Home /News /purba-bardhaman /
Purba Bardhaman: বৃষ্টির কামনায় শিবের মাথায় জল ঢাললেন জেলা পরিষদের সভাধিপতি!

Purba Bardhaman: বৃষ্টির কামনায় শিবের মাথায় জল ঢাললেন জেলা পরিষদের সভাধিপতি!

title=

বর্ধমান শহরের আলমগঞ্জ বর্ধমানেশ্বর মোটা শিবের মাথায় জল ঢাললেন পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাধিপতি সম্পা ধাড়া ও শিশু-নারী কর্মাধ্যক্ষ মিঠু মাঝি।

  • Share this:

    #পূর্ব বর্ধমান : বর্ধমান শহরের আলমগঞ্জ বর্ধমানেশ্বর মোটা শিবের মাথায় জল ঢাললেন পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাধিপতি সম্পা ধাড়া ও শিশু-নারী কর্মাধ্যক্ষ মিঠু মাঝি। একদিকে যেমন নিজের জন্য পুজো দিলেন, পাশাপাশি জনসাধারণের জন্য পুজো দিতে দেখা গেল তাঁদের। বিশেষ করে চাষিদের জন্য। চাষিরা জল না পেয়ে সমস্যার মধ্যে পড়েছেন সে কথাকে মাথায় রেখেই যাতে বৃষ্টি হয় এবং চাষিদের জলের সমস্যা মেটে, যাতে ভালো ফসল হয় তার জন্যই পুজো দিলেন বলে জানালেন। শিবলিঙ্গের সামনেই কিছুটা দূরত্বে নন্দীর মূর্তি রয়েছে মন্দিরে। শিবের পুজো করে অনেকেই নন্দীর কানে নিজের মনস্কামনা বলেন। মনে করা হয়, নন্দীর কানে নিজের মনস্কামনা বললে তা সরাসরি শুনতে পান মহাদেব এবং ওই ব্যক্তির সমস্ত ইচ্ছে পূরণ করেন মহাদেব। আর তাই এদিন নন্দীর কানে কানে মনস্কামনা জানালেন জেলা পরিষদের সভাধিপতি ও কর্মাধ্যক্ষ।

    দুজনেই বৃষ্টির প্রার্থনা করে মানত করলেন এদিন। দুজনেই জানান , যদি বেশি পরিমাণে বৃষ্টি হয়, চাষীদের মুখে ফের হাসি ফোটে তাহলে আবার এসে পুজো দিয়ে যাবেন। এদিন কার্যত গাড়ি থেকে নেমেই জেলা পরিষদের সভাধিপতি সম্পা ধাড়া শিশু-নারী কর্মাধ্যক্ষ মিঠু মাঝি আমজনতার সঙ্গে পায়ে পা মিলিয়েই মন্দিরে প্রবেশ করেন।

    আরও পড়ুনঃ বজ্রপাতে মৃত কৃষক! আহত ১১

    দুজনের হাতেই ছিল ফুল, ফল, মালা সহ ডালা ও বাবার মাথায় ঢালার জন্য দুধ ও গঙ্গা জল। কোনরকম আলাদা ভাবে নয় সকলের সঙ্গেই মহাদেবের মাথায় জল ঢাললেন তাঁরা। পুজো দেওয়ার পরই নন্দীর কানে কানে নিজেদের মনস্কামনা জানাতে দেখা যায় তাঁদের।

    আরও পড়ুনঃ করোনা থেকে রেহাই পেতে শুধু ওষুধ নয়, পরিবেশকে বাঁচাতে বলছেন বিশেষজ্ঞরা 

    উল্লেখ্য, চলছে শ্রাবণ মাস, মহাদেবের পুজো দিচ্ছেন সকলেই। ভক্তরা ভিড় করছেন বর্ধমানের আলমগঞ্জ বর্ধমানেশ্বর মোটা শিবের মন্দিরে। এদিনও ভিড় ছিল চোখে পড়ার মতো।

    Malobika Biswas
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Purba bardhaman

    পরবর্তী খবর