Home /News /north-bengal /
Siliguri: দু' জনেরই ফিরে আসার লড়াই, শিলিগুড়িতে সব নজরে অশোক- গৌতম

Siliguri: দু' জনেরই ফিরে আসার লড়াই, শিলিগুড়িতে সব নজরে অশোক- গৌতম

ভোটের সকালে মন্দিরে পুজো গৌতম দেবের৷ মোবাইলে চোখ অশোকের৷

ভোটের সকালে মন্দিরে পুজো গৌতম দেবের৷ মোবাইলে চোখ অশোকের৷

শিলিগুড়ি পুরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ড থেকে সিপিএম প্রার্থী অশোক ভট্টাচার্য৷ ৩৩ নম্বর ওয়ার্ড থেকে প্রার্থী হয়েছেন তৃণমূলের গৌতম দেব৷

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: দু' জনেই বিধানসভা নির্বাচনে হারের মুখ দেখেছেন৷ শিলিগুড়ি পুরনিগমের নির্বাচন তাই অশোক ভট্টাচার্য (Ashok Bhattacharya)এবং গৌতম দেব (Gautam Deb)- দু' জনের কাছেই ফিরে আসার লড়াই৷ শিলিগুড়িতে পুরনির্বাচনে তাই সব নজর কেড়ে নিয়েছেন দুই শিবিরের দুই কাণ্ডারি (West Bengal Municipal Elections 2022)৷

গত এক দশকের বেশি সময় ধরে শিলিগুড়িতে তৃণমূলের মুখ হয়ে উঠেছিলেন গৌতম দেব৷ ২০১১ সালে বিধানসভা নির্বাচনে জয়ের পর থেকেই উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দফতর, পর্যটন দফতরের মতো গুরুত্বপূর্ণ দফতরের মন্ত্রীর দায়িত্ব সামলেছেন৷ কিন্তু ২০২২ সালের বিধানসভা নির্বাচনে গোটা রাজ্যে তৃণমূল বিপুল জয় পেলেও শিলিগুড়িতে পরাজিত হন গৌতম দেব৷

আরও পড়ুন: বিরোধীদের ভরসা শিলিগুড়ি, আসানসোল! চার পুরনিগমে শুরু হয়ে গেল ভোটগ্রহণ

এবার শিলিগুড়ির ৩৩ নম্বর ওয়ার্ড থেকে তাঁকে পুরসভা নির্বাচনে প্রার্থী করেছে দল৷ শিলিগুড়ি পুরসভার প্রশাসক পদেও তাঁকেই বসানো হয়েছিল৷ তৃণমূল শিলিগুড়ি পুরনিগম দখল করতে পারলে সম্ভাব্য মেয়র পদপ্রার্থী হিসেবেও এগিয়ে রাজ্যের এই প্রাক্তন মন্ত্রী৷

অন্যদিকে ২০১৫ সালের পুরভোটে গোটা রাজ্যে তৃণমূলের দাপটের মধ্যেও ব্যতিক্রম হিসেবে শিলিগুড়িতে লাল পতাকা উড়িয়েছিলেন অশোক ভট্টাচার্য৷ কংগ্রেসের সমর্থনে শিলিগুিড় পুরনিগম দখল করেছিল বামেরা৷ নানা ঝড় ঝাপ্টা সামলে পাঁচ বছর দুর্গ ধরেও রাখেন অশোক৷

আরও পড়ুন: সারদা-নারদ মামলায় সিবিআই-ইডির মুকুল রায়কে গ্রেফতার করা উচিত, বিস্ফোরক ট্যুইট কুণালের

কিন্তু ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে হারের মুখ দেখতে হয় তাঁকেও৷ হতাশা থেকেই অশোক বলেছিলেন, আর নির্বাচনে লড়বেন না৷ কিন্তু দলের দুঃসময়ে সেই সিদ্ধান্তে অনড় থাকতে পারেননি প্রবীণ নেতা৷ এবারেও শিলিগুড়িতে বামেদের মুখ রাজ্যের প্রাক্তন পুর ও নগরোন্নয়ন মন্ত্রীই৷ শিলিগুড়ি পুরসভায় তাঁর পুরনো ৬ নম্বর ওয়ার্ড থেকেই এবারেও তাঁকে প্রার্থী করেছে দল৷

অশোক ভট্টাচার্য নিজেও বলছেন, 'গোটা রাজ্যে ২০২১ সালের বিধানসভার নির্বাচনে গোটা রাজ্যে আমাদের যে বিপর্যয় ঘটেছে, তাতে নিঃসন্দেহে এটা আমাদের কাছে ঘুরে দাঁড়ানোর লড়াই৷ কারণ ২০২৫ সালে শিলিগুড়ি দখলে রাখতে পেরেছিলাম আমরা৷'

শিলিগুড়িতে শেষ পর্যন্ত পরিবর্তন ঘটানোর বিষয়ে আত্মবিশ্বাসী গৌতম দেবও৷ ভোটের দিন সকালে প্রথমে স্থানীয় মন্দিরে পুজো দিয়েছেন তৃণমূল প্রার্থী৷ গৌতমেরও দাবি, উৎসবেরই মেজাজেই শিলিগুড়িতে ভোট হবে৷ হার নিশ্চিত জেনেই বিরোধীরা নানা অভিযোগ করছে বলেও দাবি করেছেন তৃণমূল নেতা৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published:

Tags: Ashok bhattacharya, Gautam deb, Siliguri, West Bengal Municipal Elections 2022

পরবর্তী খবর