• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • জামিন খারিজ ! ১৪ দিন জেলেই কাটবে রিয়ার ! চাটাই আর ডাল-রুটি ছাড়া জুটবে না কিছুই !

জামিন খারিজ ! ১৪ দিন জেলেই কাটবে রিয়ার ! চাটাই আর ডাল-রুটি ছাড়া জুটবে না কিছুই !

রিয়াও সৌভিককের বেলের আবেদন খারিজ করল মুম্বাই স্পেশাল কোর্ট। সূত্রের দাবি, হাই কোর্টের দ্বারস্থ হবেন তাঁরা।

রিয়াও সৌভিককের বেলের আবেদন খারিজ করল মুম্বাই স্পেশাল কোর্ট। সূত্রের দাবি, হাই কোর্টের দ্বারস্থ হবেন তাঁরা।

রিয়াও সৌভিককের বেলের আবেদন খারিজ করল মুম্বাই স্পেশাল কোর্ট। সূত্রের দাবি, হাই কোর্টের দ্বারস্থ হবেন তাঁরা।

  • Share this:

#মুম্বই: রিয়াও সৌভিককের বেলের আবেদন খারিজ করল মুম্বাই স্পেশাল কোর্ট। সূত্রের দাবি, হাই কোর্টের দ্বারস্থ হবেন তাঁরা। মিরান্ডা, জায়েদ, দীপেশ, বাসিতও পেল না জামিন।  গত মঙ্গলবার রাতে গ্রেফতার করা হয়েছিল রিয়া চক্রবর্তীকে। সুশান্তের প্রেমিকা রিয়ার নামে অভিযোগ ছিল অনেক। তবে তাঁকে গ্রেফতার করা হয় মাদকচক্রের সঙ্গে যোগের জন্য। আপাতত সুশান্তের মৃত্যুর সঙ্গে রিয়ার যোগের তেমন জোড়াল প্রমান হাতে আসেনি সিবিআইয়ের। প্রথম দিন রিয়ার জামিনের আবেদন খারিজ করার পর। গতকাল ফের আবেদন করেছিলেন রিয়ার উকিল। কাল এই আদেশ স্থগিত রাখা হয়েছিল।  আজ ছিল শুনানি। অনেক আশা করেছিলেন রিয়া। তবে কোনও কিছুই কাজে এল না। তাঁকে আপাতত ১৪ দিন জেলে কাটাতে হবে। এর পরের সিদ্ধান্ত ১৪ দিন পরেই নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার বিশেষ আদালতে রিয়াকে ফের 'নির্দোষ' দাবি করে জামিনের আবেদন করেন আইনজীবী সতীশ মানশিন্ডে। আবেদনে বলা হয়, 'রিয়া কোনও অপরাধ করেননি। তাঁকে মিথ্যা ফাঁসানো হয়েছে। তাঁর থেকে এনসিবি জোর করে বয়ান আদায় করেছে!' রিয়ার পাশাপাশি জামিনের আবেদন করা হয় রিয়ার ভাই শৌভিক চক্রবর্তী সহ মাদককাণ্ডে গ্রেফতার হওয়া আরও ৫ জনের। কিন্তু জামিনের শুনানি শেষে রায়দান স্থগিত রাখে আদালত। শুক্রবার ১১ সেপ্টেম্বর সকালে বিচারক জি বি গুরাও রিয়া এবং শৌভিক চক্রবর্তীর পাশাপাশি আরও ৪ অভিযুক্তর জামিন সংক্রান্ত রায় ঘোষণা করেন। রায়ে জানানো হয়, গ্রেফতার হওয়া ৬ জন, অর্থাৎ রিয়া, শৌভিক, দীপেশ সাওয়ান্ত, স্যামুয়েল মিরান্ডা, আবদেল বসিত পরিহার ও জায়েদ ভিলাত্রার জামিনের আবেদন খারিজ করেছে আদালত। ফলে আগামি ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত  বাইকুল্লা জেলেই কাটাতে হবে রিয়া চক্রবর্তীকে।

নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর তরফে দাবি করা হয়, রিয়া চক্রবর্তী 'ড্রাগ সিন্ডিকেট'-এর সঙ্গে সরাসরিভাবে যুক্ত, সক্রিয় সদস্য। সুশান্তের জন্য তিনিই মাদক আনাতেন, অন্যান্য নানা জায়গাতেও মাদক পৌঁছে দেওয়ার কাজ করতেন। NDPS আইন অনুসারে ২৭ এ, ২১, ২২, ২৮ ও ২৯ ধারায় মামলা দায়ের করেছে।

ARUNIMA DEY

Published by:Piya Banerjee
First published: