হোম /খবর /কলকাতা /
'হচ্ছে না চিকিৎসা', কলকাতা মেডিক্যালে ছাত্রবিক্ষোভ নিয়ে এবার আদালতে মামলা

'হচ্ছে না চিকিৎসা', কলকাতা মেডিক্যালে ছাত্রবিক্ষোভ নিয়ে এবার আদালতে মামলা

শিশুপুত্রের চিকিৎসা করাতে সুদূর বিহার থেকে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে  এসেছেন এক ব্যক্তি। কিন্তু, চলতি সপ্তাহের শুরু থেকে মেডিক্যাল কলেজে ছাত্রবিক্ষোভ শুরু হওয়ায়, তাঁর ছেলের কিডনি বাদ যাওয়ার অস্ত্রোপচার কিছুতেই করানো যাচ্ছে না বলে অভিযোগ তাঁর।

আরও পড়ুন...
  • Share this:

#কলকাতা: ছাত্র নির্বাচনের দাবি ঘিরে উত্তপ্ত কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ। বৃহস্পতিবার বেলা ১১.১৫ নাগাদ অনির্দিষ্টকালের জন্য অনশন শুরু করেছেন আন্দোলনকারী পাঁচ ছাত্র। এবার, কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে অচলাবস্থার অভিযোগ তুলে মামলা দায়ের হল আদালতে। বৃহস্পতিবার বিচারপতি মৌসুমি ভট্টাচার্যের এজলাসে চলল শুনানি।

শিশুপুত্রের চিকিৎসা করাতে সুদূর বিহার থেকে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে  এসেছেন এক ব্যক্তি। কিন্তু, চলতি সপ্তাহের শুরু থেকে মেডিক্যাল কলেজে ছাত্রবিক্ষোভ শুরু হওয়ায়, তাঁর ছেলের কিডনি বাদ যাওয়ার অস্ত্রোপচার কিছুতেই করানো যাচ্ছে না বলে অভিযোগ তাঁর।

আরও পড়ুন: ভোটগণনায় এগিয়ে জাদেজা-পত্নী, উৎসব শুরু পদ্মশিবিরে

রোগীর আত্মীয়ের ওই অভিযোগের প্রেক্ষিতে হাসপাতালের সুপার এবং প্রিন্সিপাল আদালতে জানান, গত কয়েকদিনের ছাত্র বিক্ষোভের জেরে বন্ধ হাসপাতালের সেন্ট্রাল ল্যাব থেকে শুরু করে একাধিক গুরুত্বপূর্ণ বিভাগ। তবে রোগীর সব ধরনের শারীরিক পরীক্ষা হয়ে গিয়েছে বলে আদালতে দাবি করেছে স্বাস্থ্য অধিকর্তা। এদিকে, আন্দোলনরত পড়ুয়াদের দাবি, তাঁরা চিকিৎসায় কোনও বাধা সৃষ্টি করছে না।

সব পক্ষের বক্তব্য শুনে এদিন বিচারপতি জানান, আগামী শুক্রবার বিকেল ৫টার মধ্যে বিহারের ওই রোগীর অস্ত্রোপচার করতে হবে। সেই অস্ত্রোপচার যেন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়, তা নিশ্চিত করতে হবে স্বাস্থ্য দফতর, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এবং আন্দোলনরত ছাত্রদেরই। তবে জনস্বার্থ মামলা না হওয়ায় এ নিয়ে কোনও নির্দিষ্ট নির্দেশ দেননি তিনি।

আরও পড়ুন: হিমাচলে কি বহাল থাকছে ৪০ বছরের 'রিওয়াজ'? শাসকবিরোধী ভোটে এগিয়ে কংগ্রেস

চলতি মাসের ২২ তারিখ ছাত্র ইউনিয়নের নির্বাচন করার দাবিতে গত সোমবার থেকে আন্দোলন শুরু করেছে ডাক্তারি পড়ুয়াদের একাংশ। কিন্তু, গত বুধবার স্বাস্থ্য ভবনে মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষ-সহ অন্যান্য আধিকারিকেরা যে বৈঠক করেন, সেখানে ছাত্র নির্বাচনের বিষয় কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি। বৈঠক শেষে বেরিয়ে মেডিক্যাল কলেজের রোগী কল্যাণ সমিতির চেয়ারম্যান সুদীপ্ত রায় জানিয়েছিলেন, এখনই মেডিক্যাল কলেজে নির্বাচন সম্ভব নয়। তারপরেই আজ ফের অনশনে বসেন আন্দোলনকারী পড়ুয়ারা।

Published by:Satabdi Adhikary
First published:

Tags: Kolkata medical college and hospital