Home /News /life-style /
শুকনো ভ্যাজাইনা-রাতে ঘাম এবং... যে লক্ষণগুলি জানান দেয় মেনোপজ আসছে

শুকনো ভ্যাজাইনা-রাতে ঘাম এবং... যে লক্ষণগুলি জানান দেয় মেনোপজ আসছে

  • Share this:

    #কলকাতা: মেনোপজ৷ মহিলাদের বয়স বাড়তে থাকার সঙ্গেই একটি স্বাভাবিক প্রক্রিয়া৷ ৪৫ থেকে ৫৫ বছরের মধ্যে মহিলাদের শরীরে ইস্ট‌্রোজেন হরমোন কমতে থাকা৷ প্রতিটি মহিলার কাছেই মেনোপজ অম্ল‌-মধুর একটি অভিজ্ঞতা৷ মেনোপজ মানেই ঋতুস্রাবের ইতি৷ স্বাভাবিক ভাবে আর গর্ভবতীও হওয়া যাবে না৷

    ছবিটি প্রতীকী ও সংগৃহীত ছবিটি প্রতীকী ও সংগৃহীত

    মেনোপজ কী?

    সোজা কথায়, মেনোপজ হলে ঋতুস্রাব বন্ধ হয়ে যায়৷ স্বাভাবিক ভাবে অন্তঃসত্ত্বাও হওয়া যায় না৷ প্রি-মেনোপজে কমতে শুরু করে ঋতুস্রাবের পরিমাণ৷ সাধারণত, শরীরে সেক্স হরমোনের মাত্রায় ভারসাম্যে পরিবর্তন হয়৷

    ১২ মাস টানা পিরিয়ড না-হলেই বুঝতে হবে মেনোপজ এসে গিয়েছে৷ একশো জনের মধ্যে ১ জন মহিলার ৪০ বছর ছোঁয়ার আগেই প্রিম্যাচিওর মেনোপজ হয়ে যায়৷

    কী ভাবে বুঝবেন মেনোপজ এসে গিয়েছে?

    ১. অনিয়মিত ঋতুস্রাব

    ২. খুব বেশি কিংবা খুব সামান্য ঋতুস্রাব

    ৩. রাতে ঘাম হওয়া

    অনেক ক্ষেত্রে মেনোপজ হলে ইনসমনিয়া, শুকনো ভ্যাজাইনা, ওজন বেড়ে যাওয়া, অবসাদ, উদ্বেগ, স্মৃতিভ্রংশ, লিবিডো বা যৌন আকাঙ্ক্ষা কমে যাওয়া৷ চোখ, মুখ ও চামড়ায় শুষ্কতাও লক্ষ্য করা যায়৷

    First published:

    Tags: Menopause, Menopause Causes, Menopause Symptoms, Period, ঋতুস্রাব, পিরিয়ড, মেনোপজ

    পরবর্তী খবর