দেশ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

‘‌হাত চিহ্নে ভোট দিন’‌, দল বদলেও মুখ ফস্কে কংগ্রেসের হয়ে ভোট চাইলেন সিন্ধিয়া

‘‌হাত চিহ্নে ভোট দিন’‌, দল বদলেও মুখ ফস্কে কংগ্রেসের হয়ে ভোট চাইলেন সিন্ধিয়া

নভেম্বর মাসের তিন তারিখে মধ্য প্রদেশে রয়েছে একাধিক উপনির্বাচন। সেই উপনির্বাচনগুলির মধ্যে একটি আসনে লড়ছেন বিজেপি প্রার্থী ইমারতি দেবী।

  • Share this:

কয়েকদিন আগেই দল বদল করেছেন। এতদিনের অভ্যাস চাই বদলায়নি বোধহয়। জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া ছিলের মধ্যপ্রদেশে কংগ্রেসের অন্যতম মুখ। সেই মানুষটিই দল বদলে বিজেপিতে গিয়েছেন। আর সেই বিজেপির সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়েই মুখ ফস্কে কংগ্রেসের হয়ে ভোট চেয়ে ফেললেন তিনি। যদিও সঙ্গে সঙ্গে নিজেকে শুধরেও নিলেন। কিন্তু ততক্ষণে ভিডিও হয়ে গিয়েছে পুরো ঘটনা। হাসির খোরাক হয়েছেন সিন্ধিয়া। এমনকী ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে মুখ টিপে হাসছেন বিজেপির প্রার্থীও।

নভেম্বর মাসের তিন তারিখে মধ্য প্রদেশে রয়েছে একাধিক উপনির্বাচন। সেই উপনির্বাচনগুলির মধ্যে একটি আসনে লড়ছেন বিজেপি প্রার্থী ইমারতি দেবী। তাঁর হয়েই এদিন প্রচার সভায় বক্তব্য রাখছিলেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া। সেখানে হাত তুলে ভোট চাইছিলেন তিনি। পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন ইমারতি দেবী। সেখানেই তিনি বলেন, ‘‌শিবরাজ সিং চৌহানের সমর্থনে ভোট দেওয়ার কথা বলুন আপনারা সবাই। বলুন, যে ওই দিন হাত চিহ্নে বোতাম টিপবেন।’‌ বলেই থেমে গিয়ে নিজেকে শুধরে নেন তিনি, তারপর বলেন, ‘‌বলুন পদ্মফুলে বোতাম টিপবেন।’‌ ভিডিও দেখা যাচ্ছে, জ্যোতিরাদিত্য ভুল বলার পরেই হাসাহাসি শুরু হয়েছে মঞ্চে। প্রার্থী ইমারতি দেবীও মুখ টিপে হাসছেন।

সেই ভিডিওটি পোস্ট করেছে মধ্যপ্রদেশ কংগ্রেস। ট্যুইটারে এই ভিডিও পোস্ট করে ঠাট্টা করে লিখেছে, সত্যি কথা বলেছেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া, ওই আসনে কংগ্রেসই জিতবে। এদিকে সময় যে ভাল যাচ্ছে না, তা বুঝতে পেরেছেন প্রার্থীও। কারণ, নির্বাচন কমিশন তাঁকে ১ নভেম্বর তারিখে সমস্ত সভা, সমিতি করা থেকে বিরত থাকতে বলেছে। নির্বাচনীবিধি ভঙ্গের অভিযোগেই তাঁকে সভা, সমিতি করা থেকে বিরত থাকার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। তাতে একটা দিনের ক্ষতি হয়েছে ঠিকই, কিন্তু জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার এই ভিডিও নিয়ে নতুন করে সোস্যাল মিডিয়ায় কংগ্রেস ঠাট্টা শুরু করায় মুখ পুড়েছে বিজেপির।

মার্চ মাসে ২২ জন বিধায়ককে সঙ্গে নিয়ে কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া। তারপর মধ্যপ্রদেশে নাটকীয় সরকার পরিবর্তন হয়। নতুন মুখ্যমন্ত্রী হন শিবরাজ সিং চৌহান।

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: November 1, 2020, 4:56 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर