : শহরের বুকে দু-দুটি অগ্নিকাণ্ড! দুপুরে পার্কস্ট্রিটের বহুতলে, রাতে আগুন বিবাদী বাগে!

ফের অগ্নিকাণ্ড শহরে প্রতীকী চিত্র

দুপুরে আগুন লেগে যায় পার্কস্ট্রিটের (Park Street Fire) বহুতলে। সেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আসতে না আসতে অগ্নিকাণ্ডের খবর পাওয়া যায় বিবাদী বাগ (Bibadi Bag Fire) এলাকা থেকে।

  • Share this:

    #কলকাতা : করোনা অতিমারীর (Covid Pandemic) মধ্যেই বৃহস্পতিবার একইদিনে দু'দুটি অগ্নিকাণ্ডের (Fire In Kolkata) স্বাক্ষী থাকল শহর কলকাতা। দুপুরে আগুন লেগে যায় পার্কস্ট্রিটের (Park Street Fire) বহুতলে। সেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আসতে না আসতে অগ্নিকাণ্ডের খবর পাওয়া যায় বিবাদী বাগ (Bibadi Bag Fire) এলাকা থেকে। বিবাদী বাগের যুব কল্যাণ দফতরে তিন তলায় আগুন লাগে। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে দমকলের ৯টি এঞ্জিন। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা চলছে। ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু।

    জানা গিয়েছে, এদিন রাত্রি ৯টা নাগাদ বিবাদী যুব কল্যাণ দফতরে আগুন লাগে। সরকারি এই অফিসের ভেতর কেউ ছিলেন না এমনটাই প্রাথমিক তদন্তে অনুমান। প্রাথমিকভাবে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় দমকলের ৩ টি ইঞ্জিন। পরে আগুন ভয়াবহ হওয়ায় ৯টি ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে যায়। সিঁড়ি বেয়ে তিনতলায় পৌঁছতে পেরেছেন দমকল কর্মীরা জানা গিয়েছে এমনটাই। কীভাবে লাগল এই আগুন, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

    অন্যদিকে এদিনই  স্টিফেন কোর্টের স্মৃতি উস্কে ফের অগ্নিকাণ্ড পার্ক স্ট্রিটে (Park Street Fire)। পোদ্দার পয়েন্ট (Poddar Point) বহুতলের ৪ তলায় একটি শাড়ির গুদামে আগুন লেগে যায় দুপুরে। খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে সেখানে যায় দমকলের ১০টি ইঞ্জিন। বেশ কিছুক্ষণের প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে বলে খবর। প্রাণহানির কোনও ঘটনা ঘটেনি বলেই জানা গিয়েছে।

    জানা গিয়েছে, দুপুর ২টো নাগাদ হঠাৎ আগুন লক্ষ্য করেন এলাকার কয়েকজন এবং নিরাপত্তারক্ষীরা। এই বহুতলের ৪ তলা থেকে ধোঁয়া দেখতে পাওয়া যায়। স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্ক ছড়ায়। খবর যায় দমকলের কাছে। সেই সময়েই ওই রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিলেন দমকল মন্ত্রী সুজিত বসু। তিনি দাঁড়িয়ে পড়েন। সুজিত বসুর তদারকিতে গতি পায় কাজ। দমকলকর্মীরা তৎপরতার সঙ্গে গোডাউনের ভিতরের অংশে যান তিনি। জানান, ল্যাডারও কাজ করেছে, কোথাও আর আগুন কোথাও আর ছড়ায়নি।

    দমকল সূত্রে খবর, প্রচুর ধোঁয়ার কারণে পায়ে হেঁটে ওপরে ওঠা সম্ভব ছিল না। সেই কারণে ৬৫ মিটার হাইড্রলিক ল্যাডার লাগিয়ে শুরু কাজ। বাইরে থেকে কাজ শুরু করা হয় আকাশচুম্বী ল্যাডার দিয়ে। অন্যদিকে, সিঁড়ি দিয়ে চারতলায় ওঠে গুদামে আগুন নেভানোর চেষ্টা চালান দমকলকর্মীরা। জোড়া কৌশলে ঘণ্টা দেড়েকের মধ্যে নিয়ন্ত্রণে আসে আগুন। দু-ঘণ্টার মধ্যে অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে আসে আগুন। বহুতলের একদিকের আগুন নিভে যায়।

    প্রাথমিক অনুমান, শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগেছে। লকডাউন থাকায় বহুতলের বেশিরভাগ দোকান বন্ধ ছিল। তাই বহুতলের ভিতরে লোকজন কম থাকায় প্রাণহানির ঘটনা ঘটেনি। বহুতলের ভিতরে আর কেউ আটকে নেই বলেই জানিয়েছেন আধিকারিকরা। আগুন লাগার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পৌঁছন দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু। তিনি পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখেন। আগুন নিয়ন্ত্রণে এসে গিয়েছে বলেই জানিয়েছেন তিনি।

    পোদ্দার পয়েন্টে আগুন লাগার পরেই ফিরে আসে স্টিফেন কোর্টের স্মৃতি। সেই অগ্নিকাণ্ডে মৃত্যু হয়েছিল বহু মানুষের। কিন্তু এ ক্ষেত্রে তেমন কিছু ঘটেনি। সবাইকে নিরাপদে বাইরে নিয়ে এসেছেন দমকল কর্মীরা।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: