corona virus btn
corona virus btn
Loading

হাসপাতালে ক্রিকেট গুরু অশোক মুস্তাফি, জীবনের প্রথম কোচের পাশে দাঁড়ালেন সৌরভ

হাসপাতালে ক্রিকেট গুরু অশোক মুস্তাফি, জীবনের প্রথম কোচের পাশে দাঁড়ালেন সৌরভ

হাসপাতালে যাতে সু-চিকিৎসা পান অশোক মুস্তাফি সে ব্যাপারে কথা বলেন সৌরভ।

  • Share this:

#কলকাতা: ফের মানবিক সৌরভ। ক্রিকেট জীবনের প্রথম কোচ অশোক মুস্তাফির অসুস্থতার খবর পেয়ে পাশে দাঁড়ালেন প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সল্টলেকের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন অশোক মুস্তাফি। ছোটবেলার বন্ধু সঞ্জয় দাসের থেকে অশোক মুস্তাফির অসুস্থতার খবর জানতে পারেন সৌরভ। তারপরই পাশে থাকার আশ্বাস দেন। হাসপাতালে যাতে সু-চিকিৎসা পান অশোক মুস্তাফি সে ব্যাপারে কথা বলেন সৌরভ।

ছোটবেলায় দুখীরাম ক্রিকেট কোচিং সেন্টারে অশোক মুস্তাফির কাছেই ক্রিকেটে হাতেখড়ি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের। ক্রিকেটের যাবতীয় অ-আ-ক-খ অশোক বাবুর কাছেই শেখেন মহারাজ। বাবা চন্ডী গঙ্গোপাধ্যায় হাত ধরে অশোক মুস্তাফির দুখীরাম কোচিং সেন্টারে ক্রিকেট শিখতে যান সৌরভ। এরিয়ান ক্লাবের গ্যালারির নিচে সত্তর দশকে তৈরি হয় দুখীরাম ক্রিকেট কোচিং সেন্টার। এখান থেকে থেকে একাধিক ক্রিকেটার বাংলার হয়ে রঞ্জি খেলেছেন। ক্রিকেটার তুলে আনার ক্ষেত্রে এই কোচিং সেন্টারের অবদান প্রচুর। সেই দুখীরাম কোচিং সেন্টার প্রশিক্ষকের দায়িত্বে দীর্ঘদিন ছিলেন অশোক মুস্তাফি। ১৯৯২ সালে দুখীরাম থেকে হাওড়া ইউনিয়নে ক্রিকেেট কোচিং সেন্টারে যোগ দেন তিনি।

বেশ কয়েকদিন ধরে শারীরিকভাবে অসুস্থ ছিলেন অশোক মুস্তাফি। ৮৬ বছরের অশোকবাবু সল্টলেকে একাই থাকেন। মেয়ে এই মুহূর্তে ইংল্যান্ডে রয়েছে। রবিবার ভোরে হৃদরোগে আক্রান্ত হন অশোক মুস্তাফি। ছোটবেলার স্যারকে হাসপাতালে ভর্তি করতে উদ্যোগ নেন সঞ্জয় দাস সহ কয়েকজন প্রাক্তন ছাত্র। সঞ্জয় দাস সৌরভকে ফোনে পুরো বিষয়টি জানান। ছোটবেলার স্যারের অসুস্থতার খবর শুনে এগিয়ে আসেন সৌরভ। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে ফোনে কথাও বলেন। কোনও রকম অসুবিধা হলে সব রকম সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন মহারাজ। এই মুহূর্তে ভেন্টিলেশনে রয়েছেন অশোক মুস্তাফি। বিএনআর ক্লাবের হয়ে দীর্ঘদিন ক্রিকেট খেলেন অশোক মুস্তাফি। তারপর কোচিং জীবন শুরু। ২০০০ সালে ময়দান থেকে সরে দাঁড়ান তিনি। তারপর কয়েকদিন সল্টলেকে একটি ক্রিকেট কোচিং সেন্টারের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন।

করোনা যুদ্ধে শামিল হওয়ার পাশাপাশি ছোটবেলার স্যারের পাশে দাঁড়ালেন সৌরভ।

Eeron Roy Barman

First published: April 6, 2020, 3:37 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर