Home /News /west-bardhaman /
West Burdwan News: শখ ছিল, লকডাউনে এল সুযোগ, লেখিকা হলেন আসানসোলের অঙ্কিতা

West Burdwan News: শখ ছিল, লকডাউনে এল সুযোগ, লেখিকা হলেন আসানসোলের অঙ্কিতা

লেখালেখিতে

লেখালেখিতে মগ্ন অঙ্কিতা চাটার্জী।

অঙ্কিতা আসানসোলের বাসিন্দা। বিএসসি অনার্স এর প্রথম বর্ষের ছাত্রী। লকডাউনের অবসর সময়কে কাজে লাগিয়ে তিনি লিখে ফেলেছেন তিনটি উপন্যাস।

  • Share this:

    #পশ্চিম বর্ধমান: অতিমারি, লকডাউন মানুষের জীবন থেকে কেড়ে নিয়েছে বহু কিছু। আবার অনেক মানুষকে সমৃদ্ধও করে তুলেছে। অতিমারির পরবর্তী সময়ে দেশজুড়ে এমন বহু প্রতিভার কথা উঠে এসেছে, যারা লকডাউনের অবসরকে কাজে লাগিয়ে নিজেদের সাফল্যের দিশা খুঁজে পেয়েছেন। সেই তালিকায় সংযোজন হয়েছে আরও একটি নাম। অঙ্কিতা চট্টোপাধ্যায়। তিনি আসানসোলের বাসিন্দা। বিএসসি অনার্সের প্রথম বর্ষের ছাত্রী। লকডাউনের অবসর সময়কে কাজে লাগিয়ে তিনি লিখে ফেলেছেন তিনটি উপন্যাস। উপন্যাসগুলি ইতিমধ্যে বিভিন্ন প্রকাশনার মাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। বিভিন্ন ই কমার্স ওয়েবসাইটে পাওয়া যাচ্ছে এই বইগুলি।

    আরও পড়ুন West Burdwan: নিজেদের জীবন বিপন্ন করে বরফে ঢাকা হিমালয় থেকে ৭২ বছরের অভিযাত্রী বৃদ্ধকে বাঁচিয়ে ফিরলেন ৩পর্বতারোহী

    অঙ্কিতার ছোট থেকেই লেখালেখির প্রতি আগ্রহ ছিল। কিন্তু পড়াশোনার চাপে সেদিকে বিশেষ নজর দেওয়া হয়নি। লকডাউনের অবসর সময় পার করতেই তিনি লেখালেখিকে হাতিয়ার বানিয়ে ছিলেন। আর সেই লেখালিখি আজ তাকে নতুন সাফল্য দেখিয়েছে। তিনটি উপন্যাস লিখে তিনি লেখালেখির প্রতি আগ্রহ পেয়েছেন। অনুপ্রেরণা পেয়েছেন। লেখার ওপর ভর করে তিনি আরও এগিয়ে যেতে চান। পাশাপাশি চালিয়ে যেতে চান নিজের পড়াশোনা। লেখিকা অঙ্কিতা চট্টোপাধ্যায় বলেছেন, পঞ্চম শ্রেণী থেকেই তাঁর লেখালেখির ওপর বিশেষ ঝোঁক ছিল। সে সময় থেকেই ছোটখাটো লেখালেখি করতেন তিনি। যখন পড়াশোনার চাপ বেড়েছে, তখন এই লেখালেখি বন্ধ হয়ে গিয়েছিল।

    লকডাউনের সময় তিনি তিনটি উপন্যাস লিখেছেন। সেই বইগুলি ইতিমধ্যেই প্রকাশিত হয়েছে। শখের বশেই লেখালেখি করতাম,তবে সেই লেখালিখি যে বইয়ের পাতায় উঠে আসবে, তেমন ধারণা ছিল না, বললেন অঙ্কিতা। অঙ্কিতার বাড়িতে গিয়ে দেখা গিয়েছে, তিনটি বই প্রকাশিত হওয়ার পরে তিনি আরও নতুন বই লেখার কাজে মগ্ন রয়েছেন। পাঠকদের আরও নতুন স্বাদের বই উপহার দিতে নীরবে চালিয়ে যাচ্ছেন কাজ।

    Published by:Pooja Basu
    First published:

    Tags: South bengal news, Writer

    পরবর্তী খবর