লক ডাউনের আবহে ভূমিষ্ঠ যমজ সন্তান, বাবা-মা নাম রাখলেন কোভিড ও করোনা

প্রতীকী ছবি

দম্পতি বাড়ি উত্তরপ্রদেশে। তাঁরা রায়পুরের পুরানি বাস্তি এলাকায় ভাড়া থাকেন।

  • Share this:

    #রায়পুরঃ করোনা আতঙ্কে ত্রস্ত সারা বিশ্ব। করোনা ভাইরাসের জেরে শরীরে বাসা বাঁধছে কোভিড-১৯ রোগ। আর তা রুখতে ২১ দিনের লক ডাউন ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। তার মধ্যেই মা-বাবার কোল আলো করে ভূমিষ্ঠ হয় কোভিড ও করোনা।

    ওই দম্পতি বাড়ি উত্তরপ্রদেশে। তাঁরা রায়পুরের পুরানি বাস্তি এলাকায় ভাড়া থাকেন। রায়পুরের ডাক্তার আম্বেদকর মেমোরিয়াল হাসপাতালে প্রীতি ভার্মা ২৭ মার্চ এক পুত্র এবং এক কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। করোনা আবহে জন্ম, তাই জন্মের পরই বাবা-মা ঠিক করেন ছেলে, মেয়ের নাম রাখবেন কোভিড ও করোনা। ইতিমধ্যেই হাসপাতালের লোকের মুখে মুখে ঘুরছে এই যমজ দুই শিশুর কথা। প্রীতি জানিয়েছেন, ‘‘ভাইরাস মোকাবিলায় মানুষের জীবন বিপন্ন, সেই কঠিন সময়ে জন্ম নিয়েছে আমাদের সন্তানরা। তাই এই নাম দিয়েছি। জন্মের পর হাসপাতালের কর্মীরাও ওদের করোনা-কোভিড বলে ডাকছিলেন।’’ যদিও ওই  দম্পতি জানিয়েছেছেন, পরে প্রয়োজনে তাঁরা তাঁদের সন্তানদের নাম পরিবর্তন করবেন।

    রায়পুরের বাসিন্দা প্রীতি ও তার স্বামী লক ডাউনের এই পরিস্থিতিতে কিভাবে সন্তানদের জন্ম দেবেন সেই নিয়ে রীতিমতো আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছিলেন। এমতাবস্থায় ২৬ মার্চ মধ্যরাতে প্রসব যন্ত্রণা উঠে প্রীতির। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে নিয়ে হাসপাতালের উদ্দেশ্যে রওনা দেন তাঁর স্বামী। আদৌ তাঁরা এই পরিস্থিতিতে হাসপাতালে পৌঁছতে পারবেন কিনা তাই নিয়ে আশঙ্কায় ছিলেন তাঁরা। কিন্তু প্রীতির দাবি, প্রসব যন্ত্রণা ওঠার পর থেকে হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্সরা সকলেই সাহায্য করেছেন খুব। এমনকি হাসপাতালে পৌঁছানোর পরে একটুও সময় নষ্ট না করে চিকিৎসক এবং নার্সরা তাঁর প্রসব করান। দেশের এই পরিস্থিতিতে যখন চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের চারপাশে ঘিরে রেখেছে একগুচ্ছ বিপদ তার মাঝেও তাঁদের কর্তব্যের প্রতি এত নিষ্ঠা দেখে খুশি ভার্মা দম্পতি।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: