Home /News /west-bardhaman /
Paschim Bardhaman: স্বাধীনতার ৭৫ বছর পার! এতদিনে বিদ্যুৎ পেল জামডোবা গ্রাম!

Paschim Bardhaman: স্বাধীনতার ৭৫ বছর পার! এতদিনে বিদ্যুৎ পেল জামডোবা গ্রাম!

title=

স্বাধীনতার ৭৫ বছর পার করে এল প্রথম আলো। আনন্দ উচ্ছাসে ভাসল গ্রাম। রীতিমতো অকাল আলোর উৎসবে মেতে উঠলেন গ্রামবাসীরা। চারিদিকে আলোয় ঝাঁ-চকচকে পরিবেশ, তার মধ্যেই অন্ধকারে ডুবে ছিল আসানসোল দক্ষিণ সভার অন্তর্গত জামডোবা গ্রাম।

  • Share this:

    #আসানসোল : স্বাধীনতার ৭৫ বছর পার করে এল প্রথম আলো। আনন্দ উচ্ছাসে ভাসল গ্রাম। রীতিমতো অকাল আলোর উৎসবে মেতে উঠলেন গ্রামবাসীরা। চারিদিকে আলোয় ঝাঁ-চকচকে পরিবেশ, তার মধ্যেই অন্ধকারে ডুবে ছিল আসানসোল দক্ষিণ সভার অন্তর্গত জামডোবা গ্রাম। স্বাধীনতার পর প্রথম বিদ্যুৎ এল ওই গ্রামে। ৩৪ বছরের দীর্ঘ বাম জমানায় ওই গ্রামে বিদ্যুৎ পৌঁছায়নি। বর্তমান তৃণমূল সরকারের ১১ তম বর্ষে বিদ্যুৎ এল আসানসোলের ওই গ্রামটিতে। যদিও একাধিকবার এর আগেও ওই গ্রামে বিদ্যুৎ পৌঁছে দেওয়া নিয়ে উদ্যোগ দেখা গিয়েছিল। কিন্তু তার সঠিক বাস্তবায়ন হয়নি। তবে অবশেষে জামডোবা গ্রামে পৌঁছেছে বিদ্যুতের আলো। স্বভাবতই খুশি স্থানীয় মানুষ। রীতিমতো তারা আনন্দ উচ্ছ্বাসে মেতে উঠেছেন। নাচ-গান, হৈ-হুল্লোড় এর মধ্যে দিয়ে তারা প্রথম আলো পাওয়ার আনন্দ উদযাপন করেছেন।

     

     

    পাশাপাশি ধন্যবাদ জানিয়েছেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি সহ জেলা নেতৃত্ব এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। উল্লেখ্য, জামডোবা গ্রামে এর আগে সোলার লাইটের ব্যবস্থা করেছিলেন তৎকালীন আসানসোলের সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়। পরবর্তী ক্ষেত্রে ওই এলাকার তৎকালীন বিধায়ক তাপস চ্যাটার্জি এলাকায় বিদ্যুতের খুঁটি বসিয়েছিলেন।

    আরও পড়ুনঃ মুখ্যমন্ত্রীর জনসভা উপলক্ষ্যে এলাহি আয়োজন আসানসোলে

     

     

    কিন্তু বিদ্যুতের তার সেখানে পৌঁছায়নি। তবে এবার জামডোবাগ্রামের পৌঁছেছে বিদ্যুতের আলো। এই গ্রামটি মূলত আদিবাসী অধ্যুষিত। প্রায় ১০০ পরিবারের বসবাস রয়েছে সেখানে।তবুও তারা এতদিন অন্ধকারেই থাকতেন।

    আরও পড়ুনঃ নিজের রক্ত দিয়ে এঁকেছেন মুখ্যমন্ত্রীর ছবি, তাঁকেই উপহার দিতে চান দুর্গাপুরের সুরজিৎ

     

     

    মোবাইল ফোন চার্জ করতেন বাইরে কাজে গিয়ে, অথবা পাশের গ্রামে গিয়ে ঘন্টা হিসেবে টাকা খরচ করে মোবাইল চার্জ দিয়ে আনতেন। আর পড়াশোনা থেকে দৈনন্দিন কাজকর্ম চলত হ্যারিকেনের আলোয়। তবে সেই অন্ধকার যুগ কাটিয়ে এবার আলোর পথে ফিরল জামডোবা গ্রাম।

    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Asansol, Paschim bardhaman

    পরবর্তী খবর