• Home
  • »
  • News
  • »
  • life-style
  • »
  • Rasgulla Health Effect: নরম নরম, রসে টইটুম্বুর রসগোল্লা খেতে ভালোবাসেন? খেলে কী হতে পারে শুনলে চমকে যাবেন!

Rasgulla Health Effect: নরম নরম, রসে টইটুম্বুর রসগোল্লা খেতে ভালোবাসেন? খেলে কী হতে পারে শুনলে চমকে যাবেন!

রসগোল্লা কী স্বাস্থ্যের পক্ষে ভাল?

রসগোল্লা কী স্বাস্থ্যের পক্ষে ভাল?

Rasgulla Health Effect: নিয়মিত রসগোল্লা খেলে কী ভালো হবে না খারাপ? এমন প্রশ্ন প্রায়ই মাথায় আসে। জানুন রসগোল্লার রহস্য।

  • Share this:

    #কলকাতা: বাঙালি বিশেষ করে কলকাতাকে যদি বিশ্বের দরবারে এককথায় তুলে ধরতে হয়, তবে শুধু ‘রসগোল্লা’ (Rasgulla Health  Effect) একাই একশো। নরম, তুলতুলে রসে ডোবানো এই মিষ্টির ভক্ত আট থেকে আশি। তবে, খেতে ভালো লাগলেও অনেকে শরীরের কথা ভেবে রসগোল্লা খেতে চান না! তবে পরিমিত খেলে এই রসগোল্লার রহস্যময় প্রভাব পাবেন আপনিও। কারণ রসগোল্লার উপকারিতা আপনাকে এককথায় চমকে দেবে।

    আরও পড়ুন: খাওয়ার পরে পেট ভার-বুক জ্বালা? ফিট থাকতে মেনে চলুন এই সহজ কয়েকটি নিয়ম! কাজে দেবে সাতদিনেই...

    অতিথি আপ্যায়নই হোক, কিংবা ডিনার শেষে একটু আধটু মিষ্টিমুখ— বাঙালিদের সব সময়ে নজর থাকে রসগোল্লার (Rasgulla Health  Effect) উপর। রসগোল্লার ইতিহাস নিয়েও বাঙালি বেশ গর্বিত। কিন্তু এই রসগোল্লা কি শুধু মুখমিষ্টি করার উপাদান? নিয়মিত রসগোল্লা খেলে কী ভালো হবে না খারাপ? এমন প্রশ্ন প্রায়ই মাথায় আসে।

    প্রত্যেক মিষ্টির দোকানেই রসগোল্লা (Rasgulla Health  Effect) পাওয়া যায়। শিশুদের পেটের গণ্ডগোল হলে তাদের গরম রসগোল্লা খাওয়ানো হয়। কিন্তু এর কি আর কোনও গুণ রয়েছে? এবার সেই তালিকায় চোখ রেখে দেখুন। এই রইল তালিকা।

    ১) রসগোল্লা রক্তে হিমোগ্লোবিনের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়। ফলে রক্তল্পতার সমস্যা থাকলে, নিয়মিত একটি করে রসগোল্লা খেতে পারেন। সমস্যা কমতে পারে।

    ২) রসগোল্লায় ওমেগা থ্রি এবং ফ্যাটি অ্যাসিড থাকে। এটি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে। ফলে হৃদ্‌রোগের আশঙ্কা কমে। নিয়মিত রসগোল্লা খেলে হৃদ্‌যন্ত্র ভাল থাকে।

    ৩) এই ওমেগা থ্রি এবং ফ্যাটি অ্যাসিড হাড়ের সংযোগস্থলের ব্যথা কমাতে পারে। অর্থাৎ বাতের ব্যথা কমিয়ে দিতে পারে রসগোল্লা।

    রসগোল্লার গুণাগুণ জানুন.. রসগোল্লার গুণাগুণ জানুন..

    ৪) রসগোল্লায় উচ্চমানের প্রোটিন থাকে। এই প্রোটিন ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করতে সাহায্য করে। দেখা গিয়েছে প্রস্টেট, স্তন এবং অন্ত্রের ক্যানসার প্রতিহত করতে পারে রসগোল্লার এই উপাদান।

    ৫) রসগোল্লা দাঁতের জন্যও ভাল। যাঁরা দুধ খেতে পারেন না, তাঁদের দাঁত দুর্বল হয়ে যেতে পারে। কিন্তু রসগোল্লায় প্রায় একই ধরনের পুষ্টিগুণ থাকে। সেগুলি দাঁতের উপকার করে।

    আরও পড়ুন: ঘর পরিষ্কার করার সময় আপনিও এই এক ভুলগুলো করেন না তো? দেখুন তো...

    ৬) রসগোল্লা ইউরিনারি সিস্টেমের কর্মক্ষমতাকে উন্নত করতে সাহায্য করে। প্রস্রাবের সময় যাদের জ্বলন হয়, তাঁরা রসগোল্লা খেতে পারেন। কিডনিতে পাথর হওয়াও আটকায় এটি।

    ৭) ডায়েটিশিয়ানদের মতে রসগোল্লা হাই প্রোটিন ডায়েট। এই মিষ্টির মধ্যে প্রচুর পরিমাণে ডায়েটারি ফাইবার থাকে, যা হজম ক্ষমতা বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে। ফলে দেহের ওজন নিয়ন্ত্রণে থাকে।

    তবে উপকারী বলেই এই মিষ্টিটি যথেচ্ছ খাওয়া যায় না। কারণ তাতে রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে যেতে পারে। তাই দিনে একটি বা দু’টি রসগোল্লার বেশি খাওয়া উচিত নয়। আর ডায়াবিটিসের সমস্যা থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে তবেই রসগোল্লা খাওয়া উচিত এমনটাই বলছেন খাদ্য বিশেষজ্ঞরা।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: