হোম /খবর /ব্যবসা-বাণিজ্য /
ছুটবে তীব্র ঝড়ের বেগে! চলতি মাসেই ভারতের বাজারে আসতে চলেছে ল্যাম্বরগিনির সুপার

ছুটবে তীব্র ঝড়ের বেগে! চলতি মাসেই ভারতের বাজারে আসতে চলেছে ল্যাম্বরগিনির সুপার কার!

প্রতীকী ছবি ৷

প্রতীকী ছবি ৷

এই সুপার কারের সর্বোচ্চ গতি প্রতি ঘণ্টায় ৩০৬ কিলোমিটার। এর দাম রাখা হয়েছে ২ লক্ষ ৬০ হাজার ডলার। অর্থাৎ যা ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ২.০৭ কোটি টাকা।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: আগামী ২৪ নভেম্বরে ভারতে লঞ্চ হতে চলেছে Lamborghini-র নতুন মডেল ‘Urus Performante’। চলতি বছরের অগাস্ট মাসেই আন্তর্জাতিক বাজারে আত্মপ্রকাশ করেছে এই সুপার কার। এ-বার ভারতের বাজারে তার খেলা দেখানোর পালা। পুরনো মডেলের মতোই এতে রয়েছে ৪.০ লিটারের ট্যুইন টার্বোচার্জড ভি৮ ইঞ্জিন। কিন্তু এর হর্সপাওয়ার হল ৬৬৬ এইচপি। অর্থাৎ যা পুরনো মডেলের তুলনায় ১৬ এইচপি বেশি।

শুধু তা-ই নয়, নতুন মডেলের এই গাড়ি ৮৫০ এনএম টর্ক উৎপাদন করবে। শূন্য থেকে ১১০ কেপিএইচ গতি তুলতে সময় লাগবে মাত্র ৩.৩ সেকেন্ড। এই সুপার কারের সর্বোচ্চ গতি প্রতি ঘণ্টায় ৩০৬ কিলোমিটার। এর দাম রাখা হয়েছে ২ লক্ষ ৬০ হাজার ডলার। অর্থাৎ যা ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ২.০৭ কোটি টাকা।

Urus Performante-এর সবচেয়ে বড় পরিবর্তন হল, এতে এয়ার সাসপেনশনের পরিবর্তে একটি কয়েল স্প্রিং সেট-আপ করা হয়েছে। স্পোর্টস সাসপেনশনে স্যুইচের পাশাপাশি থাকছে তিনটি অফ-রোড মোড। সেগুলো হল Sabbia মানে বালি, Neve মানে তুষার এবং Terra মানে কাদা। এ-ছাড়াও ‘Rally’, Strada (Street), Sport, Corsa (Track) ইত্যাদি মোডও থাকছে।

বনেট ডিজাইনে পরিবর্তন:

Urus Performante-এর চেহারাতেও বড়সড় পরিবর্তন করা হয়েছে। নতুন ডিজাইন করা হয়েছে বনেটে। সামনের দিকটা আগের তুলনায় অনেকটাই বেশি আক্রমণাত্মক। পাশে থাকছে নতুন ভেন্ট। আর পিছনের বাম্পার এবং ২৩ ইঞ্চি অ্যালয় হুইলের ডিজাইনটাও নতুন।

এ-ছাড়া প্রোফাইলে তেমন কোনও পরিবর্তনও হয়নি। গাড়ির ভিতরে Urus Performante-এ স্ট্যান্ডার্ড হিসেবে Black Alcantara চামড়ায় মোড়া থাকছে। আসনগুলিতেও দেওয়া হয়েছে নতুন ষড়ভুজ ডিজাইন। এ-ছাড়া আসন, দরজা এবং ছাদে একটি 'পারফরম্যান্ট' ব্যাজ থাকবে।

আরও পড়ুন: West Midnapore News: সরকারি নির্দেশ উপেক্ষা করে ঘাটালের মাঠে চলছে দেদার ন্যাড়া পোড়ানো

সবচেয়ে বড় ব্যাপার হল, দ্রুত গতি তোলার জন্য ল্যাম্বরগিনি এই গাড়ির ওজন প্রায় ৪৭ কেজি কমিয়ে দিয়েছে। নতুন বাম্পারগুলো ২৫ মিমি লম্বা এবং কার্বন ফাইবার দিয়ে তৈরি। টর্ক বিতরণের জন্য একটি নতুন ডিফারেনশিয়াল ব্যবহার করা হয়েছে। রাইডিং অভিজ্ঞতা বাড়ানোর জন্য স্টিয়ারিংও রি-টিউন করেছে ল্যাম্বরগিনি।

আরও পড়ুন: রেপো রেট বাড়লেও এই ব্যাঙ্কগুলো এখনও সস্তায় হোম লোন দিচ্ছে, দেখে নিন বিস্তারিত!

Urus Performante-এর সঙ্গে ভারতের অডি আরএসকিউ ৮, অ্যাস্টন মার্টিন ডিবিএক্স ৭০৭, পোর্সে কেইনি টার্বো জিটি এবং মাসেরাতি লেভান্টি ট্রোফেও-এর প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। ভারতে বাজারে আসার পর এটি সম্প্রতি আত্মপ্রকাশ করা ফেরারি পুরাসাঙ্গু-এর সঙ্গেও টক্কর দিতে পারে।

Published by:Arjun Neogi
First published:

Tags: Share Impact, Share Market, Share Market News