• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • প্রসেনজিৎ-অতনুর হ্যাট্রিক, আসছে 'শেষ পাতা'

প্রসেনজিৎ-অতনুর হ্যাট্রিক, আসছে 'শেষ পাতা'

থাকছেন বিক্রম চট্টোপাধ্যায়। গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা যাবে গার্গী রায় চৌধুরীকে।

থাকছেন বিক্রম চট্টোপাধ্যায়। গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা যাবে গার্গী রায় চৌধুরীকে।

থাকছেন বিক্রম চট্টোপাধ্যায়। গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা যাবে গার্গী রায় চৌধুরীকে।

  • Share this:

#কলকাতা: আবার একসঙ্গে কাজ করতে চলেছেন পরিচালক অতনু ঘোষ ও প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। 'ময়ূরাক্ষী' ও 'রবিবার'-এর পর 'শেষ পাতা', এবার হ্যাট্রিক করতে চলেছেন এই পরিচালক-অভিনেতা জুটি। এই ছবি দিয়েই সাড়ে তিন বছর পর বড় পর্দায় ফিরছেন বিক্রম চট্টোপাধ্যায়। গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা যাবে গার্গী রায় চৌধুরীকে। প্রযোজনায় ফ্রেন্ডস কমিউনিকেশন।

ঋণ শোধ করার গল্প বলে এই ছবি। জীবনের চলার পথে অনেক সময়ই ঋণী যান অনেকে। আবার ঋণ দিয়েও ফেলেন। তবে এই ঋণ শুধু আর্থিক নয়, মানসিক ঋণের দেনাও চেপে যায়। সূক্ষ্ম অনুভূতি, মানসিক নানা স্তরের গল্প বলে 'শেষ পাতা'। মুখ্য ভূমিকায় প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। তাঁর চরিত্রের নাম বাল্মীকি। এই ছবি সম্পর্কে প্রসেনজিৎ বললেন, 'অতনুর সঙ্গে এই নিয়ে তিনটি ছবিতে কাজ করছি। ওঁর স্টোরি টেলিং অন্য রকমের। গল্পে আমি বাল্মীকি নামে এক লেখকের চরিত্রে, যার এক সময়ে বেশ নামডাক ছিল। কিন্তু তার জীবনেও অনেক ঘটনা ঘটে যায়। চরিত্র নিয়ে খুব বেশি এখনই বলতে পারব না। তবে এটুকু বলতে পারি, এমন চরিত্রে আমি আগে অভিনয় করিনি। ভারতীয় সিনেমাতেও এমন চরিত্র খুব কম তৈরি হয়েছে।’ প্রসেনজিতকে এই ছবিতে পেয়ে ভারী খুশি পরিচালক অতনু। তাঁর কথায়,' আমার আর বুম্বাদার মধ্যে, একে অপরের প্রতি ভরসা, বিশ্বাস রয়েছে। অভিনেতা-পরিচালকের মধ্যে এগুলো থাকা খুব দরকার। আর বুম্বাদা এমন একজন অভিনেতা যিনি পরীক্ষা-নিরীক্ষা করতে ভালোবাসেন। কমফোর্ট জোনের বাইরে কাজ করতে চান বুম্বাদা, এটাও ওঁর একটা গুণ। তাই ওঁর সঙ্গে কাজ করতে এত ভাল লাগে'৷

ছবিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় অভিনয় করছেন গার্গী রায় চৌধুরী। চমক এখানেই শেষ নয়, ছবিতে নিজের কন্ঠে গান গাইবেন তিনি। গার্গীর চরিত্রের নাম মেধা। চরিত্র সম্পর্কে তিনি জানালেন, 'এমন অনেক মানুষ আছে, যাকে হয়তো আমরা খিটখিটে, কিপটে, এ ভাবে চিনি, কিন্তু সেই মানুষটির অন্তরের আলো দেখাবে এ ছবি। এমনই একজন মানুষের বাড়িতে লেখালিখির কাজ নিয়ে আসে মেধা। সেই চরিত্রে রয়েছি আমি। ছবিতে আমার লুকটা একদম নতুন।’

অতনুর এই ছবির অংশ হতে পেরে খুব খুশি বিক্রম। ছবিতে নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের ছেলে শৌনকের চরিত্রে দেখা যাবে তাঁকে। বিক্রম বললেন, 'একে এত বছর পরে ছবির কাজ, তার উপরে অতনুদার মতো পরিচালক, এত ভাল কাস্টিং-সব মিলিয়ে খুব ভাল লাগছে। এখন শুধু শ্যুটিং শুরুর অপেক্ষায়। আমার চরিত্রটাও ইন্টারেস্টিং।’

অতিমারি ফলে অত্যন্ত সতর্কতার সঙ্গে শ্যুটিং করা হচ্ছে। যে কোনও সময় চলে আসতে পারে তৃতীয় ঢেউ। ভাল করে পরিকল্পনা করেই 'শেষ পাতা'-র শ্যুটিং শুরু করার কথা ভাবছেন পরিচালক-প্রযোজক। সেপ্টেম্বর মাস থেকে শুরু হওয়ার কথা ছবির শ্যুটিং। এই প্রসঙ্গে প্রযোজক ফিরদৌস হাসান বললেন, 'অতিমারির মধ্যে এমন বিষয় তুলে ধরতে চাই, যা সিনেমাপ্রেমীদের মনের খোরাক জোগাবে। অতনুর সঙ্গে এটা আমাদের চতুর্থ কাজ। আশা করি, এই ছবিটিও ‘ময়ূরাক্ষী’-র মতোই দর্শকের মন ছুঁয়ে যাবে।’

Published by:Pooja Basu
First published: