• Home
  • »
  • News
  • »
  • international
  • »
  • HAVE NOT PLAYED ANYWHERE CONFIRMS AMRULLA SALEH AHMED MASOOD SAYS TALIBAN CONQUEST NEWS OF PANJSHJIR GREAT LIE AKD

Panjshir update| তালিবানকে পঞ্জশির দিলে সেটাই অন্তিম দিন হবে, দখলদারির গুজব উড়িয়ে মাসুদের গর্জন

পঞ্জশিরের জন্য জান কবুল লড়াই আহমেদ মাসুদ ও আমরুল্লা সালেহর।

Panjshir update| আমরুল্লা সালেহ-র দেশ ছেড়ে পালানোর গুজবকেও উড়িয়ে দিচ্ছেন তারা। গোটাটাই তালিবান বন্ধু পাক মিডিয়ার পরিকল্পিত অপতথ্য- বলছেন সালেহই।

  • Share this:

    #কাবুল: পঞ্জশিরের দখল নিয়েছে তালিবান, পাকিস্তানি মিডিয়ার এ হেন দাবি উড়িয়ে দিলেন আহমেদ মাসুদ। আফগান জাতীয়তাবাদী নায়ক আহমদ শাহ মাসুদের পুত্র আহমেদ মাসুদ বলছেন, "এমন দিন এলে সেটাই জীবনের অন্তিম দিন হবে।" আমহেদ মাসুদ জানান দিচ্ছেন, তালিবানের বিরুদ্ধে এখনও মাথা উঁচু করে লড়ছে নর্দান অ্যালায়েন্স। পাশাপাশি আমরুল্লা সালেহ-র দেশ ছেড়ে পালানোর গুজবকেও উড়িয়ে দিচ্ছেন তারা। গোটাটাই তালিবান বন্ধু পাক মিডিয়ার পরিকল্পিত অপতথ্য- বলছেন সালেহ নিজেই।

    ৩১ অগাস্ট আফগানিস্তান ছেড়েছে মার্কিন সেনা। তালিবানের পথের একমাত্র কাঁটা এখন পঞ্জশিরের প্রতিরোধ। সে কাঁটা উপড়ে ফেলতে মরিয়া তালিবান সব পথই নিচ্ছে। গতকালই আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের একাংশে তালিবানিরা গুজব ছড়ায় দেশ ছেড়েছেন আমরুল্লা সালেহ। পঞ্জশির এখন তালিবদের দখলে। এর উত্তর দিতেই এগিয়ে এসেছেন আহমদে-সালেহ জুটি। সালেহ বলছেন, "দেশ ছাড়াই প্রশ্নই নেই। আমি পঞ্জশিরের যোদ্ধাদের পাশে আছি। তালিবানি আক্রমণ প্রতিরোধের সর্বাত্মক চেষ্টা চলছে।" ক্ষয়ক্ষতির কথা স্বীকার করে নিয়েও তিনি বলছেন, লড়াই থামবে না। উল্লেখ্য এই একই স্পিরিট পঞ্জশির অতীতে দেখিয়েছে সোভিয়েত আগ্রাসনের বিরুদ্ধে, ১৯৯৬-২০০১ তালিবানের বিরুদ্ধে।

    এদিকে আফগান সরকারের বেশ কিছু পুরনো কর্মীদের গুগল অ্যাকাউন্ট আজ বন্ধ করা হয়েছে। বায়োমেট্রিক এবং পে রোল ডেটা ব্যবহার করে বহু মানুষের ব্যক্তিগত তথ্য করায়ত্ত করতে পারে তালিবান, পরে কাজে লাগানো হতে পারে এই তথ্য। এই সম্ভাবনাকে মাথায় রেখেই এই পদক্ষেপ করেছে গুগল।

    উল্লেখ্য ক্ষমতাদখলের ১৫ দিনের মাথায় তালিবান সরকার গড়ছে আফগানিস্তানে। সূত্রের খবর একটি ধর্মীয় কাউন্সিল গড়ে তোলা হয়েছে এই কাউন্সিলই বিভিন্ন কার্যালয়ের দায়িত্ব নেবে। এর মধ্য়ে সব বয়সি তালিবানরা থাকবে। কাউন্সিলে কোনও মেয়েদের জায়গা দেওয়া হয়নি।

    Published by:Arka Deb
    First published: