Home /News /west-midnapore /
Paschim Medinipur: ভগ্নপ্রায় ব্রীজে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার! ক্ষুব্ধ সকলেই

Paschim Medinipur: ভগ্নপ্রায় ব্রীজে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার! ক্ষুব্ধ সকলেই

title=

স্কুল যাওয়ার রাস্তায় ভাঙা ব্রিজ। দীর্ঘ পথ ঘুরে স্কুল পৌছাতে হয়। ব্রিজ মেরামতের দাবিতে পথ অবরোধের পরে মিলল মেরামতের প্রতিশ্রুতি।

  • Share this:

    #পশ্চিম মেদিনীপুর: স্কুল যাওয়ার রাস্তায় ভাঙা ব্রিজ। দীর্ঘ পথ ঘুরে স্কুল পৌছাতে হয়। ব্রিজ মেরামতের দাবিতে পথ অবরোধের পরে মিলল মেরামতের প্রতিশ্রুতি। দীর্ঘদিন স্কুল বন্ধ ছিল, তাই ছাত্র, ছাত্রীদের সমস্যায় পড়তে হত না বলে চুপ ছিল ছাত্রছাত্রীরা। দীর্ঘদিন পর স্কুল খুলতেই সমস্যার সম্মুখীন স্কুল পড়ুয়া থেকে সাধারন মানুষ। একমাত্র যাতায়াতের রাস্তায় ভগ্নপ্রায় ব্রিজের মেরামতের দাবিতে প্রায় বছর চারেক আগে পথ অবরোধ করেছিল ছাত্রছাত্রী ও স্থানীয় গ্রামবাসীরা। সেইসময় প্রশাসন ব্রীজ মেরামতের আশ্বাস দেওয়ায় অবরোধ প্রত্যাহার করা নেওয়া হয়। তরপর করোনা আবহ এবং তীব্র গরমে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকে স্কুলগুলি। কিন্তু এবার স্কুল খোলায় আবার অসুবিধার সম্মুখীন কচিকাচারা। ঘটনাটি জাম্বনী থানা এলাকার।

    জাম্বনি থানার পাঁচামি ও পিপড়ি গ্রামের মাঝখানে পুতরঙ্গি খালের উপর ব্রিজটি গত প্রায় পাঁচ বছরের বেশি সময় ধরে বেহাল অবস্থায় পড়ে আছে। বার বার প্রশাসনকে বলেও কোনো লাভ হয়নি। বর্ষা শুরু হতেই জল যেতে শুরু করছে। ফলে ব্রিজের পাশ দিয়েও যাতায়াত বন্ধ।

    আরও পড়ুনঃ জ্ঞানেশ্বরী দুর্ঘটনায় আজও 'নিখোঁজ' বাবা, ১২ বছর পরও মৃত্যুর শংসাপত্র পাওয়ার লড়াই জারি পরিবারের!

    ব্রীজ মেরামতের দাবিতে সম্প্রতি স্কুল পড়ুয়ারা রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভও দেখায়। ছাত্রছাত্রীদের দাবি, দীর্ঘ পাঁচ বছর ধরে এই ব্রীজটি ভগ্নপ্রায় অবস্থায় পড়ে রয়েছে, পঞ্চায়েত প্রশাসনের কোন ভ্রুক্ষেপ নেই। একাধিক বার আমাদের পড়ুয়াদের তরফে, এলাকার মানুষের পক্ষ থেকে স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধানকে বিষয়টি অভিযোগ আকারে জানানো সত্ত্বেও কোন কাজ হয়নি।

    আরও পড়ুনঃ রাজ্যের প্রতিটি জেলায় গড়ে তোলা হবে একটি করে হরিণালয়,বললেন বনমন্ত্রী

    যদিও পঞ্চায়েত প্রধানের সঙ্গে এবিষয়ে ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, তিনি বিষয়টি উর্ধতন অর্থাৎ জেলা পরিষদকে জানিয়েছেন। খুব শীঘ্রই ব্রীজটি মেরামতের উদ্যোগ নেওয়া হবে।

    Partha Mukherjee
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Jhargram, Paschim medinipur

    পরবর্তী খবর