• Home
  • »
  • News
  • »
  • life-style
  • »
  • Diwali 2020: দূষণ নয়, এই ৫ পরিবেশবান্ধব উপায়ে জমিয়ে তুলুন আলোর উৎসব!

Diwali 2020: দূষণ নয়, এই ৫ পরিবেশবান্ধব উপায়ে জমিয়ে তুলুন আলোর উৎসব!

দীপাবলির অর্থ আলোর উৎসব ৷গোটা শহর, গোটা দেশ আলোয় সেজে ওঠে এই উৎসবে ৷ প্রত্যেকটি ঘর সেজে ওঠে প্রদীপের আলোয় ৷ এই আলোর মধ্যে দিয়ে যাবতীয় অন্ধকার দূর হয়ে জীবনে নতুন আলোর সঞ্চার ঘটে ৷ সংসারে আসে সমৃদ্ধি ৷

দীপাবলির অর্থ আলোর উৎসব ৷গোটা শহর, গোটা দেশ আলোয় সেজে ওঠে এই উৎসবে ৷ প্রত্যেকটি ঘর সেজে ওঠে প্রদীপের আলোয় ৷ এই আলোর মধ্যে দিয়ে যাবতীয় অন্ধকার দূর হয়ে জীবনে নতুন আলোর সঞ্চার ঘটে ৷ সংসারে আসে সমৃদ্ধি ৷

শুধু বাজি নয়, আসলে বাজি থেকে শুরু করে কৃত্রিম রং দিয়ে তৈরি রঙ্গোলি- অনেক কিছুই পরিবেশের পক্ষে ক্ষতিকর! তা হলে রং, আলো সব কিছুই কি বাদ দিয়ে দেবেন? কখনই নয়, সব থাকবে।

  • Share this:

    #কলকাতা: আর কিছু দিনের মধ্যেই সারা দেশ জুড়ে পালিত হবে আলোর উৎসব দিওয়ালি বা দীপাবলি। আলোয় উজ্জ্বল হবে প্রতিটি ঘর। কিন্তু পরিবেশ? সে কি উজ্জ্বল থাকবে?

    ক্ষতি হয়েছে, হচ্ছে এবং হবেও। এ হচ্ছে এমন বিষ যা ধীরে ধীরে গ্রাস করে সবকিছু। শুধু বাজি নয়, আসলে বাজি থেকে শুরু করে কৃত্রিম রং দিয়ে তৈরি রঙ্গোলি- অনেক কিছুই পরিবেশের পক্ষে ক্ষতিকর! তা হলে রং, আলো সব কিছুই কি বাদ দিয়ে দেবেন? কখনই নয়, সব থাকবে। শুধু এমন ভাবে দীপাবলির রোশনাই হবে যাতে পরিবেশের কোনও ক্ষতি না হয়।

    • নানা রঙের এবং আকারের মাটির প্রদীপের কোনও বিকল্প হয় না। যদি বাড়ি সাজাতেই হয় মাটির প্রদীপ দিয়ে সাজান। ব্যবহার করুন এলইডি আলো। এর বিকিরণ কম হয়, তা ছাড়া এগুলো রিইউজ ও রিসাইকেল দুই করা যায়।

    • পরিবেশবান্ধব দীপাবলি মানে কিন্তু শুধুই বাতাসের দূষণ আটকে দেওয়া নয়। এর সঙ্গে অন্যান্য অনেক কিছু জড়িত আছে। এই যেমন ধরুন মিষ্টি। মিষ্টিমুখ বাদ দিয়ে এই উৎসব হবে না। আপনি যত বেশি মিষ্টি বাইরে থেকে কিনবেন, তত বেশি বাক্স ঢুকবে আপনার বাড়িতে, ঢুকবে প্লাস্টিকের প্যাকেটও। প্যাকেজিং বর্জ্য কিন্তু আরও একটি বড় সমস্যা। তা ছাড়া বাইরের মিষ্টিতে কী দেওয়া হচ্ছে আর হচ্ছে না, সে আপনি থোড়াই জানেন। বাড়িতে মিষ্টি তৈরি করুন, সে মিষ্টির স্বাদ যে অতুলনীয়!

    • রঙ্গোলি তৈরির ক্ষেত্রেও আপনাকে সাবধান থাকতে হবে। ফুলের পাপড়ি দিয়েও দিব্যি সুন্দর রঙ্গোলি করা যায়। রং যদি ব্যবহার করতেই হয় তা হলে অরগ্যানিক বা জৈব রং ব্যবহার করুন।

    • বন্ধুবান্ধব, আত্মীয়স্বজনকে উপহার দেওয়ার ক্ষেত্রেও সচেতন থাকুন। একগাদা দাম দিয়ে হাবিজাবি জিনিস দেওয়ার চেয়ে এমন কিছু দিন যা কাজে লাগে এবং যা পরিবেশের জন্য ক্ষতিকর নয়। হ্যান্ড মেড সাবান বা ক্রিম দিতে পারেন। দিতে পারেন সাকুলেন্ট বা গাছের চারা। তবে যাই দিন, সেটা দয়া করে প্লাস্টিকে ভরে দেবেন না। এখন খুব সুন্দর সুন্দর জৈব প্যাকিং অপশন আছে। যেমন জুট ব্যাগ, বাঁশের বাক্স, কাপড় বা কাগজের ব্যাগ ইত্যাদি। এইগুলো সব পরিবেশবান্ধব বস্তু, এগুলোতেই উপহার দিন।

    • আগের বছর কি ঘর সাজানোর জন্য কিছু কিনেছিলেন? সেগুলো ঠিকঠাক থাকলে ওগুলোই এ-দিক সে-দিক করে আবার ব্যবহার করুন না! খবরের কাগজ, রংচঙে ওড়না- এ সব দিয়েও ঘর সাজানো যায়। গাদাগুচ্ছ প্লাস্টিকের প্রাণহীন ফুল আর কৃত্রিম রং দিয়ে খামোখা কেন নিজের দীপাবলির মজা নষ্ট করবেন?

    Published by:Siddhartha Sarkar
    First published: