Home /News /national /
Susmita Deb: 'মমতাই একমাত্র মুখ, বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই চলবে', রাজ্যসভার সাংসদ হয়ে বার্তা সুস্মিতা দেবের...

Susmita Deb: 'মমতাই একমাত্র মুখ, বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই চলবে', রাজ্যসভার সাংসদ হয়ে বার্তা সুস্মিতা দেবের...

রাজ্যসভায় নির্বাচিত সুস্মিতা দেব

রাজ্যসভায় নির্বাচিত সুস্মিতা দেব

Susmita Deb: "আমার লক্ষ্য অসম, ত্রিপুরা আর বাংলার কথা বলা।" বললেন রাজ্যসভার সদ্য নির্বাচিত বাংলার সাংসদ সুস্মিতা দেব।

  • Share this:

#কলকাতা: বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদ (Rajyasabha MP) হয়ে গেলেন সুস্মিতা দেব। তৃণমূলের (Trinamool Congress) টিকিটে বাংলা থেকে রাজ্যসভার সাংসদ হলেন সুস্মিতা দেব (Sushmita Dev)। তাঁর বিরুদ্ধে কোনও প্রার্থী দেয়নি বিজেপি। স্বাভাবিকভাবেই বিনা বিরোধিতায় সহজ জয় পেলেন সুস্মিতা দেব।

সোমবার রাজ্যসভার সাংসদ (Rajyasabha MP) হিসেবে শংসাপত্র গ্রহণ করার পরেই বিধানসভায় দাঁড়িয়ে সুস্মিতা জানালেন, “সংসদে বিজেপির বিরোধিতা আরও জোরদার হবে। অসম, ত্রিপুরা-বাংলা-সহ গোটা উত্তর-পূর্ব ভারতের পরিস্থিতির কথা তুলে ধরব।”

আরও পড়ুন: মমতার প্রশংসা করে ইস্তফা লুইজিনহোর, তালিকায় গোয়ার আরও অনেক নাম, দাবি তৃণমূলের

এদিন সাংসদ (Rajyasabha MP) নির্বাচিত হয়ে সুস্মিতা দেব (Susmita Deb) বলেন, "বাংলার বিধানসভায় অসমের মেয়ে হয়ে আমি নির্বাচিত হলাম। দীর্ঘদিন ধরে ওখানে রাজনীতি করছি। আমার ভালো লাগছে বাংলার হয়ে সাংসদ নির্বাচিত হয়ে। দল যা যা করতে বলবে, তা করব। তবে আমার লক্ষ্য অসম, ত্রিপুরা আর বাংলার কথা বলা। এছাড়া কৃষক, শ্রমজীবী মানুষের কথাই বলতে চাই আমি।"

রাজ্যসভার সাংসদ (Rajyasabha TMC MP) নির্বাচিত হয়েই এদিন অসমের মুখ্যমন্ত্রী (Assam CM) বিপ্লব দেবকে (Biplab Deb) কড়া সমালোচনা করেন সুস্মিতা (Susmita Deb)। বিপ্লব দেবের সাম্প্রতিক মন্তব্যের তীব্র কটাক্ষ করে সুস্মিতা দেব এদিন বলেন, একজন মুখ্যমন্ত্রী যে ধরণের কথা বলছেন তা অত্যন্ত খারাপ শুধু নয়, অশ্লীল। আমরা ইতিমধ্যেই এটা নিয়ে আদালতে যাওয়ার কথা ভাবছি। আজই এই নিয়ে দলে আলোচনা হবে।"

অন্যদিকে গোয়ার (Goa) প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী এবং প্রবীণ কংগ্রেস নেতা লুইজিনহো ফেলেইরোর তৃণমূলে যোগদানের জল্পনা প্রসঙ্গে সুস্মিতা (Susmita Deb) বলেন, "উনি গোয়ার দীর্ঘদিনের রাজনীতির সাথে যুক্ত। সবাই বুঝতে পারছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Mamata Banerjee) একমাত্র মুখ যিনি বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই করতে পারবেন। কংগ্রেসের আজকে এই অবস্থা কেন তা আলোচনার বিষয়। তবে মানুষ বিকল্প শক্তি হিসাবে ভরসা রাখছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ওপরেই।"

আরও পড়ুন: কানহাইয়া-জিগনেশের যোগদান কালই! বোমা ফাটাতে তৈরি কংগ্রেস, কতটা লাভ জোড়া ঘুঁটিতে

উল্লেখ্য, জুলাই মাসের শেষের দিকে তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) হাত ধরে তৃণমূলে যোগ দেন সুস্মিতা দেব। তাঁকে ত্রিপুরায় সংগঠন বিস্তারের দায়িত্ব দিয়েছে ঘাসফুল শিবির। এবার তাঁকে সাংসদ করে রাজ্যসভায় পাঠালেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়  (CM Mamata Banerjee) ।

এদিন বিধানসভার স্পিকারের হাত থেকে জয়ের শংসাপত্র নেওয়ার পরই বিজেপির বিরুদ্ধে তীব্র আক্রমণ শানান সুস্মিতা। তাঁর কথায়, “মোদি সরকার সংসদে বিরোধীদের গুরুত্ব দেয় না। সংসদের রীতিনীতি মানে না। কোনও বিল স্ট্যান্ডিং কমিটিতে যায় না, বিতর্ক করতে দেওয়া হয় না। তাদের এ ধরনের আচরণ প্রতিবাদ করব। রাজ্যসভায় তৃণমূলের অন্যান্য সাংসদদের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে লড়ব।”

Published by:Sanjukta Sarkar
First published:

Tags: Assam, Rajyasabha, TMC MP

পরবর্তী খবর