প্রথম রূপান্তরকামী হিসাবে মার্কিন সেনেটে যাচ্ছেন সারাহ ম্যাকব্রাইড

প্রথম রূপান্তরকামী হিসাবে মার্কিন সেনেটে যাচ্ছেন সারাহ ম্যাকব্রাইড

Photo: AP

বারাক ওবামার আমলে হোয়াইট হাউজে ইন্টার্নশিপ করেছিলেন তিনি। তারপর ২০১৬ সালে ডেমোক্র‌্যাটিক পার্টির কনভেনশনে প্রথম রূপান্তরকামী হিসাবে তিনি বক্তব্য রাখেন।

  • Share this:

    মার্কিন প্রশাসনের কাছে ঐতিহাসিক এক দিন হয়ে রইল ২০২০ সালের ৪ নভেম্বর। মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের পাশাপাশি, এদিনই স্পষ্ট হয়ে গেল ডেলাওয়ার প্রদেশ থেকে সেনেটে যাচ্ছেন প্রথম রূপান্তরকামী সারাহ ম্যাকব্রাইড। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথমবার একজন রূপান্তরকারী নির্বাচিত হয়ে যাচ্ছেন সেনেটে। ডেলাওয়ারে লিঙ্গ বৈষম্য বিরোধী লড়াই ও নারী অধিকারের লড়াইয়ে সামনের সারিতে ছিলেন সারাহ। ‘‌সাম্য আইন’‌–নামে যে আইনটি ভোটে জিতলে ১০০ দিনের মধ্যে কার্যকর করার কথা বলেছেন জো বাইডেন, সেই মতকেও সমর্থন করেছেন তিনি।

    বারাক ওবামার আমলে হোয়াইট হাউজে ইন্টার্নশিপ করেছিলেন তিনি। তারপর ২০১৬ সালে ডেমোক্র‌্যাটিক পার্টির কনভেনশনে প্রথম রূপান্তরকামী হিসাবে তিনি বক্তব্য রাখেন। জাতীয় মানবাধিকার প্রচারের প্রেস সেক্রেটারি হিসাবেও তিনি কাজ করেন। সাধারণ নির্বাচনে তিনি পরাস্ত করেছেন জোসেফ ম্যাককোলেকে। উইলমিংটন থেকে পেনসিলভেনিয়া সীমান্ত পর্যন্ত এই কাউন্টির বিস্তৃতি র‌য়েছে। ১৯৭৬ সাল থেকে এই জেলায় জয় পেয়ে আসছেন ডেমোক্র‌্যাটদের প্রার্থী হ্যারিস ম্যাকডোনাল্ড। ডেলওয়ারের ইতিহাসে তিনিই সবচেয়ে বেশিদিন সেনেট সদস্য থাকার কৃতিত্ব অর্জন করেছেন। সেই ম্যাকডোনাল্ডও সারাহ–এর হয়ে প্রচার করেছিলেন।

    তিনি সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘‌আমার নিজস্ব পরিচয় আমার একটা অংশ মাত্র। আমাদের সংবিধান আমাকে যেভাবে কাজ করার অনুমতি দেবে, আমি সেভাবেই কাজ করব।’‌ এদিকে এখনও স্পষ্ট হচ্ছে না আমেরিকার নির্বাচনে শেষ পর্যন্ত কে জিততে চলেছেন। কারণ, সমীক্ষার হিসাবকে সত্যি প্রমাণ করেই নির্বাচনের লড়াই হচ্ছে সেয়ানে সেয়ানে। খুব কাছাকাছি রয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প ও জো বাইডেন। সামান্য এগিয়ে থাকলেও এখনও বেশ কয়েকটি প্রদেশের ভোটের ফল আসা বাকি আছে, ফলে পাশা উল্টে যেতে পারে যখন তখন।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: