Home /News /kolkata /
TMC in North Bengal : নজরে চা-বাগানের ভোট, প্রতি বাগানেই সমাবেশ করবে তৃণমূল কংগ্রেস

TMC in North Bengal : নজরে চা-বাগানের ভোট, প্রতি বাগানেই সমাবেশ করবে তৃণমূল কংগ্রেস

রাজনৈতিক মহলের মতে, খারাপ ফলের কারণ দুর্বল সংগঠন

রাজনৈতিক মহলের মতে, খারাপ ফলের কারণ দুর্বল সংগঠন

TMC in North Bengal : রাজনৈতিক মহলের মতে, খারাপ ফলের কারণ দুর্বল সংগঠন। বিশেষ করে চা-বাগানগুলিতে নিজেদের সংগঠন মজবুত করতে পারেনি তৃণমূল কংগ্রেস।

  • Share this:

কলকাতা : চা-বলয়ের জেলা জলপাইগুড়ি ও আলিপুরদুয়ারে ভোটের খারাপ ফল নিয়ে বিশ্লেষণ শুরু করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। রাজনৈতিক মহলের মতে, খারাপ ফলের কারণ দুর্বল সংগঠন। বিশেষ করে চা-বাগানগুলিতে নিজেদের সংগঠন মজবুত করতে পারেনি তৃণমূল কংগ্রেস। সেরকমই ধারণা রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের । এ ছাড়া ১০০ দিনের কাজ,  কাঠ পাচারের মতো ক্ষেত্রেও দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে৷

কালচিনিতে গ্রেফতার করা হয় পাশাং লামাকে। যার বিরুদ্ধে কাঠ পাচারের অভিযোগ উঠেছিল। রাজনৈতিক মহলের মতে, নয়া জেলা সভাপতি বাগান শ্রমিকদের কাছের মানুষ হিসাবে পরিচিত হলেও চা-বাগানের একেবারে নিচু স্তরে গিয়ে শ্রমিকদের মন বোঝার মতো বুথস্তরীয় সংগঠন মজবুত করতে হবে। চা বাগানের শ্রমিকদের জন্য ‘চা-সুন্দরী’র মতো প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে৷ তবে চা-বাগানের মন বুঝে সেখানে বুথ স্তরে সংগঠন মজবুত করতে এবার ঝাঁপিয়ে পড়তে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস।

এই পরিস্থিতিতে তৃণমূল কংগ্রেসের হাতিয়ার হতে চলেছে চা বাগানের শ্রমিকদের নিয়ে সমাবেশ। সূত্রের খবর, জলপাইগুড়ি জেলার ৭৮ টি চা বাগানেই সমাবেশ করতে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস । তৃণমূলের শ্রমিক সংগঠন এই সমাবেশ করবে ৷ পাশের জেলা আলিপুরদুয়ারেও একই ভাবে বাগান ধরে ধরে সমাবেশের আয়োজন হতে চলেছে ।

আরও পড়ুন : নজরে উত্তর, মালদহ ও দুই দিনাজপুর নিয়ে আজ বৈঠক করবেন অভিষেক বন্দোপাধ্যায়

এর পর আগামী মাসে দু'দিন ৯ ও ১০ সেপ্টেম্বর কেন্দ্রীয় শ্রমিক সমাবেশের আয়োজন করছে তৃণমূল কংগ্রেস। আর সেখানেই উপস্থিত থাকতে পারেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন :  জেলায় তৃণমূলের সাংগঠনিক রদবদলে কি মুক্ত হল পার্থ ছায়া? 

বর্তমানে উত্তরবঙ্গের আসনের  সংখ্যার নিরিখে বিজেপি ও তৃণমূল কংগ্রেস প্রায় সমানে সমানে টক্কর দিয়েছে। ২০২১-এর বিধানসভা ভোটের ফল অনুযায়ী,  তৃণমূল কংগ্রেস ২৪ আসনে,  একটি আসনে নির্দল, ২৯ আসনে এগিয়ে ছিল বিজেপি ৷ পরবর্তী সময়ে দুই বিজেপি বিধায়ক উত্তর দিনাজপুর জেলায় দল বদল করেছেন। সেই অনুযায়ী নির্দল সমর্থন অনুযায়ী, তৃণমূল কংগ্রেস ২৭,  বিজেপি-র শক্তিও ২৭ হয়েছে। এর মধ্যে আলিপুরদুয়ার জেলাতেই  তৃণমূলের ফল সবচেয়ে খারাপ। একটি আসনও তারা এই জেলায় জেতেনি। দার্জিলিং জেলাতেও একই হাল হয়েছিল বিধানসভা নির্বাচনে৷ যদিও শিলিগুড়ি পুরসভা ঘাসফুল শিবির নিজের দখলে নেয়।

Published by:Arpita Roy Chowdhury
First published:

Tags: BJP, North Bengal, TMC

পরবর্তী খবর