Home /News /south-bengal /
Bardhaman News: শ্বশুরবাড়িতে আগুন ধরিয়ে নিজেকেও জ্বালিয়ে দিল জামাই! কাটোয়ায় এ কী হাড়হিম ঘটনা

Bardhaman News: শ্বশুরবাড়িতে আগুন ধরিয়ে নিজেকেও জ্বালিয়ে দিল জামাই! কাটোয়ায় এ কী হাড়হিম ঘটনা

প্রতীকী চিত্র

প্রতীকী চিত্র

Bardhaman News: খুনের চেষ্টা সহ নানান দুষ্কর্মে অভিযুক্ত জামাই তন্ময় রায় (৩৮) পুলিশের ভয়ে বছর পাঁচেক ধরে দক্ষিণভারতের কেরলে গা ঢাকা দিয়েছিল।

  • Share this:

    #কলকাতা: শ্বশুর বাড়িতে আগুন ধরিয়ে নিজের গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা জামাইয়ের। আগ্নিদগ্ধ জামাই তন্ময় রায়ের গভীর রাতে কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালে মৃত্যু হয়। স্ত্রী-পুত্রকে প্রাণে মারতেই ফেরার জামাই তালা ভেঙে বাড়িতে ঢুকেছিল বলে দাবি পরিবারের। স্ত্রী মৌসুমি রায়কে মেরে ফেলার হুমকিও দিয়েছিল। কাটোয়ার পুর এলাকার জেলে পাড়ার এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

    খুনের চেষ্টা সহ নানান দুষ্কর্মে অভিযুক্ত জামাই তন্ময় রায় (৩৮) পুলিশের ভয়ে বছর পাঁচেক ধরে দক্ষিণভারতের কেরলে গা ঢাকা দিয়েছিল। মঙ্গলবার রাতে পেট্রল নিয়ে বাড়ির তালা ভেঙে পাঁচিল টপকে বাড়িতে শ্বশুর বাড়িতে ঢুকেছিল বলে স্ত্রী মৌসুমি রায়ের দাবি। স্ত্রী ও দশ বছরের ছেলেকে প্রাণে মারার জন্যই নাকি তন্ময় শ্বশুর বাড়িতে এসেছিল, এমনই জানিয়েছেন স্ত্রী। ছেলেকে বাঁচাতে আতঙ্কিত মৌসুমি কোন রকমে বুধবার বিকালে কাটোয়া থানায় গিয়ে স্বামী তন্ময়ের ব্যাপারে সবিস্তারে জানায়। পুলিশকে সঙ্গে করে মৌসুমি জেলে পাড়ায় এসে দেখে বাড়িতে আগুন লেগেছে।

    আরও পড়ুন: স্ত্রীকে পুড়িয়ে মেরেছিল স্বামী, এবার ফল মিলল হাতেনাতে! উচিৎ শিক্ষা...

    প্রতিবেশীদের ফোনে দমকলের কর্মীরা ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। গুরুতর জখম অবস্থায় তন্ময় রায়কে কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালে ভরতি করা হয়। বাড়ির প্রায় সব কিছু পুড়ে গিয়েছে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করে। গভীর রাতে তন্ময় রায়ের মৃত্যু হয়। পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, বছর পাঁচেক আগে তন্ময় রায় খুনের চেষ্টায় কাটোয়ার এক যুবককে লক্ষ্য করে গুলি চালিয়েছিল। সেই ঘটনার পর থেকে তন্ময় এলাকাছাড়া হয়।

    আরও পড়ুন: রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের কারণেই মহারাষ্ট্রে নতুন ছক? উদ্ধবের পাশে দাঁড়িয়ে BJP-কে তুমুল আক্রমণ মমতার

    কিছুদিনের মধ্যেই তন্ময়ের বাবা-মা আত্মহত্যা করেন। দীর্ঘ পাঁচ বছর তন্ময় রায় কেরলে গ্যারাজে শ্রমিকের কাজ করছিল। সম্প্রতি কেরলে কর্মস্থলে চুরির দায়ে অভিযুক্ত হয়ে কাটোয়া ফিরে এসেছিল বলে পরিবার সূত্রে জানা যায়। তন্ময়ের স্ত্রী মৌসুমি বলেন, ''পেট্রল নিয়ে তালা ভেঙে পাঁচিল টপকে বাড়িতে ঢুকেছিল আমাকে আর ছেলেকে প্রাণে মারতে। ছেলেকে বন্দি করে আমাকে ব্ল্যাকমেল করবার চেষ্টা করছিল। আমি ভয়ে পুলিশের কাছে গিয়ে সব বলি। থানা থেকে এসে দেখি বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দিয়েছে।''

    Published by:Suman Biswas
    First published:

    Tags: Bangla News, West Bengal news

    পরবর্তী খবর