Home /News /south-bengal /

Howrah: স্ত্রীর সঙ্গে বিবাদ, হাওড়ায় রাস্তায় দাঁড়িয়ে নিজের গলা কাটলেন স্বামী, রক্ত দিয়ে লিখলেন দেওয়ালে

Howrah: স্ত্রীর সঙ্গে বিবাদ, হাওড়ায় রাস্তায় দাঁড়িয়ে নিজের গলা কাটলেন স্বামী, রক্ত দিয়ে লিখলেন দেওয়ালে

প্রতীকী ছবি৷

প্রতীকী ছবি৷

ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ক্ষরিত রক্ত দিয়ে আত্মঘাতী কারণ লিখে, স্ত্রীকে ফোন করে লুটিয়ে পড়লেন রাস্তায় | 

  • Share this:

#হাওড়া: স্ত্রীর সঙ্গে বিবাদের জেরে রাস্তায় দাঁড়িয়ে নিজের গলা কেটে আত্মহত্যার (Suicide) চেষ্টা করলেন এক যুবক৷ সেই রক্ত দিয়ে  কারণ দেওয়ালে চরম সিদ্ধান্ত নেওয়ার কারণ দেওয়ালে লিখলেন অভিমানী স্বামী৷ নিজের রক্ত দিয়ে অভিমানের কারণ লিখতে লিখতেই রাস্তায় লুটিয়ে পড়লেন বছর ৩৭-এর যুবক৷

এমন কি, এই কাণ্ড ঘটানোর আগে স্ত্রীকে ফোন করে নিজেই চরম সিদ্ধান্তের কথাও জানিয়েছিলেন পেশায় টোটোচালক ওই ব্যক্তি৷ এমনই চাঞ্চল্যকর ঘটনার সাক্ষী থাকল হাওড়ার (Howrah) বেলুড়ের অগ্রসেন রোডের বাসিন্দারা৷ বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তিনি৷

আরও পড়ুন: পাঁচ বছরের মেয়েকে ঘুম পাড়িয়ে স্ত্রীকে খুন! পালানোর আগেই হাওড়ায় পুলিশের জালে স্বামী

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে খবর, পেশায় টোটোচালক ওই যুবক নিশ্চিন্দার নবোদয় পল্লির বাসিন্দা৷ রক্তাক্ত অবস্থায় রাস্তায় উপরে তাঁকে পড়ে থাকতে দেখে যুবকের কাছে থাকা মোবাইল থেকে তাঁর স্ত্রীকে ফোন করেন স্থানীয়রা ৷ ইতিমধ্যেই স্বামীর ফোন পেয়ে খোজাখুঁজি শুরু করেছিলেন স্ত্রীও ৷ স্থানীয়দের থেকে অবস্থান জানতে পেরে নিজেই এসে স্বামীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যান স্ত্রী৷

আরও পড়ুন: পায়েস খাওয়ানোর পর কোদাল দিয়ে স্ত্রী ও সন্তানদের কুপিয়ে খুন! ১১ পাতার সুইসাইড নোট লিখে আত্মহত্যা যুবকের

ওই যুবকের কাছ থেকে একটি ছোট ধারালো অস্ত্রও উদ্ধার হয়৷ তাঁর স্ত্রীর দাবি, এ দিন টোটো নিয়ে বাড়ি থেকে বেরোনোর সময়, সাংসারিক বিষয় ঝগড়া হয়েছিল দু' জনের মধ্যে৷ তারপর থেকে বেশ কয়েকবার ফোন করলেও স্বামী ফোন ধরেননি ৷ এর পরেই স্থানীয়দের থেকে ফোন পান তিনি৷

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, বিপদ কেটে গেলেও ওই যুবকের গলায় ক্ষত রয়েছে| সন্ধ্যাবেলায় কীভাবে প্রকাশ্যে একজন ধারালো অস্ত্র দিয়ে নিজের গলা কাটলেন, কেন কেউ ওই যুবককে বাধাও দিল না তা নিয়ে প্রশ্ন  উঠছে{ স্থানীয়দের দাবি, বেলুড়ের অগ্র সেন স্ট্রিট দিয়ে সন্ধ্যার পর সেরকম কেউ যাতায়াত করেন না৷ এলাকায় একটি কারখানা এবং স্কুলও আছে৷ সেই কারণেই সন্ধ্যার পর থেকেই এলাকাটি ফাঁকা হয়ে যায় ৷ তার উপরে রবিবার ছিল ছুটির দিন৷ সেই সুযোগ নিয়েই এই ঘটনা ঘটান ওই যুবক৷ ঘটনায় স্বতঃপ্রণোদিত মামলা দায়ের করেছে পুলিশ৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published:

Tags: Howrah, Suicide

পরবর্তী খবর