JNU: আহত ঐশীর বিরুদ্ধে এফআইআর দিল্লি পুলিশের, সার্ভার রুম ভাঙচুরের অভিযোগ

JNU: আহত ঐশীর বিরুদ্ধে এফআইআর দিল্লি পুলিশের, সার্ভার রুম ভাঙচুরের অভিযোগ
আহত ঐশী ঘোষ

ঐশী -সহ ১৯ জন পড়ুয়াদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের দিল্লি পুলিশের

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: রবিবার সন্ধেয় দলবেঁধে জেএনইউয়ের তিনটি গার্লস হস্টেলে ঢুকে তাণ্ডব চালায় দুষ্কৃতীরা। মাথা ফেটেছে ছাত্র সংসদের সভাপতি ঐশী ঘোষের। এবার সেই ঐশী -সহ ১৯ জন পড়ুয়াদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের দিল্লি পুলিশের। JNU-তে ৪ জানুয়ারি সার্ভার রুম ভাঙচুর ও নিরাপত্তারক্ষীদের উপর হামলার অভিযোগ। নষ্ট করেছে ক্যাম্পাসের সম্পত্তি। JNU-তে তাণ্ডবে পাল্টা দিল্লি পুলিশের বিরুদ্ধে নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগে মামলা। স্বতঃপ্রণোদিত তদন্তের আবেদন।

জেনইউ-এ পড়তে যাওয়ার পরেই রাজনীতিতে হাতেখড়ি দুর্গাপুরের মেয়ের। গত বছর জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের সভাপতি নির্বাচিত হন দুর্গাপুরের মেয়েটি। দেশ শুনেছিল বাঙালি মেয়ের লড়াইয়ের ডাক। রবিবার রাতে রক্তাক্ত হন ঐশী। হস্টেলে দুষ্কৃতীদের তাণ্ডবে মাথা ফেটেছে তাঁর।

ঐশীর স্কুলজীবন দুর্গাপুরেই। বরাবর মেধাবী। গ্র্যাজুয়েশন করতে যান জেএনইউতে। বাম আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন বাবা। বাড়িতে রাজনীতি নিয়ে তর্ক-বিতর্ক ছিলই। জেএনইউতে গিয়েই সাধারণ মধ্যবিত্ত পরিবারের মেয়েটির রাজনীতিতে হাতেখড়ি।

ঐশীর জন্য চিন্তা আছে। সঙ্গে তাঁর দিদিমার গলাতেও লড়াইয়ের সুর।

বামপন্থী পরিবারের মেয়ে। লড়াইয়ের রাস্তায় বারবার হেঁটেছেন ঐশী। রক্তে ভিজে গিয়েও ভেঙে পড়েননি।

First published: 10:57:08 AM Jan 07, 2020
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर