Home /News /kolkata /
Dilip Ghosh: 'এ ধরনের অনেক নেটওয়ার্ক কাজ করছে', ফের বিস্ফোরক অভিযোগ দিলীপ ঘোষের! বিষয়টা কী?

Dilip Ghosh: 'এ ধরনের অনেক নেটওয়ার্ক কাজ করছে', ফের বিস্ফোরক অভিযোগ দিলীপ ঘোষের! বিষয়টা কী?

বিস্ফোরক অভিযোগ দিলীপ ঘোষের

বিস্ফোরক অভিযোগ দিলীপ ঘোষের

Dilip Ghosh: রবিবার সকালে নিউটাউনের ইকোপার্কে প্রাতঃভ্রমণে এসে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে একাধিক বিষয়ে প্রতিক্রিয়া দেন বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি তথা মেদিনীপুরের বিজেপি সাংসদ দিলীপ ঘোষ।

  • Share this:

    #কলকাতা: বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি তথা মেদিনীপুরের বিজেপি সাংসদ দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh) রবিবার সকালে নিউটাউনের ইকোপার্কে প্রাতঃভ্রমণে এসে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে একাধিক বিষয়ে প্রতিক্রিয়া দেন।

    গতকাল হায়দরাবাদে অমিত শাহ বক্তব্য রাখতে গিয়ে তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী বাংলা বানানোর চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ করেন। এই প্রশ্নের জবাবে দিলীপ ঘোষ বলেন, ''আটজন মহিলা, দুজন শিশুকে পুড়িয়ে মারা হয় ঘরের ভেতরে। ১৩ বছরের মেয়েকে ধর্ষণ করে খুন করা হচ্ছে। পাড়ায় পাড়ায় এরকম ঘটনা হচ্ছে, খুন হচ্ছে। তাতে বাংলার বদনাম হয়নি আর অমিত শাহ বললেই বাংলার বদনাম হয়ে যাবে! সারা দেশের জানার দরকার আছে পশ্চিমবঙ্গে রাজনীতি কীভাবে চলছে, কীভাবে আইনের ব্যবস্থা আছে এখানে, গণতন্ত্র কী অবস্থায় আছে, সারা দেশের জানা উচিত। তেলেঙ্গানাতেও ইদানিং যেহেতু আমাদের পার্টি শক্তিশালী হয়েছে, হায়দরাবাদ কর্পোরেশন নির্বাচনে ভালো রেজাল্ট করেছি আমরা। তারপর থেকে বিজেপির উপর অত্যাচার শুরু হয়ে গিয়েছে, সঞ্জয় কুমার যিনি ওখানকার প্রেসিডেন্ট আছেন বিজেপির এবং এমপি, পার্টি অফিসের গ্রিল কেটে গ্যাস কাটার দিয়ে তাকে ওখান থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে আর অত্যাচার করা হচ্ছে। স্বাভাবিকভাবেই তাই হায়দরাবাদের পরিস্থিতির সঙ্গে এখানকার পরিস্থিতি সাথে তুলনা করেছেন অমিত শাহ।''

    ত্রিপুরায় পাঁচ বছরের আগে মুখ্যমন্ত্রী পদে বিপ্লব দেবের ইস্তফা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অনেক রাজ্যেই এমনটা হয়, অনেক জায়গায় প্রয়োজনে করতে হয় এমন। পার্টি যেটা ঠিক মনে করেছে, করেছে। বিপ্লব দেবের সময়কাল খারাপ হলে কর্পোরেশন, পুর নির্বাচন জিতল কী করে? বলতে পারবেন না রিগিং হয়েছে, বিরোধীরা বলেছে শান্তিপূর্ণ ভোট হয়েছে। এটা তৃণমূল নয়, এই জন্য নেতৃত্ব পরিবর্তন হয়। সংগঠনের মধ্যে হয়, প্রশাসনের মধ্যে হয়।''

    আরও পড়ুন: বাংলায় আগেভাগেই ঢুকছে বর্ষা? রবিবার একাধিক জেলায় ঝড়বৃষ্টির আশঙ্কা! জানুন...

    আন্তর্জাতিক হাওয়ালা পাচার চক্রের মূল চাঁই প্রশান্ত কুমার গ্রেফতার হয়েছেন। এই প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ বলেন, ''পশ্চিমবঙ্গকে এই ধরনের যত অপরাধী, তারা শেল্টার হিসাবে বেছে নিয়েছে। তারা জানে কেউ বিরক্ত করবে না, এদের সাথে শাসক দলের লোকেদের যোগাযোগ আছে। তাই তারা এতদিন ধরে এই ধরনের কাজ করে যাচ্ছিল। এ ধরনের অনেক নেটওয়ার্ক কাজ করছে, যেটা পুলিশ জেনেও বন্ধ করা দরকার আছে বলে মনে করে না। পশ্চিমবঙ্গটা অপরাধীদের জায়গা হয়ে যাবে।

    রহড়া বোমা বিস্ফোরণে প্রসঙ্গেও তিনি বলেন, ''মিডিয়াতে আমরা দেখি রোজ কোথাও-না-কোথাও গুলি চলছে বা বোমা বিস্ফোরণ হচ্ছে। কোথায় আছি আমরা, কেন এ রকম হয়ে যাচ্ছে, পুলিশ কেন হাত গুটিয়ে বসে আছে, অপরাধীরা এখন পার্টির নেতা হয়ে গেছে, পুলিশের হিম্মত নেই তাদের গায়ে হাত দেওয়ার! আমরা দেখলাম বগটুই কাণ্ডে পার্টির নেতাই সেখানে সবথেকে বড় অপরাধী। মুখ্যমন্ত্রীকে তাঁর নাম সবার সামনে দাঁড়িয়ে বলতে হচ্ছে। কী করে আমরা আশা করতে পারি, পুলিশ কিছু করবে। এগুলো বন্ধ হবে না, বাড়তেই থাকবে।''

    আরও পড়ুন: কে মানিক সাহা? ত্রিপুরায় ভোটের মুখে বিপ্লব দেবকে সরিয়ে যাঁকে মুখ্যমন্ত্রী করল বিজেপি?

    বগটুই কান্ডের পরে মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন সমস্ত বেআইনি অস্ত্র শস্ত্র উদ্ধার করতে হবে। সেই প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষের প্রতিক্রিয়া, ''আমরা দেখেছি যেগুলো মুখ্যমন্ত্রী বলার পর লোক দেখানোর জন্য সামনে নিয়ে আসা হল আসল অস্ত্র কোথায় আছে কার কাছে আছে সব জানে পুলিশ পুলিশ খোঁজ করবে না আমরা দেখেছি পঞ্চায়েত নির্বাচনের সময় সেই অস্ত্র নিয়ে পুলিশ অপরাধীরা একসাথে আমাদের লোকেদের ওপর হামলা করেছে অপরাধীরাই এখন এই পার্টি চালাচ্ছে সরকার চালাচ্ছে ,বাংলা চালাচ্ছে।

    বউ বাজারে মেট্রোর কাজের জন্য ফের বাড়িতে ফাটল প্রসঙ্গে মেট্রোরেলের ভূমিকায় অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম। সেই প্রশ্নের জবাবে দিলীপ ঘোষ বলেন, ''মেয়র আগে দোষ স্বীকার করতে বলুন তাঁর নেত্রীকে। মেট্রোর লাইন ঘুরিয়েছেন অপরিকল্পিতভাবে। তার ফলে বারবার ওখানে সমস্যা হচ্ছে। গায়ের জোরে রাজনীতি করতে গিয়ে সমস্ত কিছু উল্টোপাল্টা করে দেবেন, সাধারণ মানুষকে তার জন্য ভুগতে হচ্ছে। ওদের আগে ক্ষমা চাওয়া উচিত লোকের কাছে। কেন এই ধরনের রাজনীতি করেন? কলকাতায় যে জল বার করতে পারে না বিদ্যুৎ দিতে পারে না, তাদের এই ধরনের বড় বড় কথা বলা সাজে না।''

    ---সাহ্নিক ঘোষ

    Published by:Suman Biswas
    First published:

    Tags: Bengal BJP, Dilip Ghosh, TMC

    পরবর্তী খবর