কলকাতা

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

সোমবার থেকে বাড়ছে মেট্রোর সংখ্যা, সন্ধেবেলা বেশি চলবে মেট্রো

সোমবার থেকে বাড়ছে মেট্রোর সংখ্যা, সন্ধেবেলা বেশি চলবে মেট্রো
Kolkata Metro

ইতিমধ্যেই অ্যাপ নির্মাণ সংস্থা তাদের সার্ভার থেকে স্লটের সংখ্যা বাড়াচ্ছে।মেট্রো কর্তৃপক্ষ প্রথমে মনে করেছিল প্রতি রেকে ৪০০ জন করে যাত্রী নিয়ে যাবে।

  • Share this:

#কলকাতা: আগামিকাল থেকে কলকাতায় বাড়ছে মেট্রোর সংখ্যা। আপ ও ডাউনে বাড়ানো হল ৩ জোড়া ট্রেন। এর ফলে আগামিকাল থেকে কলকাতা মেট্রোয় মিলবে ১১৬ টি ট্রেন। গত ১৪ সেপ্টেম্বর চালু হয় কলকাতায় মেট্রো পরিষেবা। ১১০টি মেট্রো চালানো হচ্ছিল। সন্ধ্যা সাতটায় দু'প্রান্ত থেকে শেষ মেট্রো মিলছিল। সেই সময়ের বদল আনা হল। এবার দুই প্রান্ত থেকেই শেষ মেট্রো মিলবে সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায়। মেট্রো রেলের জেনারেল ম্যানেজার মনোজ যোশী জানিয়েছেন, "সন্ধে ৭-১০, ৭-২০ ও ৭-৩০ মিনিটে দুই প্রান্ত থেকে শেষ মেট্রো ছাড়বে। সন্ধের দিকে যাত্রীদের চাহিদা ব্যাপক রয়েছে। তাই ধাপে ধাপে মেট্রোর সংখ্যা বাড়ানো হল।"

গত কয়েক দিনেই ই-পাস নিয়ে অভ্যস্ত হয়ে উঠেছে কলকাতা। তাই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে মেট্রোয় অফিস টাইমে স্লটে ই-পাসের সংখ্যা বাড়ানো হবে। টালিগঞ্জ, কালীঘাট, দক্ষিণ কলকাতার এই দুই স্টেশন অন্যদিকে উত্তর কলকাতার  মহাত্মা গান্ধী রোড স্টেশন, মধ্য কলকাতার এসপ্ল্যানেড, পার্ক স্ট্রিট, এই দুই স্টেশন থেকে ই-পাস নেওয়ার সংখ্যা বেড়েছে। তাই এই সব স্টেশন থেকে বা স্টেশনের জন্যে আরও বেশি সংখ্যায় ই-পাস মিলবে।

ইতিমধ্যেই অ্যাপ নির্মাণ সংস্থা তাদের সার্ভার থেকে স্লটের সংখ্যা বাড়াচ্ছে।মেট্রো কর্তৃপক্ষ প্রথমে মনে করেছিল প্রতি রেকে ৪০০ জন করে যাত্রী নিয়ে যাবে। পরবর্তী সময় তারা সিদ্ধান্ত নিচ্ছে, এই সংখ্যা বাড়ানো হবে। যাত্রী বৃদ্ধি করতে গেলে, প্রয়োজন ই-পাসের সংখ্যা বাড়ানো। কারণ ই-পাস না বাড়ালে যাত্রীরা স্টেশন অবধি আসতে পারবেন না। তবে এক ধাক্কায় ই-পাসের সংখ্যা তারা বাড়াতে চায় না। কারণ এর ফলে প্রথম দিনের মতো দেখা যাবে ই-পাসের সংখ্যা প্রচুর। যাত্রী নেই।

মেট্রো রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক ইন্দ্রাণী বন্দোপাধ্যায়ের দাবি, "আমরা যাত্রীদের কাছে অনুরোধ করব, প্রয়োজন না থাকলে অযথা ই-পাস বুকিং করবেন না। যাদের প্রয়োজন তারা ই-পাস পাবে না। অন্যরা ব্যবহার করে চলে যাবে। এতে প্রকৃত যাত্রীদের যাতায়াতের অসুবিধা তৈরি হবে।" যে সংস্থা ই-পাস বানিয়েছে তারা অবশ্য বলছে গত কয়েকদিন ধরে অযথা ই-পাস বুক করার সংখ্যা কমেছে। মানুষের চাহিদার কথা মাথায় রেখেই তাই বাছাই করা স্টেশন থেকে বাড়ছে ই-পাসের সংখ্যা।

কেন এই সব স্টেশন বেছে নেওয়া হল? মেট্রো সূত্রে খবর, টালিগঞ্জ স্টেশনের সাথে একাধিক অটো ও বাস রুট সংযুক্ত আছে। ফলে দিনের বিভিন্ন সময়ে যাত্রী বেশি। কালীঘাট স্টেশনের একদিকে বেহালা, খিদিরপুর, অন্যদিকে গড়িয়াহাট থেকে কসবা অবধি যাওয়া যাচ্ছে। একাধিক রুটের অটো ও বাস আছে। মহাত্মা গান্ধী রোড স্টেশন যা দিয়ে বড়বাজার, পোস্তা সংযোগ আছে। ফলে দিনের বিভিন্ন সময়ে এই তিন স্টেশনে প্রচুর যাত্রী। ফলে এই তিন স্টেশন থেকে বাড়বে ই-পাসের সংখ্যা। এসপ্ল্যানেড এলাকায় এখন পুজোর বাজার করার ভিড় রয়েছে। অন্যদিকে ধীরে ধীরে বাড়ছে মেট্রোয় যাত্রী সংখ্যা। গড়ে যাত্রী ৩০ হাজার করে যাচ্ছে এখন। ফলে মেট্রো ধরে নিচ্ছে পুজোর আবহে বাড়বে আরও যাত্রী। তাই সব দিক বিবেচনা করে বাড়ানো হচ্ছে ই-পাসের সংখ্যা। বাড়ানো হচ্ছে মেট্রোর সংখ্যা ও পরিষেবার সময়।

Published by: Pooja Basu
First published: September 27, 2020, 11:19 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर