Home /News /local-18 /
Asansol Election: ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যেই পুর নির্বাচন। বিধানসভার মতো করোনা বিধি মেনেই হবে ভোট।

Asansol Election: ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যেই পুর নির্বাচন। বিধানসভার মতো করোনা বিধি মেনেই হবে ভোট।

জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরের কার্যালয়।

জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরের কার্যালয়।

জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে খবর, নির্বাচন সম্পূর্ণ করোনা স্বাস্থ্যবিধি মেনে হবে। বিধানসভা ভোটের সময় যেভাবে মাস্ক-স্যানিটাইজার এবং দূরত্ববিধি বজায় রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছিল, এবারও সেই ব্যবস্থা থাকবে।

  • Share this:

    #পশ্চিম বর্ধমান- ওমিক্রণ আতঙ্ক ক্রমেই ভয় ধরাচ্ছে সবার মনে। এই নিয়ে চিন্তিত রাজ্য সরকার। চিন্তিত কেন্দ্রও। বুধবার গঙ্গাসাগরের প্রশাসনিক বৈঠকে ওমিক্রণ নিয়ে চিন্তা প্রকাশ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বে দিল্লিতে বিশেষ বৈঠক হয়েছে।

    এমন আতঙ্কের আবহে আগামী ২২ জানুয়ারি আসানসোলে পুর নির্বাচন। ইতিমধ্যেই লাগু হয়ে গিয়েছে আদর্শ আচরণবিধি (Asansol Election)। বিভিন্ন রাজনৈতিক দল নিজেদের মত করে অনেক ক্ষেত্রেই প্রচার শুরু করে দিয়েছে। প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করা না হলেও, মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার কেন্দ্রগুলি থেকে ফর্ম তোলা এবং জমা দেওয়ার ভিড় লক্ষ্য করা যাচ্ছে। আর এসবের মধ্যেই অনেকেই গত বিধানসভা নির্বাচনের সময়, কোভিডের দ্বিতীয় ধাক্কার ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির আশঙ্কা করছেন।

    এই ক্ষেত্রে, জেলা স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, প্রশাসন ইতিমধ্যেই তৎপর রয়েছে। রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে সমস্ত রকম প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে। রাজ্য সরকারের নির্দেশ মতো জেলাতে করোনা মোকাবিলা করতে প্রয়োজনীয় সমস্ত পদক্ষেপ করা হবে (Asansol Election)। তাই আতঙ্কিত না হয়ে মানুষকে আশ্বস্ত করেছে জেলা প্রশাসন। নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলেও সংক্রমণ যাতে কোনভাবেই না বাড়ে, সেইদিকে কড়া নজর রাখা হয়েছে। রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের কর্তাদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রেখে পরিস্থিতি অনুযায়ী পদক্ষেপও নেবে জেলা স্বাস্থ্য দফতর।

    জেলা স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, আসানসোল সাব ডিভিশন এবং দুর্গাপুর সাব ডিভিশন এর সমস্ত সেন্টারগুলিতে যথেষ্ট পরিমাণে করোনা পরীক্ষার সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে (Asansol Election)। গত ২৮ ডিসেম্বর বেলা বারোটা পর্যন্ত সালানপুর ব্লকে একজন সক্রিয় করোনা আক্রান্তের খোঁজ পাওয়া গিয়েছে। অন্যদিকে দুর্গাপুর সাব ডিভিশনের সক্রিয় করোনা আক্রান্তের খবর পাওয়া গিয়েছে। টেস্টের রিপোর্ট ইতিমধ্যেই আইসিএমআর আপলোড করা হয়েছে।

    যেহেতু, আসানসোলে পুরনির্বাচন ঘোষণা হয়ে গিয়েছে, তাই অনেকেই পুরসভা এলাকায় সংক্রমণ বৃদ্ধির আশঙ্কা করছেন (Asansol Election)। তবে এক্ষেত্রে জেলা স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, নির্বাচন সম্পূর্ণ করোনা স্বাস্থ্যবিধি মেনে হবে। বিধানসভা ভোটের সময় যেভাবে মাস্ক-স্যানিটাইজার এবং দূরত্ববিধি বজায় রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছিল, এবারও সেই ব্যবস্থা থাকবে। ভোট কর্মীদের সুরক্ষার দিকেও নজর দেবে জেলা প্রশাসন। এক্ষেত্রে রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশিকা এবং মহামারী আইন মেনে কাজ করা হবে।

    তাছাড়া ২৮ ডিসেম্বরের রিপোর্ট অনুযায়ী আসানসোল এবং দুর্গাপুরের মোট ৫১৫ জনের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এই মুহূর্তে জেলায় পজিটিভিটি রেট ০.৩৯ শতাংশ। যেহেতু এই মুহূর্তে রাজ্যজুড়ে সংক্রমিতের সংখ্যা বাড়ছে, তাই করোনা পরীক্ষা বা RAT এর সংখ্যা আরও বাড়ানো হবে বলে জেলা প্রশাসন সূত্রে খবর।

    আরও জানা গিয়েছে, নির্বাচনকে কেন্দ্র করে, জেলা স্বাস্থ্য দফতর এবং জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরা, রাজ্য স্বাস্থ্যদফতরের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন। এখনও পর্যন্ত যে সমস্ত নিয়ম মহামারী ঠেকাতে লাগু করা হয়েছে, তা মেনে চলা হবে। পাশাপাশি, ওমিক্রণের আশঙ্কায় যদি রাজ্য সরকার নতুন কোনও নিয়ম জারি করে, সেইদিকেও বিশেষ নজর দেওয়া হবে।

    এছাড়াও, টিকাকরণের কাজও চলবে সমানতালে। এখনও পর্যন্ত যারা দ্বিতীয় ডোজের টিকা নেয়নি, তাদের দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে (Asansol Election)। অন্যদিকে ১৫ থেকে ১৮ বছর বয়সীদের টিকাকরনের ব্যবস্থা, সরকারি নিয়ম মেনে করা হবে বলে জানা গিয়েছে। এক্ষেত্রে জেলা স্বাস্থ্যদফতর বলছে, সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করতে যেমন কমিশন তৎপর রয়েছে, ঠিক তেমনভাবেই নির্বাচনের সময়, মানুষকে সুরক্ষিত রাখতে তৎপর রয়েছে জেলা স্বাস্থ্যদফতর।

    Nayan Ghosh

    First published:

    Tags: Asansol municipality, Election, Election Commision, Omicron, West Bardhaman

    পরবর্তী খবর