Home /News /kolkata /
Biman Basu: ব্যর্থতাতেও বিচ্ছেদ নয়? পুরভোটেও কংগ্রেসের সঙ্গে 'বন্ধুত্বের' আভাস বিমান বসুর

Biman Basu: ব্যর্থতাতেও বিচ্ছেদ নয়? পুরভোটেও কংগ্রেসের সঙ্গে 'বন্ধুত্বের' আভাস বিমান বসুর

ফের বাম-কংগ্রেস জোট

ফের বাম-কংগ্রেস জোট

Biman Basu: বিমান বসু বলেন, ''পুরভোটের আগে নতুন করে ফের আলোচনার প্রয়োজন রয়েছে। গত পুরভোট নির্বাচনে ৯০ থেকে ৯৫ শতাংশ ক্ষেত্রে আলোচনা হয়ে গিয়েছিল। তবে আসন্ন নির্বাচনে ফের আলোচনা প্রয়োজন। আগামী সপ্তাহে তা হতে পারে।''

  • Last Updated :
  • Share this:

#কলকাতা: বাংলার বিধানসভা ভোটে জোট করেও কার্যত উড়ে গিয়েছে বাম ও কংগ্রেস। তারপর থেকেই জোটের প্রাসঙ্গিকতা নিয়েই প্রশ্ন উঠেছে দু দলের অন্দরেই। বামেদেরও একটা বড় অংশ কংগ্রেসের সঙ্গে জোটের বিরোধী। এই পরিস্থিতি ডিসেম্বর পুরভোটে কি আর কোনও জোট সম্ভাবনা রয়েছে? একেবারে তা উড়িয়ে দিলেন না বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু (Biman Basu)। তিনি বলেন, ''পুরভোটের আগে নতুন করে ফের আলোচনার প্রয়োজন রয়েছে। গত পুরভোট নির্বাচনে ৯০ থেকে ৯৫ শতাংশ ক্ষেত্রে আলোচনা হয়ে গিয়েছিল। তবে আসন্ন নির্বাচনে ফের আলোচনা প্রয়োজন। আগামী সপ্তাহে তা হতে পারে।''

বামফ্রন্ট চেয়ারম্যানের মন্তব্যকে একেবারে উড়িয়ে দেননি প্রদেশ কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্যও। জোট প্রসঙ্গে প্রদীপ বাবুও বলেন, ''পুরভোট আঞ্চলিক স্তরের ভোট। তাই তা নিয়ে প্রদেশ স্তরে আলোচনা হবে। তাই এই বিষয়টি প্রদেশ নেতৃত্বের জন্যই ছেড়ে দেওয়া ভালো। এ বিষয়ে কোন পর্যালোচনা বামপন্থী নেতৃত্বরা চাইলে, আমাদের তরফে আলোচনা হবে। তবে রাজ্যে গত নির্বাচনে যে দৃষ্টিভঙ্গি ছিল, তার পরিবর্তন না করলে চলবে না।''

আরও পড়ুন: তাহলে কি দল ছাড়ছেন? দিলীপ ঘোষকে পাল্টা প্রত্যাঘাত তথাগত রায়ের! লিখলেন, 'যতক্ষণ না...'

আরও পড়ুন: কার ক্ষমতা বাড়ছে-কার ডানা ছাঁটা হচ্ছে, রবিবারের দিকে তাকিয়ে বঙ্গ BJP নেতারা

গরিব মানুষের মধ্যে বিনামূল্যে খাদ্যশস্য বিতরণ বন্ধ করে দিতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। সেই প্রকল্পের মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়ানোর আর্জি জানিয়েছেন তৃণমূলের লোকসভা সাংসদ সৌগত রায়। এই আর্জি জানিয়ে তিনি একটি চিঠি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে বিনামূল্যে রেশন দেওয়া বন্ধ হওয়া নিয়ে সুর চড়িয়েছে বামেরাও। এদিন বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু সাফ বলেন, ''করোনা পরিস্থিতিতে বিনামূল্যে রেশন বন্ধ করা উচিত হয়নি। অবশ্যই বিনামূল্যে যে রেশন দেওয়া হচ্ছিল, তা চালু রাখা উচিত।''

আরও পড়ুন: জয়-হীন হতেই BJP-র অন্দরের 'রহস্য ফাঁস' রাহুল সিনহার! নিশানায় কে, শুরু প্রবল জল্পনা

তবে, রাজ্যের তৃণমূল সরকারকেও পেট্রোপন্যের বিষয়ে কটাক্ষ করেছেন তিনি। একটানা বেড়ে যাওয়ার পর সম্প্রতি পেট্রোল ও ডিজেলে শুল্ক কমিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। সেই সূত্রেই বিভিন্ন বিজেপি শাসিত রাজ্যও তাঁদের প্রাপ্ত করের পরিমাণ কমিয়েছে। এ প্রসঙ্গেও রাজ্য সরকারের দিকে প্রশ্ন তুলে বিমান বসু বলেন, কেন্দ্র দাম যখন কমিয়েছে, তখন রাজ্যেরও দাম কমানো উচিত।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Biman Basu, Congress, Cpim