Home /News /technology /
খুব শীঘ্রই WhatsApp নিজেই জানাবে কখন কী নতুন ফিচার আসছে

খুব শীঘ্রই WhatsApp নিজেই জানাবে কখন কী নতুন ফিচার আসছে

WhatsApp একটি নয়া চ্যাটবটের (WhatsApp Chatbot) উপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাচ্ছে।

  • Share this:

WhatsApp testing chatbot: বর্তমানে হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) যোগাযোগের অন্যতম প্রধান মাধ্যম হয়ে উঠেছে। আর তাই WhatsApp নিজেদের ব্যবহারকারীদের জন্য প্রায়ই নিত্য নতুন ফিচার আনে WhatsApp। অথচ ব্যবহারকারীরা হয়তো অনেক সময় জানতেও পারেন না যে, কোন সময়ে কী ফিচার আসছে।

এ-বার সেই সমস্যাই দূর করতে চলেছে WhatsApp। আর তার জন্য WhatsApp একটি নয়া চ্যাটবটের (WhatsApp Chatbot) উপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাচ্ছে। আসলে এই চ্যাটবটের থেকেই জানা যাবে, নিজেদের অ্যাপে কী কী নতুন ফিচার যোগ করতে চলেছে WhatsApp। হোয়াটঅ্যাপের বিষয়ে তথ্য প্রদানকারী WABetaInfo বলছে, অফিসিয়াল হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটবট অগ্রগতির প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে।

আরও পড়ুন: মাইক্রোসফট ওয়ার্ডের এই ৫ ট্রিক আসান করে দেবে লেখালিখি

এই পাবলিকেশনের তরফে প্রকাশিত স্ক্রিনশটে দেখা গিয়েছে যে, অ্যাপটিতে একটি ভেরিফায়েড চ্যাটবট থাকবে। আর এই চ্যাটবটের সাহায্যে কথোপকথনের তালিকার মাধ্যমে নতুন ফিচার সম্পর্কে জানা যাবে। শুধু তা-ই নয়, এর পাশাপাশি ওই চ্যাটবটের মাধ্যমে টিপস ও ট্রিকস এবং প্রিভেসি ও সুরক্ষা বা সেফটি সম্পর্কেও জানতে পারবেন হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারকারীরা।

হোয়াটসঅ্যাপ প্ল্যাটফর্মে এখনও পর্যন্ত শুধুমাত্র বিজনেস অ্যাকাউন্টগুলিই ভেরিফাই করা থাকে। এ বার এই নয়া চ্যাটবটও ভেরিফায়েডই থাকবে। তবে ব্যবহারকারীরা এই চ্যাটবটের কোনও রিপ্লাই বা উত্তর দিতে পারবেন না। চ্যাটবটে আসা মেসেজগুলি শুধুমাত্র পড়তেই পারবেন তাঁরা। অর্থাৎ এই চ্যাটবটের কথোপকথন একতরফাই হবে।

আরও পড়ুন: ১৩টি নতুন মোবাইল প্ল্যানে বিনামূল্যে অ্যামাজন প্রাইম! দেখুন অসাধারণ এই অফার

আসলে এর কারণ হল- ব্যবহারকারীদের হোয়াটসঅ্যাপের লেটেস্ট ফিচার এবং অন্যান্য বিবরণের বিষয়ে জানানোই এই চ্যাটবটের মূল উদ্দেশ্য। মনে রাখতে হবে, ব্যবহারকারীদের প্রতিক্রিয়া অথবা অভিযোগ নেওয়া কিন্তু চ্যাটবটের কাজ বা উদ্দেশ্য কোনওটাই নয়।

টেলিগ্রাম এবং সিগন্যালে আগে থেকেই রয়েছে এই সুবিধা:

তবে এই নয়া চ্যাটবটকে নিজেদের স্টেবল চ্যানেলে কবে থেকে হোয়াটসঅ্যাপ রোল আউট করবে, সেই বিষয়ে কিছু জানানো হয়নি। নয়া হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটবটটি এদের প্রতিদ্বন্দ্বী মেসেজিং অ্যাপ টেলিগ্রাম এবং সিগন্যালের মতোই হবে। এরা আসলে ব্যবহারকারীদের নয়া পরিবর্তন এবং ফিচারের বিষয়ে জানানোর জন্য নিজেদের প্ল্যাটফর্মে একটি অফিসিয়াল চ্যানেল ব্যবহার করে।

কোনও ব্যবহারকারী যদি হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটবট থেকে বার্তা পেতে না-চান, সে ক্ষেত্রে তিনি ওই অ্যাকাউন্টটি ব্লক করে দিতে পারেন। এই সুবিধাটি এখনও বিটা-তে রয়েছে। তাই যে সব ব্যবহারকারী বিটা প্রোগ্রামে সামিল রয়েছেন, সেই সব নির্বাচিত ব্যবহারকারীরা এই সুবিধা দেখতে পাবেন।

Published by:Ananya Chakraborty
First published:

Tags: Whatsapp, Whatsapp New Feature, WhatsApp new update

পরবর্তী খবর