Home /News /kolkata /

Bank Strike: বন্ধ থাকবে এটিএম-ও, তাড়াতাড়ি ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের দিন দেখে না নিলে বিপদ আপনার

Bank Strike: বন্ধ থাকবে এটিএম-ও, তাড়াতাড়ি ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের দিন দেখে না নিলে বিপদ আপনার

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

Bank Strike In December: ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণ রুখতে বহুদিন ধরেই আন্দোলন করে চলেছেন কর্মীরা। ব্যাঙ্ক বেসরকারিকরণ আটকাতে তাঁরা যে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে দেশ জুড়ে বড় মাপের আন্দোলনে নামবেন, তা আগেই বলেছিলেন।

  • Share this:

    #কলকাতা: রাষ্ট্রায়ত্ত্ব সংস্থা বেসরকারিকরণের বিরুদ্ধে দু'দিনের ব্যাঙ্ক ধর্মঘটে কর্মীরা। সেই কারণেই বছর শেষের আগে ফের ব্যাঙ্ক পরিষেবায় সমস্যা দেখা দিতে পারে। বৃহস্পতি ও শুক্রবার দু’দিনের ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে প্রায় সব কর্মী সংগঠন (Bank Strike)। এর ফলে স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া-সহ সমস্ত রাষ্ট্রায়ত্ত ও বেসরকারি ব্যাঙ্কের পরিষেবা ব্যাহত হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

    অতীতেও ইউনাইটেড ফোরাম অব ব্যাঙ্ক ইউনিয়নের ডাকা ধর্মঘটে সম্পূর্ণ ব্যাঙ্ক পরিষেবা বন্ধ হতে দেখা গিয়েছে। সেই অভিজ্ঞতা থেকেই মনে করা হচ্ছে আগামী দু’দিন দেশে আর্থিক লেনদেন বড় রকমের ধাক্কা খাবে। তবে তৃতীয় সপ্তাহ হওয়ায় এই শনিবার ব্যাঙ্ক খোলা থাকবে।

    আরও পড়ুন: কলকাতার দুর্গাপুজোকে হেরিটেজ স্বীকৃতি, ইউনেসকোর ঘোষণায় তিলোত্তমার ঐতিহ্য

    ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণ রুখতে বহুদিন ধরেই আন্দোলন করে চলেছেন কর্মীরা। ব্যাঙ্ক বেসরকারিকরণ আটকাতে তাঁরা যে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে দেশ জুড়ে বড় মাপের আন্দোলনে নামবেন, তা আগেই বলেছিলেন। এ বার সেই পথেই হাঁটছেন তাঁরা। ১৬ ও ১৭ ডিসেম্বর দু’দিনের ব্যাঙ্ক ধর্মঘটে শামিল হচ্ছে, ন’টি ইউনিয়ন। ইউনাইটেড ফোরাম অফ ব্যাঙ্ক  ইউনিয়নের তরফ থেকে বুধবার এক সাংবাদিক সম্মেলন করে অল ইন্ডিয়া ব্যাঙ্ক অফিসারস কনফেডারেশনের পশ্চিমবঙ্গ শাখার সম্পাদক সঞ্জয় দাস জানান, রাজ্যের সরকারি-বেসরকারি সমস্ত ব্যাঙ্ক এই ধর্মঘটে সামিল হবে। অন্য দিকে ইউনাইটেড ফোরাম অব ব্যাঙ্ক  ইউনিয়নস-এর রাজ্য শাখার আহ্বায়ক গৌতম নিয়োগী জানান, কেন্দ্রীয় সরকার যে নীতি নিচ্ছে,তার প্রতিবাদ শুধু এই ধর্মঘটের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকবে না। যদি কেন্দ্রীয় সরকার পিছু না হটে, তবে আগামী দিনে আরও বড়সড় আন্দোলনের প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।

    আরও পড়ুন:  'প্রত্যেক ভারতবাসীর অন্তত একবার কলকাতার দুর্গাপুজো দেখা উচিৎ': নরেন্দ্র মোদি

    কী হবে এই দু'দিন? ধর্মঘটকারীদের তরফ থেকে বলা হয়েছে, এই সময় বন্ধ থাকবে এটিএম পরিষেবা, তবে হাসপাতালের যে এটিএমগুলি রয়েছে, সেগুলি এই ধর্মঘটের আওতায় থাকবে না। সেই কারণেই অনেকের কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়েছে। তাঁরা মনে করছেন, প্রথম দিন টাকার যোগানে তেমন সমস্যা না হলেও পরের দিনটিতে সমস্যা হতে পারে।

    Published by:Uddalak B
    First published:

    Tags: Bank Strike

    পরবর্তী খবর