Home /News /entertainment /
Bidisha De Majumder: ঘুমের ঘোরে চুম্বন, বিদিশার বন্ধুর কাছে মৃত্যুর দু’দিন আগের ভিডিও

Bidisha De Majumder: ঘুমের ঘোরে চুম্বন, বিদিশার বন্ধুর কাছে মৃত্যুর দু’দিন আগের ভিডিও

নিউজ ১৮ বাংলা যোগাযোগ করল সেই বন্ধু দিপ্সাকে। মানসিক ভাবে বিধ্বস্ত সেই বন্ধু জানালেন, এই ভিডিওটি করা হয়েছিল গত ২৩ মে। তাঁদের এক সহকর্মীর চার বছরের সন্তানের জন্মদিনে সবাই একত্র হয়েছিলেন।

  • Share this:

    #কলকাতা: গত ২৫ মে সন্ধ্যায় উদ্ধার হয়েছে বিদিশা দে মজুমদারের ঝুলন্ত দেহ। প্রয়াত মডেল-অভিনেত্রীর সুইসাইড নোটও পাওয়া গিয়েছে, যেখানে তিনি কাউকে দায়ী করে যাননি। প্রিয় মানুষের প্রতি ভালবাসা জানিয়ে গিয়েছেন বিদিশা।

    শোকস্তব্ধ বিদিশার পরিবার এবং বন্ধুবান্ধব। এই তিন দিনে ফেসবুক উপচে পড়েছে শোকবার্তা। তারই মাঝে খোঁজ মিলল একটি ভিডিওর। ঘুমের ঘোরেও প্রয়াত মডেলের প্রাণবন্ত দিকটি ফুটে উঠেছে।

    ভিডিওটি পোস্ট করেছেন বিদিশার বন্ধু দিপ্সা। তিনিও পেশায় মডেল। বিদিশার খুবই কাছে মানুষ বলে পরিচয় দিয়েছেন তিনি। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, বিদিশা ঘুমাচ্ছেন। ভিডিও যে করছেন (সম্ভবত দিপ্সা-ই), তিনি বিদিশাকে ‘বিদু’, ‘বিদু’ করে ডাকছেন। বলছেন, ‘বিদু, একটা চুমু দাও তো বিদু।’ বিদিশা ঘুমের ঘোরেই তাঁদের কথায় সাড়া দেন। ঘুমের মধ্যেই দু’টি আঙুল দিয়ে নিজের ঠোঁটে ধরে চুম্বন করেন, তার পরে তাঁদের দিকে ছুড়ে দেন। ‘ফ্লায়িং কিস’-এর মতো। তাতে বন্ধুরা উৎফুল্ল হয়ে বলতে থাকেন, ‘‘ঘুমের মধ্যে চুমু দিচ্ছে দেখো!’’

    আরও পড়ুন: 'আমি একা হয়ে যেতে চাইতাম, খুব একা', সুইসাইড নোটে কেন এমনটা লিখলেন বিদিশা?

    নিউজ ১৮ বাংলা যোগাযোগ করল সেই বন্ধু দিপ্সাকে। মানসিক ভাবে বিধ্বস্ত সেই বন্ধু জানালেন, এই ভিডিওটি করা হয়েছিল গত ২৩ মে। তাঁদের এক সহকর্মীর চার বছরের সন্তানের জন্মদিনে সবাই একত্র হয়েছিলেন। সেখানেই এই ভিডিও তোলা হয়। দিপ্সা বললেন, ‘‘খুব প্রাণখোলা মেয়ে ছিল বিদিশা। সবাইকে টেনে টেনে নাচ করাত, সবাইকে আনন্দে রাখত, হাসিখুশি রাখত।’’

    আরও পড়ুন: আজ ছিল শ্রাদ্ধ, বিদিশার স্মৃতিতে গরিব মানুষের হাতে খাবার তুলে দেবে পরিবার

    বিদিশার অন্যান্য বন্ধুর মতো দিপ্সাও অনুভবের উপর ক্ষুব্ধ। তাঁর বক্তব্য, ‘‘বিদিশা সব সময়ে অনুভবকে নিজের প্রেমিক হিসেবেই পরিচয় দিত। এখন সেই ছেলে বলছে, ও বিদিশাকে নাকি ভালইবাসত না? জামশেদপুরে সবাই মিলে একসঙ্গে কাজে গিয়েছিলাম। সেখানে আমাদের হোটেলে এসেছিল অনুভব। আমার প্রথম থেকেই ছেলেটিকে ভাল লাগেনি। আর এক বার কাজ থেকে ফেরার সময়ে খড়দহতে ট্রেন দাঁড়িয়েছিল খানিক ক্ষণের জন্য। তখন অনুভব এসে বিদিশাকে খাবার দিয়ে গেল। সবাইকে একসঙ্গে মিলে মিশে খেতে বলে গেল। এর পরও বলব, প্রেম করত না ওরা?’’

    Published by:Teesta Barman
    First published:

    Tags: Bidisha de majumdar, Bidisha Dey Majumdar death, Model Death

    পরবর্তী খবর