• Home
  • »
  • News
  • »
  • india-china
  • »
  • গুলি চালায়নি ভারতীয় সেনা, মিথ্যে অভিযোগ করছে চিন, দাবি সরকারি সূত্রের

গুলি চালায়নি ভারতীয় সেনা, মিথ্যে অভিযোগ করছে চিন, দাবি সরকারি সূত্রের

সম্প্রতি চিনের তরফে বিবৃতি দিয়ে বলা হয়, লাদাখকে বেআইনি ভাবে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করেছে ভারত এবং তারা এই সিদ্ধান্তকে স্বীকৃতি দেয় না৷ পরোক্ষে লাদাখকে ভারতের অংশ হিসেবেই মানতে তারা নারাজ বলে বুঝিয়ে দেয় চিন৷

সম্প্রতি চিনের তরফে বিবৃতি দিয়ে বলা হয়, লাদাখকে বেআইনি ভাবে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করেছে ভারত এবং তারা এই সিদ্ধান্তকে স্বীকৃতি দেয় না৷ পরোক্ষে লাদাখকে ভারতের অংশ হিসেবেই মানতে তারা নারাজ বলে বুঝিয়ে দেয় চিন৷

এই ধরনের বিপজ্জনক পদক্ষেপ থেকে বিরত থাকার জন্য ভারতীয় সেনাকে অনুরোধও করেছে চিনের সেনাবাহিনী৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা পেরিয়ে কোনও গুলি চালায়নি ভারতীয় সেনা৷ চিনা বাহিনীর তোলা অভিযোগের জবাবে এমন দাবি করেছে ভারত সরকারের শীর্ষ সূত্র৷ চিনের সেনাবাহিনীর তরফে অভিযোগ করা হয়েছে, সোমবার প্যাংগং লেকের দক্ষিণ পাড়ে চিনা ভূখণ্ডে অনুপ্রবেশ করে গুলি চালায় ভারতীয় বাহিনী৷

    গত ৫ সেপ্টেম্বর লাদাখে সীমান্ত পরিস্থিতি নিয়ে মস্কোয় বৈঠকে বসেন ভারত ও চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী৷ যদিও সেই বৈঠক কতটা ফলপ্রসূ হয়েছে, তা এখনও পরিষ্কার নয়৷ আগামী বৃহস্পতিবার ফের মস্কোতে ভারত ও চিনের বিদেশমন্ত্রীরা সীমান্তে শান্তি ফেরানোর লক্ষ্যে বৈঠক করবেন৷ তার আগে চিনের এই অভিযোগ প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় নতুন করে উত্তেজনা ছড়ানোর ইঙ্গিত কিনা, সেই প্রশ্ন উঠছে৷

    পিএলএ-এর ওয়েস্টার্ন থিয়েটার কম্যান্ডের মুখপাত্র ঝাং শুইলি অভিযোগ করেন, ''ঘটনার সময় চিনের সীমান্তরক্ষা বাহিনীর নজরদারি দলকে ভয় দেখাতে গুলি চালিয়েছেন ভারতীয় জওয়ানরা৷ পরিস্থিতি সামাল দিতে চিনা সীমান্তরক্ষা বাহিনীও পাল্টা পদক্ষেপ করে৷' এই ঘটনাকে ভারতের দিক থেকে খুব খারাপ ধরনের উস্কানি বলেই মন্তব্য করেছে৷ এই ধরনের বিপজ্জনক পদক্ষেপ থেকে বিরত থাকার জন্য ভারতীয় সেনাকে অনুরোধও করেছে চিনের সেনাবাহিনী৷ চিনা সেনার সরকারি ওয়েবসাইটেই তাদের মুখপাত্রের এই বিবৃতি প্রকাশ করা হয়েছে৷ তবে ভারতীয় বাহিনীকে জবাব দিতে চিনা সেনাও পাল্টা গুলি চালিয়েছে কি না, তা বিবৃতি থেকে স্পষ্ট নয়৷ বিবৃতিতে চিনা সেনার তরফে আরও দাবি করা হয়েছে, অনুপ্রবেশ এবং গুলি চালানোর ঘটনার সঙ্গে কারা জড়িত, তা তদন্ত করে বের করে সেই সেনা জওয়ানদের শাস্তি দিক ভারত৷

    যদিও এমন কোনও ঘটনা ঘটেনি বলেই সরকারি সূত্রের দাবি৷ তবে একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম সেনা সূত্রকে উদ্ধৃত করে দাবি করেছে, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা পেরিয়ে চিনা বাহিনী যাতে আর না এগোয়, তা নিশ্চিত করতেই তাদের হুঁশিয়ার করা হয়৷ পাশাপাশি ওই সময় এক ভারতীয় ব্রিগেডিয়ারের সঙ্গে আলোচনার সময় চিনা কম্যান্ডারদেরও বলা হয়, সংঘাত এড়াতে তাঁদের বাহিনী যেন পিছিয়ে যায়৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: