Home /News /business /
ঝুঁকি প্রায় নেই, রয়েছে উচ্চ হারে রিটার্নের মওকা, এই স্টকে বিনিয়োগের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

ঝুঁকি প্রায় নেই, রয়েছে উচ্চ হারে রিটার্নের মওকা, এই স্টকে বিনিয়োগের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

ঝুঁকি প্রায় নেই, রয়েছে উচ্চ হারে রিটার্নের মওকা, এই স্টকে বিনিয়োগের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

ঝুঁকি প্রায় নেই, রয়েছে উচ্চ হারে রিটার্নের মওকা, এই স্টকে বিনিয়োগের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

যেহেতু দীর্ঘদিন ধরে এই দরপতন চলছে, তাই এই স্টকের উপর কড়া নজর রেখেছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা।

  • Share this:

#কলকাতা: ২০২১ সালের জানুয়ারিতে ১০২৫ টাকায় লেনদেন হয়েছিল অমরা রাজা ব্যাটারির স্টক। কিন্তু বর্তমানে সেটা প্রায় অর্ধেকে নেমে এসেছে। বুধবার দুপুর ১টা নাগাদ এনএসসি-তে মাত্র ৫৫২ টাকায় লেনদেন হয়েছে অমর রাজা ব্যাটারির স্টক। যেহেতু দীর্ঘদিন ধরে এই দরপতন চলছে, তাই এই স্টকের উপর কড়া নজর রেখেছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা। মানিকন্ট্রোল প্রো-এর মানিকন্ট্রোল ইন প্রফিট আইডিয়াজের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে নীতিন আগরওয়াল জানিয়েছেন, তাঁরাও এই স্টককে ট্র্যাক করছেন দীর্ঘদিন ধরে। তাঁদের কাছে বর্তমান দাম বেশ আকর্ষণীয় মনে হচ্ছে।

তবে কাঁচামালের ক্রমবর্ধমান দামই এই কোম্পানির একমাত্র সমস্যা বলে মনে করছেন নীতিন আগরওয়াল। তাঁর মতে, এই কারণেই কোম্পানির ইবিআইটিডিএ (সুদ, কর, পরিশোধের আগে আয়) মার্জিন প্রভাবিত হয়েছে। ২০২১-২২ অর্থবর্ষের তৃতীয় প্রান্তিকে প্রায় ৩২২ বেসিস পয়েন্ট সংকুচিত হয়েছে মার্জিন। তবে কাঁচামালের প্রভাব কমাতে দাম বৃদ্ধি-সহ কয়েকটি বিষয়ের উপর একনাগাড়ে কাজ করছে কোম্পানি। তবে বিশেষজ্ঞরা এটাও মনে করিয়ে দিচ্ছেন, গত এক মাস যাবত ফের ট্র্যাকে আসতে শুরু করেছে এর শেয়ার। বেড়েছে ০.২১ শতাংশ।

আরও পড়ুন-এপ্রিলে রেকর্ড ১.৫০ লক্ষ কোটি টাকার জিএসটি আদায়ের সম্ভাবনা, কেন এই দাবি অর্থ মন্ত্রকের?

কোম্পানির সবকিছু ঠিকঠাক চলছে: করোনা কাটিয়ে ফের ঘুরে দাঁড়াচ্ছে অর্থনীতি। সমস্ত সেক্টরেই চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে। বাদ যায়নি স্বয়ংচালিত সেক্টরগুলিও। আগরওয়ালের মতে, তৃতীয় ত্রৈমাসিকের পরিসংখ্যান থেকে স্পষ্ট ব্যাটারি সেক্টরেও চাহিদা বাড়ছে। গত এক বছরে ২০.৭ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে অমর রাজা ব্যাটারি। যা ইতিবাচক বলেই মনে করছেন তিনি। পাশাপাশি অর্থনীতি স্বাভাবিক হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এই বৃদ্ধির হার আরও বাড়বে বলেই আশা আগরওয়ালের।

বৈদ্যুতিন গাড়ির দুনিয়াতেও পা রাখতে চলেছে এই কোম্পানি। একটি ১০০ মেগাওয়াটের লিথিয়াম-আয়ন ব্যাটারি তৈরির প্ল্যান্ট শুরু করতে চলেছে তারা। শুধু তাই নয়, ইতিমধ্যেই ই-রিকশার ব্যাটারি বাজারে নিয়ে এসেছে। পাশাপাশি এর যন্ত্রপাতি উৎপাদন করে তা প্রস্তুতকারকদের কাছে সরবরাহের কাজও শুরু করেছে কোম্পানি।

আরও পড়ুন-প্রচন্ড গরমেও চলছে না অ্যাপ ক্যাবে এসি, যাত্রীদের ভুরি ভুরি অভিযোগ!

আগরওয়াল বিশ্বাস করেন, খুব শীঘ্রই সমানে আসা সমস্যাগুলো মিটিয়ে ফেলবে কোম্পানি। দাম সংশোধন-সহ কাঁচামালের চ্যালেঞ্জও কাটিয়ে ওঠার সদিচ্ছা তাদের আছে। তাই ভবিষ্যতের জন্য এই স্টকে বিনিয়োগ করা লাভজনক হতে পারে। আগরওয়ালের মতে, বর্তমানে এই স্টকে বিনিয়োগ করলে আগামী দু’বছরের মধ্যে অর্থাৎ ২০২৪ সালে প্রায় ১০.৮ গুণ লাভ হতে পারে। তাই বিশেষজ্ঞদের মূল্যায়ন, এই স্টকে কম ঝুঁকিতে উচ্চ হারে রিটার্ন পাওয়ার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি।

First published:

Tags: Multibagger Stock

পরবর্তী খবর