Home /News /entertainment /
Bappi Lahiri : বাপ্পি লাহিড়ির প্রয়াণে শোকাচ্ছন্ন মধ্যপ্রদেশের মানুষ! বিশেষ যোগ ছিল এই রাজ্যের সঙ্গে

Bappi Lahiri : বাপ্পি লাহিড়ির প্রয়াণে শোকাচ্ছন্ন মধ্যপ্রদেশের মানুষ! বিশেষ যোগ ছিল এই রাজ্যের সঙ্গে

বাপ্পি লাহিড়ির প্রয়াণে শোকাচ্ছন্ন মধ্যপ্রদেশের মানুষ!

বাপ্পি লাহিড়ির প্রয়াণে শোকাচ্ছন্ন মধ্যপ্রদেশের মানুষ!

Bappi Lahiri: শুধু পশ্চিমবঙ্গ ও মুম্বই নয়। বাপ্পি লাহিড়ির সঙ্গে বিশেষ যোগ ছিল মধ্যপ্রদেশেরও।

  • Share this:

    #মুম্বই: বুধবার সকালে হঠাৎই খারাপ খবর আসে। প্রয়াত ডিস্কো কিং বাপ্পি লাহিড়ি (Bappi Lahiri)। খবর শুনেই মন ভার গোটা দেশের। শুধু পশ্চিমবঙ্গ ও মুম্বই নয়। বাপ্পি লাহিড়ির সঙ্গে বিশেষ যোগ ছিল মধ্যপ্রদেশেরও। কিংবদন্তির মেয়ের বিয়ে হয়েছিল মধ্যপ্রদেশের মোরেনা জেলার জৌরা টাউনের বাসিন্দা গোবিন্দ বনসলের সঙ্গে। আর তার সেই অঞ্চলের মানুষেরও মন ভার। গোবিন্দ বনসলের কথায়, "ওঁর মৃত্যু শুধু পরিবারের ক্ষতি নয়। গোটা দেশের ক্ষতি।"

    ২০০৭ সালে বাপ্পি লাহিড়ির (Bappi Lahiri) মেয়ে রিমার বিয়ের হয়। জামাই গোবিন্দ বনসল পেশায় একজন ব্যবসায়ী। বিয়ের অনুষ্ঠানের সময়ে টানা আটদিন গোয়ালিয়ারে ছিলেন বাপ্পি লাহিড়ি। মেয়ের বিয়ের সূত্রেই মধ্যপ্রদেশেও বহু বন্ধু তৈরি হয়েছিলে ভারতের গোল্ডম্যানের। তাই সেখানকার মানুষও শোকাচ্ছন্ন খবর শোনার পর থেকে। মেয়ের বিয়ের রিসেপশন হয়েছিল মুম্বই, দিল্লি ও গোয়ালিয়ার এই তিন শহরেই।

    গোবিন্দ বনসলের এক বন্ধু ডক্টর রাম পাণ্ডে বলছেন, বিয়ের সময়ে তাঁরও বাপ্পি লাহিড়ির সঙ্গে দেখা হয়েছিল। বাপ্পি লাহিড়ি (Bappi Lahiri) সবার সঙ্গে মিলেমিশে গিয়েছিলেন। সকলের সঙ্গেই খুব স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করছিলেন। এমনকি রাম পাণ্ড তাঁকে বাড়িতে চা খাওয়ার নিমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। তাঁর বাড়িতে চা খেয়েছিলেন বাপ্পিদা। আর তাই বাপ্পি লাহিড়ির হাসিখুশি ছবিটাই তাঁর স্মৃতিতে রয়ে গিয়েছে।

    আরও পড়ুন- শেষযাত্রায় 'ডিস্কো কিং', প্রিয় শিল্পীকে শেষবারের মতো দেখতে অনুরাগীদের ভিড়

    ২০০৬ সালে পরিবার ও ঘনিষ্ঠজনদের নিজেই বাপ্পি লাহিড়ি জানিয়েছিলেন যে মেয়ের জন্য চম্বল এলাকায় তাঁর পাত্র দেখা আছে। ওই এলাকা ডাকাত অধ্যুষিত। প্রায়ই নানা রকম ডাকাতির ঘটনা শোনা যায়। সেখানে মেয়ের বিয়ে ঠিক করেছেন শুনে অবাক হয়েছিলেন অনেকেই। আজ সেই এলাকার মানুষও শোকস্তব্ধ।

    আরও পড়ুন- বাবার শেষকৃত্যের জন্য সপরিবারে আমেরিকা থেকে মুম্বইয়ে ছেলে বাপ্পা, পবন হংস মহাশ্মশানে অন্ত্যেষ্টি ক্রিয়া বাপ্পি লাহিড়ির

    প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার রাতে অবস্ট্রাক্টিভ স্লিপ অ্যাপনিয়ায় মৃত্যু হয় বাপ্পি লাহিড়ির। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৯। বাপ্পি লাহিড়ির সৃষ্টি আই অ্যাম এ ডিস্কো ডান্সার গানটি বলিউডের গানের জগতে একটি মাইলস্টোন। গানটি তুমুল হিট করেছিল। আর তার পর থেকে পিছন ফিরে তাকাতে হয়নি তাঁকে। ১৯৭৩ সালে নানহা শিকারি নামে একটি হিন্দি ছবিতে প্রথম কাজ বাপ্পি লাহিড়ির। টাইগার শ্রফ ও শ্রদ্ধা কাপুর অভিনীত 'বাঘি ৩' হল তাঁর শেষ হিন্দি ছবির কাজ।

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published:

    Tags: Bappi Lahiri, Bappi Lahiri death

    পরবর্তী খবর