Home /News /purba-bardhaman /
Purba Bardhaman: মাধ্যমিকে পঞ্চম স্থানে বর্ধমানের সামিয়া

Purba Bardhaman: মাধ্যমিকে পঞ্চম স্থানে বর্ধমানের সামিয়া

title=

প্রতি বছরের মতো এবছরও মাধ্যমিকে প্রথম দশের মধ্যে বর্ধমান জায়গা করে নিয়েছে। শুক্রবার সকাল ন'টায় মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় বন্দ্যোপাধ্যায় আনুষ্ঠানিক ভাবে ফল প্রকাশ করেন।

  • Share this:

    পূর্ব বর্ধমান: প্রতি বছরের মতো এবছরও মাধ্যমিকে প্রথম দশের মধ্যে বর্ধমান জায়গা করে নিয়েছে। শুক্রবার সকাল ন'টায় মধ্যশিক্ষা পর্ষদের (West Bengal Board of Secondary Education) সভাপতি কল্যাণময় বন্দ্যোপাধ্যায় আনুষ্ঠানিক ভাবে ফল প্রকাশ করেন। এ বছর পাশের হার ৮৬.০৬ শতাংশ। সর্বোচ্চ নম্বর ৬৯৩। সর্বোচ্চ নম্বর পেয়েছে দু'জন। তার মধ্যে রয়েছে বর্ধমানের রৌণক মণ্ডল। শুধু প্রথম নয় দশের মধ্যে নাম রয়েছে বর্ধমানের আরও কয়েকজনের। এদের মধ্যে পঞ্চম স্থানে রয়েছে বর্ধমানের বিদ্যার্থী ভবন গার্লস হাই স্কুলের ছাত্রী সামিয়া ইয়াসমিন। সামিয়ার বাড়ি বর্ধমানের বড়বাজারে। এদিন ফল প্রকাশ হতেই আনন্দে আত্মহারা হয়ে যায় সামিয়া। এরপর সামিয়া স্কুলে যেতেই সহপাঠী থেকে শুরু করে স্কুলের শিক্ষিকারা আনন্দে মেতে ওঠেন।

    ফুলের স্তবক দিয়ে তাঁকে সংবর্ধনা জানানো হয়। সামিয়ার প্রাপ্ত নম্বর ৬৮৯। এই রেজাল্টে খুশি স্কুলের শিক্ষিকা থেকে শুরু করে তার সহপাঠীরা। যদিও সামিয়া যে ভালো ফল করবেই তা নিয়ে আশাবাদী ছিলেন স্কুলের শিক্ষিকারা। ছোটো থেকেই সামিয়া পড়াশোনায় ভালো।

    আরও পড়ুনঃ মাধ্যমিকে প্রথম রৌনকের স্বপ্ন ডাক্তার হওয়া

    প্রতিটি পরীক্ষায় স্ট্যান্ড করে সামিয়া এমনটাই বলছেন সামিয়ার পরিবারের সদস্যরা। সামিয়ার বাবা পেশায় ব্যবসায়ী মা গৃহবধূ। বাবার আদরের মেয়ে সামিয়া। ফলে মেয়ের উপর পড়াশোনার ভার চাপিয়ে দিতেন না তার বাবা।

    আরও পড়ুনঃ বেহাল রাস্তা মেরামতের দাবিতে বিক্ষোভ

    সামিয়া জানায়, \"১২ থেকে ১৩ ঘণ্টা পড়াশোনা করত সে। তবে শুধু পড়াশোনাই নয়, পাশাপাশি খেলাধুলা ও বই পড়া এই সবেতে আগ্রহ রয়েছে তার। ব্যাডমিন্টন খেলতে ভালবাসে সে। সাত জন শিক্ষকের কাছে পড়ত সামিয়া। বড় হয়ে ডাক্তার হতে চায় সে।

    Malobika Biswas
    First published:

    Tags: Bardhaman, Madhyamik Exam Results 2022, Purba bardhaman

    পরবর্তী খবর