Bangladesh News: 'আমাকে বাঁচান', পথের দৃশ্য দেখল সবাই-ছবিও তুলল! মর্মান্তিক পরিণতি যুবকের...

পথে পড়ে শরীফ!

Bangladesh News: শনিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলের কলেজের কাছে, প্রেসক্লাবের সামনে। পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত ওই যুবকের নাম শরীফ।

  • Share this:

    #ঢাকা: প্রকাশ্য রাস্তায় যন্ত্রণায় ছটফট করছেন এক যুবক। কিন্তু সাহায্যের বদলে তাঁর কষ্ট 'উপভোগ' করতে দেখা গেল বহু মানুষকে। শুধু তাই নয়, কিছু মানুষ আবার হাতে তুলে নিলেন মোবাইল। তুলতে লাগলেন ভিডিও। কিন্তু একজনও এগিয়ে এসে যুবককে উদ্ধার করা তো দূর, হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার প্রয়োজনও বোধ করেননি। শেষমেশ খবর পেয়ে পুলিশ এসে ছুরিতে আঘাত পাওয়া ওই যুবককে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

    কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। শনিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলের কলেজের কাছে, প্রেসক্লাবের সামনে। পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত ওই যুবকের নাম শরীফ। তিনি শ্রীমঙ্গলের শহরতলির শাহজিবাজার এলাকার শায়েস্তা মিঁয়ার সন্তান।

    কিন্তু বাংলাদেশের এই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই সমালোচনার ঝড় ওঠে। ভিডিওতে দেখা যায়, ছুরির আঘাতে মারাত্মক আহত হয়ে ওই যুবক রাস্তায় পড়ে যন্ত্রণায় ছটফট করছেন। রাস্তাতে শুয়েই তিনি নিজের নাম যেমন জানাচ্ছেন, তেমনি শান্তিবাগ এলাকার বাসিন্দা সজীব নামের এক ব্যক্তি তাঁকে ছুরি মেরেছেন বলেও দাবি করছিলেন তিনি। নিজের পরিবারের পরিচয়ও তিনি দিয়েছিলেন যন্ত্রণায় ছটফট করতে-করতেই।

    কিন্তু কেন ঘটল এমন ঘটনা? পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত শরীফ ও তাঁর বন্ধু অভিযুক্ত সজীব শনিবার বিকেলে শহরের একটি হোটেলে রুম ভাড়া নিয়েছিলেন। সেখানে বেশ কিছুক্ষণ তাঁরা ছিলেন। দুপুর সাড়ে তিনটে নাগাদ হোটেলে ঢুকে আবার চারটে নাগাদ তাঁরা বেরিয়েও যায়। সন্ধার সময় তাঁদের মধ্যে বাক বিতন্ডা শুরু হয়। সেই ঘটনার সূত্রেই শরীফকে ছুরি দিয়ে আঘাত করেন সজীব, প্রাথমিকভাবে এমনটাই মনে করা হচ্ছে। অভিযুক্ত সজীব এখন পলাতক। তাঁকে খুঁজছে পুলিশ। কিন্তু যে প্রশ্নটি পাশাপাশি উঠছে, এত মানুষ শরীফকে রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখেও সাহায্যের জন্য এগিয়ে গেলেন না কেন? মানুষের অমানবিক হয়ে ওঠার আরেকটা নিদর্শন নয় তো?

    Published by:Suman Biswas
    First published: