‘বিশ্বকাপ এখনও দেরি আছে, সরকারের অনুমতি না পেলে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলব না’: রাজীব শুক্লা

‘বিশ্বকাপ এখনও দেরি আছে, সরকারের অনুমতি না পেলে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলব না’: রাজীব শুক্লা
File Photo
  • Share this:

#মুম্বই: পুলওয়ামার জঙ্গিহানার প্রভাব কি এবার বিশ্বকাপেও ? মে-জুনে ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপে ভারত-পাক ম্যাচ বয়কটের প্রস্তাব। বোর্ডকে চিঠি পাঠাল কেন্দ্র। তবে চিঠি নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়ায় নারাজ ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। ১৬ জুন ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের মুখোমুখি হওয়ার কথা বিরাটদের। তবে সেই ম্যাচ বয়কটের জন্য ক্রিকেটমহলেই ক্রমশ চাপ বাড়ছে বোর্ডের উপর। ম্যাচ থেকে সরে দাঁড়ানোর দাবি তুলেছে বোর্ড অনুমোদিত সংস্থা ক্রিকেট ক্লাব অফ ইন্ডিয়া।

পুলওয়ামায় আত্মঘাতী জঙ্গি হামলার পর আসন্ন বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে না খেলার দাবি জানানো হয়। সে প্রসঙ্গে আইপিএল চেয়ারম্যান রাজীব শুক্লা বলেন, "এখনই বিষয়টি আমরা বলতে পারব না। বিশ্বকাপ অনেক দূরে রয়েছে। আমরা দেখব কী হয়।" তিনি আরও বলেন, "আমাদের অবস্থান পরিষ্কার। সরকারের তরফে অনুমতি না পাওয়া গেলে আমরা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলব না। খেলা সবসময় রাজনীতি বা সন্ত্রাসবাদের উপরে থাকা উচিৎ। কিন্তু, কেউ যদি সন্ত্রাসবাদে মদত দেয় তাহলে তা অবশ্যই খেলার উপর প্রভাব ফেলে।"

INDIA-CRICKET-IPL-AUCTION

ম্যাচ বয়কট করলে বেকায়দায় পড়তে পারে আইসিসি। কারণ ইতিমধ্যেই ম্যাচের টিভি এবং অন্যান্য বানিজ্যিক সত্ত্ব বিক্রি হয়ে গিয়েছে। অনলাইন টিকিট বিক্রি নিয়েও তৈরি হয়েছে অনিশ্চয়তা। ম্যাচ না খেললে পয়েন্ট কাটা যেতে পারে কোহলিদের। পাশাপাশি আইসিসি’র শাস্তির মুখেও পড়তে পারে ভারত। দিল্লি-ইসলামাবাদ সম্পর্কের তিক্ততায় দীর্ঘদিন ধরেই দ্বিপাক্ষিক ক্রিকেট বন্ধ। তবে বিশ্বকাপ বা এশিয়া কাপের মত বহুদেশীয় টুর্নামেন্টে ইন্দো-পাক ম্যাচ হয়েছে। পুলওয়ামা কাণ্ডের পর প্রবল চাপে বোর্ড। দাবি উঠছে পাকিস্তান সুপার লিগে খেলা তারকা ক্রিকেটারদের আসন্ন আইপিএলে খেলার অনুমতি না দেওয়ার। ঘরে-বাইরে চাপের মুখে আপাতত ধীরে চলো নীতিতে বিশ্বাসী বোর্ড।

ইতিমধ্যেই মুম্বইয়ে বোর্ডের সদর দফতরে ঢেকে দেওয়া হয়েছে ইমরান খানের বিশ্বকাপ জয়ের ছবি। একইসঙ্গে সিসিআই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ছবিটি সরিয়ে নেওয়ার। বোর্ডের কার্যনির্বাহী প্রেসিডেন্ট সি কে খান্না জানিয়েছেন, শহfদ জওয়ানদের পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বোর্ড। বিনোদ রাইদের নিরপেক্ষ প্রশাসক প্যানেলের মাধ্যমে সিআরপিএফের তহবিলে ৫ কোটি টাকা অনুদান দিচ্ছে বোর্ড। পাশাপাশি ইরানি কাপ জিতে পুরস্কারমূল্যের পুরো অর্থই ওই তহবিলে দান করেছে বিদর্ভ ক্রিকেট সংস্থা। ঘটনার নিন্দায় সরব হয়ে বহু ক্রিকেটারই আর্থিক সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন শহিদ জওয়ানদের পরিবারের উদ্দেশ্যে।

First published: 09:40:27 PM Feb 18, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर