হোম /খবর /দক্ষিণবঙ্গ /
'একই বাড়িতে গরু থাকে, মানুষও থাকে,' অভিষেককে সামনে পেয়ে বললেন গ্রামবাসীরা

'একই বাড়িতে গরু থাকে, মানুষও থাকে,' অভিষেককে সামনে পেয়ে বললেন গ্রামবাসীরা

অভিষেককে সামনে পেয়ে বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন গ্রামবাসীরা। তাঁদের সঙ্গে কথা বলার পাশাপাশি গ্রামবাসীদের বাড়িও এদিন ঘুরে দেখেন অভিষেক।

  • Share this:

#কাঁথি: কাঁথিতে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সভার দিকে নজর রয়েছে সকলের। এদিন কাঁথির সভায় যোগ দেওয়ার আগে আশেপাশের বেশ কয়েকটি গ্রামে যান অভিষেক। সেখানে গিয়ে গ্রামবাসীদের সমস্যার কথা শোনেন তিনি। অভিষেককে সামনে পেয়ে বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন গ্রামবাসীরা। তাঁদের সঙ্গে কথা বলার পাশাপাশি গ্রামবাসীদের বাড়িও এদিন ঘুরে দেখেন অভিষেক।

অভিষেককে সামনে পেয়ে এক গ্রামবাসী বলেন, "পঞ্চায়েতের লোক আসেন না। আমফান ঝড়ের পরেও আসেনি। আপনি এসেছেন ধন্যবাদ। অন্য লোকের নামে ঘর বরাদ্দ হয়েছে, পঞ্চায়েত জানানোর পরেও। অঞ্চলে বারবার কাগজ দিয়েছি। তারপরেও কাজ করে না।" আরেক গ্রামবাসী বলেন, "শুনেছিলাম ২০ হাজার টাকা আমফানের পরে দেওয়া হবে। কিন্তু আমাদের কাউকে ৩ হাজার টাকা, আবার কাউকে ৫ হাজার টাকা দেওয়া হয়েছে। এর বেশি টাকা দেওয়া হয়নি। মাত্র এই কটা টাকায় কী করে ঘর ঠিক হবে।"

তখন এক মহিলা গ্রামবাসী বলেন, "দেখুন আমাদের বাড়িটা। একই বাড়িতে গরু থাকে, মানুষও থাকে। ছোট্ট বাড়ি। লোন দিয়ে ঘর করেছি আমরা। এখন আর করতে পারছি না। আমাদের রাস্তা নেই। জল নিকাশী কিছুই নেই।" অভিষেক বলেন, "খাবার জল কোথা থেকে পান?" গ্রামবাসীরা জানান, "এক ঘন্টা দিনে জল পাই। তারপর জল আসে না। এখানে সাবমার্শাল আছে। তাও জল আসে না।" আরেকজন বলেন, "এখানে টিউবওয়েল নেই। জল খাওয়া যায় না।"

গ্রামবাসী বলেন, "গ্রাম সদস্য এসেছিলেন। আমরা তাঁদের বলেছিলাম। তার পরেও কোনও সুযোগ সুবিধা পাইনি। আমরা থাকব কোথায়? স্যার কোন হেল্প পাইনি৷ কাকে ভোট দেব তাহলে?" অভিষেক বলেন, "ভোট পরে। এগুলো আপনাদের অধিকার।" অভিষেক আরও বলেন, "আপনি আপনাদের যোগাযোগ নম্বর দিন। আমার প্রতিনিধি দল আসবে। আচ্ছা বাচ্চাদের পড়াশোনার অসুবিধা হচ্ছে না তো?" ভিড়ের মধ্যে থেকে একজন গ্রামবাসী বলেন, "স্যার বাচ্চাদের মানুষ করব, নাকি পেট ভরাব?"

আরও পড়ুন, 'তিন সেকেন্ড লাগবে, আমিও রাস্তায় কাঠের গুড়ি ফেলতে পারি!' হুঁশিয়ারি শুভেন্দুর

অভিষেক বলেন, "আমি আবার আসব এখানে। এখানে শুভেন্দুবাবু যখন দায়িত্ব ছিলেন। কী করেছেন?" গ্রামবাসীরা বলেন, "এদিকে কোনও দিন আসেন নি। তাঁদের মুখ দেখিনি৷ ছবি দেখেছি।"

আরও পড়ুন, কাঁথিতে অভিষেকের সভা শুরু আগেই ভাঙন বিজেপিতে, তৃণমূলে যোগ নন্দীগ্রামের নেতার

অভিষেক বলেন, "আপনারা বিশ্রাম করুন। এই বাড়িতে বাচ্চাকে রাখবেন না। ভেঙে পড়ার ভয় আছে। আমি সমস্যার সমাধান করব। আমি নিজের চোখে দেখে গেলাম। আমাকে নিজে জানাবেন। আমি আবার নিজে একদিন চলে আসব।"

Published by:Suvam Mukherjee
First published:

Tags: Abhishek Banerjee, BJP, Nandigram, TMC, তৃণমূল, বিজেপি