• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • ‘২০১৪ সালে মোদিকে প্রধানমন্ত্রী করা ভুল ছিল, এবার মমতাকে প্রধানমন্ত্রী পদে দেখতে চাই’: যশবন্ত সিনহা

‘২০১৪ সালে মোদিকে প্রধানমন্ত্রী করা ভুল ছিল, এবার মমতাকে প্রধানমন্ত্রী পদে দেখতে চাই’: যশবন্ত সিনহা

২০১৯ সালে সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি আর চাই না ৷

২০১৯ সালে সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি আর চাই না ৷

২০১৯ সালে সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি আর চাই না ৷

  • Share this:

    #আসানসোল: গত লোকসভা নির্বাচনে সবথেকে বড় ভুল ছিল মোদিকে প্রধানমন্ত্রী ভাবা ৷ ২০১৯ সালে সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি আর চাই না ৷ এবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেই প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চান বিজেপির একদা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও নেতা যশবন্ত সিনহা ৷ মঙ্গলবার আসানসোলে তৃণমূল প্রার্থীর সমর্থনে প্রচারে এসে এমনই কিছু মন্তব্য করেন যশবন্ত সিনহা ৷

    ২০১৯ -এ তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চান প্রাক্তন বিজেপি নেতা ও প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী যশবন্ত সিনহা ৷ এদিন তৃণমূলের প্রচারে এসে তিনি বলেন, ২০১৪ সালে নির্বাচন জিততে মোদিকে সামনে রেখে লড়াই করার কথা বলাটা আমার ভুল ছিল । আমি জানতাম না প্রধানমন্ত্রী হবার পর মোদি সেই কাজটাই করবেন যেটা তিনি গুজরাতে করেছিলেন, প্রজাতন্ত্রের গলা টিপে ধরা । আজকে আমি মমতা ব্যানার্জিকেই প্রধানমন্ত্রী রূপে দেখতে চাই ৷’

    একইসঙ্গে এতদিন ধরে বিজেপির হয়ে কাজ করার পরও দল ছেড়ে আসার পিছনে কী কারণ ছিল জানালেন যশবন্ত সিনহা ৷ ‘দলে স্বেচ্ছাচারিতা এত বেড়ে গেছিল যে বিজেপি থেকে বেরিয়ে যাওয়া ছাড়া আর কোন উপায় ছিল না। আজ প্রজাতন্ত্র বাঁচানোর লড়াই। ভুল করেও যদি এই সরকার ফিরে আসে তাহলে আগামি পাঁচ বছরে প্রজাতন্ত্র পুরোপুরি শেষ হয়ে যাবে,আশঙ্কা প্রকাশ যশবন্ত সিনহার ৷’

    বিস্ফোরক মন্তব্য যশবন্ত সিনহার ৷ নোটবন্দি আসলে মোদি ও অমিত শাহের মস্তিষ্কপ্রসূত এবং একটি বড় ষড়যন্ত্র ছিল বলে অভিযোগ আনেন এই প্রাক্তন বিজেপি নেতা এবং প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ৷ শুধু তাই নয় তিনি অভিযোগ করেছেন জনগণকে ধোঁকা দিয়েছেন শাহ ও মোদি জুটি ৷ সবমিলিয়ে নির্বাচনের মধ্যে প্রাক্তন দলের বিরুদ্ধে যশবন্ত সিনহার মুখে এমন বিস্ফোরক মন্তব্যে ফের উত্তেজনা রাজ্য থেকে জাতীয় রাজনীতিতে ৷

    First published: